২৩  শ্রাবণ  ১৪২৯  বুধবার ১০ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

লকডাউনে রোজগার বন্ধ, বলিউড ইন্ডাস্ট্রির প্রবীণ ‘ড্রেস দাদা’র পাশে কৃতি স্যানন

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: May 19, 2020 2:07 pm|    Updated: May 19, 2020 2:07 pm

Kriti Sanon urges producers to clear dues of daily wagers

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বিগত ২ মাস ধরে চলতে থাকা লকডাউনের জেরে বন্ধ কাজ। রোজগারও নেই। আর ৫জন দৈনন্দিন মজুরীভিত্তিক কলাকুশলীদের মতোই বেজায় সমস্যায় পড়েছেন হিন্দি টেলিভিশন জগতের ‘ড্রেস দাদা’। একাধিক ধারাবাহিকের কস্টিউম বিভাগে রয়েছেন তিনি। দীর্ঘকাল ধরেই এই পেশার সঙ্গে যুক্ত। কিন্তু বর্তমানে কাজ বন্ধ থাকায় বেজায় সমস্যায় পড়েছেন। সেই ‘ড্রেস দাদা’র দিকেই সাহায্যের হাত বাড়ালেন ‘বরেলি কি বরফি’, ‘হাউসফুল ফোর’ খ্যাত অভিনেত্রী কৃতি স্যানন।

‘হামারি বহু সিল্ক’ নামের এক ধারাবাহিকের সঙ্গে বর্তমানে যুক্ত এই ‘ড্রেস দাদা’। লকডাউনে কাজ না থাকায় সমস্যায় তো পড়েইছেন, উপরন্তু ‘গোদের উপর বিষফোঁড়া’ হয়ে দাঁড়িয়েছে প্রযোজনা সংস্থার থেকে না পাওয়া বকেয়া টাকা। কৃতির কথায়, ভয়ংকর পরিস্থিতি! আমার বন্ধু এই ধারাবাহিকের সঙ্গে যুক্ত হওয়ার সুবাদে, আমি তো শুধু এই একজনের কথাই জানতে পেরেছি! আরও কতজন হয়তো রয়েছেন এরকম সমস্যায়। আমি প্রযোজকদের অনুরোধ করব, দয়া করে ওদের বকেয়া পারিশ্রমিকগুলো মিটিয়ে দিন। ওঁরা ভীষণই খাটেন। আর এই টাকাটা ওঁদের প্রাপ্যও।

এর পাশাপাশি কৃতি তাঁর পোস্টে CINTAA-কে ট্যাগ করেও বিষয়টিতে দৃষ্টি নিক্ষেপ করার আরজি জানিয়েছেন। তাঁর কথায়, “আমরা সকলে কঠিন সময়ের মধ্য দিয়ে যাচ্ছি। শুধু এন্টারটেইনমেন্ট ইন্ডাস্ট্রি নয়, আমি অন্যান্য ক্ষেত্রের উদ্দেশেও অনুরোধ করছি যে কর্মীদের বকেয়া বেতন এই সময়ে মিটিয়ে দিন দয়া করে।”

[আরও পড়ুন: ‘প্রেমিকার মাথায় সলমনের বোতল ভাঙার গল্প শুনেই বড় হয়েছি’, ফের ভাইজানকে কটাক্ষ সোনার]

অন্যান্য ক্ষেত্রের মতো বিনোদুনিয়াও যে বড়সড় আর্থিক ধ্বসে বিধ্বস্ত হতে চলেছে, তা আর আলাদা করে বলার অপেক্ষা রাখে না! এই লকডাউনের জেরে সবচাইতে বেশি সমস্যার সম্মুখীন হচ্ছেন জুনিয়র কলাকুশলীরা। যারা কিনা সিনেমার সেটে দিনরাত খেটে পরিচালকের ভাবনাকে পর্দায় ফুটিয়ে তুলতে সাহায্য করেন। এই দৈনন্দিন মজুরীর ভিত্তিতে কাজ করা কলাকুশলীদের সমস্যার কথা চিন্তা করেই তাঁদের দিকে আর্থিক সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে প্রোডিউসার্স গিল্ড ইন্ডিয়া (Producers Guild India) , CINTAA-সহ একাধিক তারকাও। তবে অনেকের কাছেই এখনও আর্থিক সাহায্য পৌঁছয়নি। উপরন্তু লকডাউনে শুট বন্ধ হওয়ার জেরে কেউ কেউ আবার বকেয়া টাকাও পাননি প্রযোজনা সংস্থার কাছে। ফলে বেজায় সমস্যার মধ্যে পড়েছেন দিনমজুররা। একপ্রকার আধপেটা খেয়ে কোনও দিন আবার অভুক্ত থেকেই পরিবার নিয়ে দিন কাটাতে হচ্ছে। তাঁদেরই একজন হলেন এই ‘ড্রেস দাদা’।

[আরও পড়ুন: ‘এই কুরুচিকর মানসিকতা অত্যন্ত ঘৃণ্য’, পরিবারকে নিয়ে ভুয়ো খবরে ক্ষুব্ধ কোয়েল]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে