BREAKING NEWS

২২ বৈশাখ  ১৪২৮  বৃহস্পতিবার ৬ মে ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘অনুপ্রবেশকারীরাই আপনার ভোটব্যাংক’, মমতাকে তীব্র আক্রমণ অমিত শাহের

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: April 22, 2021 7:04 pm|    Updated: April 22, 2021 7:38 pm

An Images

রাজা দাস, বালুরঘাট: “অনুপ্রবেশকারীরাই আপনার ভোট ব্যাংক”, হরিরামপুরের সভা থেকে বৃহস্পতিবার এভাবেই তৃণমূল সুপ্রিমোকে আক্রমণ করলেন অমিত শাহ (Amit Shah)। ক্ষমতায় এলে উত্তরবঙ্গে কী ধরনের উন্নয়ন হবে, সকলের সামনে তুলে ধরলেন তার খতিয়ান।চাকরি থেকে শিক্ষা সব সমস্যা সমাধানের আশ্বাস দিলেন তিনি।

দক্ষিণ দিনাজপুরের ৬টি বিধানসভা আসনের নির্বাচনকে (West Bengal Assembly Election) সামনে রেখে বৃহস্পতিবার হরিরামপুরে একটা সভা করেন অমিত শাহ। করোনার কারণে শাহের এই সভায় যোগ দেওয়ার অনুমতি পেয়েছিলেন মাত্র ৫০০ জন। শিলিগুড়িতে বৃষ্টির কারণে নিদিষ্ট সময়ের অনেকটা পরেই সভায় যান অমিত শাহ। সেখানে তিনি বলেন, “দিদির কাজের খতিয়ান বলে কিছু নেই। ওনার ভাষণ শুনুন। ভাষণের শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রী ও আমাকে গালিগালাজ করেন। বলেন বহিরাগত, বহিরাগত আর বহিরাগত। ” দেশের প্রধানমন্ত্রী বাংলার মানুষের সঙ্গে কথা বলতে পারেন কিনা? প্রশ্ন ছুঁড়ে দেন সাধারণ মানুষের দিকে। শাহের কথায়, “আমি এদেশে জন্মেছি, পালিত ও বড় হয়েছি। আমার মৃত্যু যেন এই পবিত্রভূমিতে হয় এবং আমি এখানেই চিতায় ভস্ম হতে চাই। আমি বহিরাগত নই।” মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে তোপ দেগে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, “আপনার যে ভোট ব্যাংক তা পুরোটাই অনুপ্রবেশকারী। এই অনুপ্রবেশকারীরা বহিরাগত। আপনি তার উপর নির্ভর করেই বাংলায় শাসন করতে চাইছেন।” শাহের কথায়, “অনুপ্রবেশকারীদের তৃণমূল আটকাতে পারবে না, কমিউনিস্ট-কংগ্রেসও পারবে না। কারণ, এই অনুপ্রবেশকারীরা তিনটি দলের ভোট ব্যাংক।” এরপরই শাহ বলেন, “২মে বিজেপি সরকার বানান। আমরা এমন একটি সরকার গড়ব যেখানে ব্যক্তি বা মানুষ তো দূরের কথা, পতঙ্গও সীমান্তে পা ফেলতে পারবে না। বিজেপির সংকল্প বাংলায় অনুপ্রবেশকারীদের আটকানো, যা সুনিশ্চিত।”

[আরও পড়ুন: ‘আইনি পদক্ষেপ নেবই’, অশোকনগরে কেন্দ্রীয় বাহিনীর গুলি চালানোর অভিযোগে হুঁশিয়ারি মমতার]

এদিন CAA লাগু করার বিষয়ে বিজেপি সরকারের অবস্থান অটল বলে জানান অমিত শাহ। তাঁর কথায়, মতুয়া, নমশূদ্রদের নাগরিকত্ব পাওয়া উচিত। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে কটাক্ষ করে বলেন, “মমতা দিদি আপনার সময় সমাপ্ত। বিজেপি সরকার আসবে। আমি কথা দিয়ে যাচ্ছি, ওই সম্প্রদায়দের নাগরিকত্ব দেওয়ার পাশাপাশি তাঁদের যথাযথ সন্মান দেব।” উন্নয়নের একাধিক খতিয়ান তুলে ধরে এদিন মঞ্চ থেকে কার্যত ঝড় তোলেন অমিত শাহ। বলেন, এতবছর বাংলায় কমিউনিস্ট এবং দিদির শাসন ছিল। কিন্ত উত্তরবঙ্গে অনেক অন্যায় হয়েছে। উত্তরবঙ্গে বিকাশের জন্য না দিদি করেছে, না কমিউনিস্ট। তারা সবসময় উত্তরবঙ্গকে সৎ হিসেবেই দেখেছে। এদিন শাহ প্রতিশ্রুতি দেন, বিজেপি বাংলায় সরকার গঠন করলেই কলকাতা-শিলিগুড়ি ৬৭৫ কিলোমিটার নেতাজি সুভাষচন্দ্র বোস রাজমার্গ তৈরি হবে। যা দিয়ে তিনঘন্টায় কলকাতা যাওয়া যাবে। দ্রুত তেতুলিয়া করিডর নির্মানে কেন্দ্রের সহায়তা নেব। বাংলাদেশের তেতুলিয়া জেলা হয়ে উত্তর দিনাজপুর জেলার চোপড়াকে জলপাইগুড়ি, ময়নাগুড়ি পর্যন্ত জুড়ে দেওয়া যাবে। এছাড়াও আরও একাধিক প্রতিশ্রুতি দেন তিনি।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement