BREAKING NEWS

১৯ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  সোমবার ৬ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

বামনগাছির পর কালিয়াগঞ্জ, এবার একই দিনে দু’বার গণধর্ষণের শিকার তরুণী

Published by: Paramita Paul |    Posted: January 2, 2020 10:49 am|    Updated: January 2, 2020 11:20 am

Woman gang raped twice on new year eve at Kaliaganj.

শংকর কুমার রায়: একইদিনে দু’বার গণধর্ষণের শিকার এক তরুণী। ঘটনাস্থল কালিয়াগঞ্জ।৩১ ডিসেম্বর রাত সাড়ে দশটা নাগাদ হোটেল থেকে দিন মজুরির কাজ করে ফিরছিলেন বছর সাতাশের ওই তরুণী। কালিয়াগঞ্জের ধনকৈল এলাকা থেকে ওই তরুণীকে অপহরণ করে দুই যুবক।নির্জন এলাকায় নিয়ে গিয়ে তাঁকে ধর্ষণ করা হয়। পাশবিক অত্যাচারের পর তাঁকে সেখানেই ফেলে রেখে চম্পট দেয় দুই যুবক। বাড়ি ফেরার পথে নির্যাতিতাকে গাড়িতে তুলে ফের ধর্ষণ করে রাস্তায় ফেলে দিয়ে যায় আরেক যুবক। গোটা ঘটনার পাশবিকতায় শিউরে উঠেছে গোটা রাজ্য।

দিল্লি, বিহার, হায়দরাবাদ-একের পর এক গণধর্ষণের ঘটনার সাক্ষি থেকেছে গোটা দেশ। এবার সেই তালিকায় নাম জুড়ল কালিয়াগঞ্জেরও। হরিহরপাড়ার বাসিন্দা ওই তরুণীর স্বামী দিল্লিতে চাকরি করেন। স্থানীয় এক হোটেলে দিনমজুরের কাজ করেন ওই তরুণী। নির্যাতিতার পরিবারের অভিযোগ, হোটেল থেকে কাজ করে ফেরার পথে তরুণীকে তুলে নিয়ে যায় সুজন বর্মণ ও শিবু বর্মণ নামে দুই মদ্যপ যুবক। মিনিব্যাংকের পাশে নির্জন জায়গায় পাশবিক অত্যাচার করে তারা। সেসময় মেয়েটিকে জোর করে মদ খাওয়ানো হয়েছিল বলেও অভিযোগ।এদের মধ্যে শিবুকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

[আরও পড়ুন : সঙ্গে রাখুন ছাতা, শীতকালীন বৃষ্টির পূর্বাভাস কলকাতা-সহ গোটা রাজ্যে]

জানা গিয়েছে, মেয়েটিকে ফেলে রেখে চম্পট দিয়েছিল দুই যুবক। এরপর নির্যাতিতা কোনওরকমে সেখান থেকে উঠে বাড়ির ফেরার চেষ্টা করে। আর তখনই রাস্তা থেকে তাঁকে ফের একটি গাড়িতে তুলে ধর্ষণ করে নকুল মহন্ত। তাকেও পুলিশ গ্রেফতার করেছে। সুজনের খোঁজে তল্লাশি শুরু হয়েছে।

[আরও পড়ুন : জনসংযোগ বাড়াতে জোর দিন সোশ্যাল মিডিয়ায়, তৃণমূল বিধায়কদের দাওয়াই পিকে’র]

এদিকে রাত অবধি বাড়ি না ফেরায় মেয়ের খোঁজে রাস্তায় বের হন নির্যাতিতার মা। রাত পৌনে দুটো নাগাদ ধনকৈল মোড়ে বসে মেয়েকে কাঁদতে দেখেন তিনি। মাকে কাছে পেয়ে কাঁদতে কাঁদতে গোটা বিষয়টি জানায় সে। বৃহস্পতিবার ধৃত দুজনকে আদালতে তোলা হবে। ঘটনা প্রসঙ্গে রায়গঞ্জের পুলিশ সুপার সুমিত কুমার জানান, অভিযুক্তদের জেরা করে আরেক জনের খোঁজ করা হচ্ছে।   

 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে