BREAKING NEWS

২৮ চৈত্র  ১৪২৭  রবিবার ১১ এপ্রিল ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

ইভিএমে কারচুপির আশঙ্কা, দলীয় কর্মীদের ধাপে ধাপে সতর্কতার পাঠ দিলেন মমতা

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: March 19, 2021 3:25 pm|    Updated: March 19, 2021 3:45 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: পূর্ব মেদিনীপুরের (Purba Medinipur) মেচেদার সভা থেকে ফের ভোট লুটের আশঙ্কা প্রকাশ করলেন নন্দীগ্রামের তৃণমূল প্রার্থী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কর্মীদের সতর্ক করার পাশাপাশি পরামর্শ দিলেন, ভাল করে ইভিএম (EVM) পরীক্ষা করার। একাধিক ইস্যুতে বিঁধলেন বিজেপিকে (BJP)।

শুক্রবার এগরা, পটাশপুরের পর মেচেদায় সভা করেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেখান থেকেই ফের বিজেপি নেতাদের ‘বহিরাগত’ বলে কটাক্ষ করেন তিনি। অভিযোগ করেন, বিজেপি ভোট লুট করার জন্য বহিরাগতদের বাংলায় আনবে। অসৎ উপায়ে জেতার চেষ্টা করবে। আশঙ্কা প্রকাশের পাশাপাশি সমাধানের উপায়ও বলে দেন তৃণমূল নেত্রী। কর্মী-সমর্থকদের উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, “মেশিনগুলো খুব ভাল করে দেখে নেবেন। হাতে সময় নিয়ে ইভিএম পরীক্ষা করবেন। তিরিশটা ভোটের পরই ভোট প্রক্রিয়া শুরু করবেন না। কোনও বুথ কর্মীকে যাতে বিজেপিরা কিনে নিতে না পারে সেদিকে নজর রাখবেন।” কেউ জোরপূর্বক ভোট লুটের চেষ্টা করলে মা বোনেদের হাতা-খুন্তি হাতে এগিয়ে যাওয়ার পরামর্শও দেন মমতা।

[আরও পড়ুন: দলীয় কর্মীদের বিক্ষোভের জের, জনপ্রিয়তায় জোর, রাজ্যের ৪ কেন্দ্রে প্রার্থী বদল তৃণমূলের]

উল্লেখ্য, মেচেদার সভা থেকে এদিন গ্যাসের দামবৃদ্ধি থেকে মূর্তি ভাঙা, কফি হাউসে অশান্তি-সহ একাধিক ইস্যুতে বিজেপিকে আক্রমণ করেন মমতা। বলেন, “যারা রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের জন্মস্থান কোথায় তা জানে না, তারা নাকি বাংলা দখল করবে।” বেকারত্ব বৃদ্ধির জন্যও কেন্দ্রকেই তোপ দাগেন মমতা। পাশাপাশি, রাজ্যের উন্নয়ন মূলক প্রকল্প অর্থাৎ কন্যাশ্রী, রূপশ্রী, শিক্ষাশ্রী, যুবশ্রীর কথা এদিন ফের আমজনতার সামনে তুলে ধরেন তিনি। পরবর্তীতে ক্ষমতায় এলে তৃণমূল সরকার রাজ্যবাসীর জন্য কী কী করবেন, তার খতিয়ানও তুলে ধরেন। আশ্বাস দেন সমস্ত পরিস্থিতিতে পাশে থাকার।

[আরও পড়ুন: ফের বিতর্কে বিশ্বভারতী, কেন্দ্রীয় অফিসের সামনে রাস্তা বন্ধ করায় বিপাকে এলাকাবাসী]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement