২১  আষাঢ়  ১৪২৯  বুধবার ৬ জুলাই ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

ফাইন্যান্স সংস্থাকে পথে বসিয়ে বাইক শো-রুমের আড়ালে প্রতারণা, ধৃত যুবক

Published by: Kumaresh Halder |    Posted: December 6, 2018 1:19 pm|    Updated: December 6, 2018 1:19 pm

Youth arrested in Bongaon

নিজস্ব সংবাদদাতা, বনগাঁ: সাজানো শো-রুম৷ রাখা নামী-দামি কোম্পানি মোটরবাইক৷ ঝাঁ-চকচকে শো-রুমের কর্মচারীর সংখ্যাও বেশ৷ প্রত্যেকেরই বেতন মোটা অঙ্কের৷ বেশ চলছিল কারবার৷ মাঝেমধ্যে টুকটাক অভিযোগও আসছিল৷ কিন্তু, শো-রুমের আড়ালে ফাইন্যান্স কোম্পানিকে পথে বসানোর নয়া প্রতারণার ফাঁদ পাতা ছিল, তা ভাবতেও পারেনি কেউ৷ অবশেষে পুলিশি অভিযানে নয়া প্রতারণার জারিজুরির পর্দাফাঁস করল গাইঘাটা থানার পুলিশ৷

[অমিত শাহর সভামঞ্চের পাশে বোমাবাজি, তীব্র উত্তেজনা কোচবিহারে]

প্রতারণার শিকার হওয়া এক গ্রাহকের অভিযোগের ভিত্তিতে ঘটনার তদন্তে নেমে পুলিশ৷ কয়েক লক্ষ টাকার প্রতারণার অভিযোগে এক যুবককে গ্রেপ্তার করে পুলিশ৷  ধৃতের নাম শরিফ মোল্লা৷ ধৃতের বাড়ি দেগঙ্গা থানা এলাকায়৷ ধৃতকে বনগাঁ আদালতে তুলে ফের নিজেদের হেফাজতে নেয় পুলিশ৷ ধৃতকে জেরা করে পুলিশ জানতে পারে, মুস্তাকিন নামে এক ব্যক্তির ইছাপুরের মোটরবাইক শো-রুমে কাজ করত ধৃত ওই যুবক৷ চক্রের মূলপাণ্ডা মুস্তাকিন কামারহাটির এক ডিস্ট্রিবিউটরের কাছ থেকে বিভিন্ন কোম্পানির বাইক নিয়ে এসে শো-রুমে রাখত৷ তার পর ‘দালাল’ মারফত প্রচার চালিয়ে মোটরবাইক বিক্রি করত তারা৷ কিন্তু, বাইক বিক্রির টাকা ফাইন্যান্স কোম্পানিতে জমা না দিয়ে পুরো টাকাটাই হজম করত বেমালুম৷

[লবনের খোঁজে লোকালয়ে হানা বুনো দাঁতালের, আতঙ্কিত গ্রামবাসীরা]

এই কাজে মুস্তাকিনকে সাহায্য করত ধৃত শরিফের মতো যুবকরা৷ এরপরই গ্রাহকরা বাইকের বৈধ কাগজপত্র দাবি করলে, তাদের তা দেওয়া হত না বলেও অভিযোগ৷  এরপরেই দীর্ঘদিন হয়রানির শিকার হয়ে অবশেষে পুলিশে অভিযোগ জানান বেশ কয়েকজন গ্রাহক৷ মাস দেড়েক আগে শো-রুম বন্ধ করে দেয় অভিযুক্ত মুস্তাকিন৷  প্রতারণার এই নতুন ছকের ঘটনায় স্বভাবতই চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে গোটা এলাকায়৷ গোটা ঘটনার পর থেকে গাঢাকা দিয়েছে অভিযুক্ত ওই ব্যক্তি৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে