৩ মাঘ  ১৪২৮  সোমবার ১৭ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

রিপোর্ট আসার আগেই ভারত ছাড়েন দেশের প্রথম ওমিক্রন আক্রান্ত, পাড়ি দেন দুবাই

Published by: Kishore Ghosh |    Posted: December 2, 2021 9:00 pm|    Updated: December 2, 2021 9:01 pm

First Omicron Patient of India Left For Dubai | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভারতে থাবা বসিয়েছে করোনা ভাইরাসের নয়া স্ট্রেন ওমিক্রন (Omicron)। কর্ণাটকের (Karnataka) ২ ব্যক্তির শরীরে ওমিক্রনের (Omicron) সন্ধান মিলেছে। যাঁদের একজনের বয়স ৬৬ বছর, অপরজন ৪৬ বছরের ব্যক্তি। এরই মধ্যে চাঞ্চল্যকর তথ্য সামনে এল। জানা গিয়েছে, বেঙ্গালুরুর (Bengaluru) ওমিক্রন আক্রান্ত ৬৬ বছরের ব্যক্তি কর্ণাটকে নেই। গত ২৭ নভেম্বর বিমানে চেপে তিনি দুবাই (Dubai) চলে গিয়েছেন। 

বৃহৎ বেঙ্গালুরু মহানগর পালিকার তথ্য অনুযায়ী, গত ২০ নভেম্বর দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে ভারতে আসেন ৬৬ বছরের ব্যক্তি। সেই সময় তাঁর সঙ্গে ছিল কোভিড নেগেটিভ রিপোর্ট। টিকার দু’টি ডোজও নেওয়া রয়েছে তাঁর। বেঙ্গালুরু বিমানবন্দরে নামার পর শহরের একটি হোটেল ওঠেন তিনি। এরপরই কোভিড পরীক্ষায় জানা যায় তিনি আক্রান্ত। সরকারি চিকিৎসক পরীক্ষা করে জানান, ওই ব্যক্তি করোনা আক্রান্ত হলেও উপসর্গহীন। তাঁকে নিভৃতবাসে থাকার পরামর্শ দেন চিকিৎসক।

[আরও পড়ুন: ছেলেকে কামড়েছে কুকুর, ‘প্রতিশোধ’ নিতে সারমেয়র পা কেটে খুন ব্যক্তির]

২২ নভেম্বর ৬৬ বছরের ওই ব্যক্তির সোয়াবের নমুনা জিনোম সিকোয়েন্সিংয়ের জন্য পাঠানো হয়। যেহেতু ওমিক্রনের হদিশ মেলা ‘ঝুঁকিপূর্ণ’ দেশ থেকে এসেছেন তিনি। ওই ব্যক্তির সংস্পর্শে আসা ২৪ জনেরও কোভিড পরীক্ষা করানো হয়। রিপোর্টে তাঁরা কোভিড নেগেটিভ বলে জানা যায়। সতর্কতার কারণে এই ২৪ জনের সংস্পর্শে এসেছিলেন যাঁরা, তেমন ২৪০ জনেরও কোভিড পরীক্ষা হয়। তবে তাঁরাও কোভিড নেগেটিভ বলে জানা যায়। 

এর মধ্যে ২৩ নভেম্বর ৬৬ বছরের ব্যক্তি একটি বেসরকারি হাসপাতালে কোভিড পরীক্ষা করান। সেখানে তাঁর নেগেটিভ রিপোর্ট আসে। এরপরই ২৭ নভেম্বর গভীর রাতে হোটেল ছাড়েন ব্যক্তি, ক্যাব ভাড়া করে বেঙ্গালুরু বিমানবন্দরে যান ও দুবাইয়ের উদ্দেশ্যে রওনা দেন। আর আজ বৃহস্পতিবার জিনোম সিকোয়েন্সিংয়ের রিপোর্ট আসার পর জানা যায়, যে তিনি করোনা ভাইরাসের নতুন স্ট্রেন ওমিক্রনে আক্রান্ত।

[আরও পড়ুন: চলন্ত ট্রেনে প্রসব বেদনা যুবতীর, রেলকর্মীদের তৎপরতায় জন্ম সদ্যোজাতর]

প্রসঙ্গত, ওমিক্রন রুখতে বুস্টার ডোজের প্রয়োজন কতটা, তা নিয়ে সম্প্রতি আলোচনায় বসেছিল নীতি আয়োগ (Niti Ayog)।  বিজ্ঞানীরা বলছেন, এখনই বুস্টার ডোজের প্রয়োজন নেই। তবে দেশে ১৮ ঊর্ধ্ব সব বাসিন্দাদের করোনা টিকার ডাবল ডোজ সম্পূর্ণ করা দরকারি বলে পরামর্শ তাঁদের।   

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে