১৪  আষাঢ়  ১৪২৯  বুধবার ২৯ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

রাজ চক্রবর্তীর নতুন ছবিতে ঋত্বিক-পার্নো, প্রেক্ষাপটে অস্থির রাজনৈতিক পরিস্থিতি

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: August 11, 2019 6:25 pm|    Updated: August 11, 2019 6:25 pm

Raj Chakraborty’s new political drama named ‘Hey Garbhadharini’

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সদ্য কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হয়েছেন পরিচালক রাজ চক্রবর্তী। প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের মতো হেভিওয়েট টলিউড তারকাকে সরিয়ে চেয়ারম্যান পদে রাজের নিযুক্ত হওয়া নিয়ে ঘোর বির্তকের সৃষ্টিও হয়েছে। যদিও দুই তারকার মধ্যে সৌহার্দ্যপূর্ণ সম্পর্ক মোটেই ক্ষুণ্ণ হয়নি এর জেরে। এককথায় বর্তমানে খবরের শিরোনামে রাজ চক্রবর্তী। তবে এত বিতর্কের মাঝেই রাজ সেরে ফেললেন তাঁর নতুন ছবির মহরৎ।  

[আরও পড়ুন: ‘ঠগবাজরাই রাজত্ব করুক’, মোদি সরকারের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে টুইটার ছাড়লেন অনুরাগ]

দিন কয়েক আগেই শোনা গিয়েছিল বর্তমান অস্থির রাজনৈতিক পরিস্থিতি উঠে আসতে চলেছে রাজ চক্রবর্তীর ফ্রেমে। ‘আম্মা’ নামে একটি ছবি তৈরি করতে চলেছেন তিনি। মূল চরিত্রে রয়েছেন স্বাতীলেখা সেনগুপ্ত, ঋত্বিক চক্রবর্তী, সোহম চক্রবর্তী এবং পার্নো মিত্র। তবে বিষয়বস্তু এবং কাস্টিং এক থাকলেও সামান্য হেরফের হয়েছে ছবির নামে। শনিবার প্রকাশ্যে এল রাজের পরবর্তী ছবির নাম। ‘আম্মা’ নয়, বরং তাঁর নতুন ছবির নাম হতে চলেছে ‘হে গর্ভধারিণী’। ‘আম্মা’ কিংবা ‘গর্ভধারিণী’ দুটোরই মানে অবশ্য একই  দাঁড়ায়- ‘মা’। গতকাল সন্ধেবেলা সম্পন্ন হল সেই ছবির শুভ মহরৎ। উপস্থিত ছিলেন ছবির শিল্পী পার্নো মিত্র, ঋত্বিক চক্রবর্তী, সোহম চক্রবর্তী এবং স্বাতীলেখা সেনগুপ্ত-সহ শুভশ্রী গঙ্গোপাধ্যায় এবং চিত্রনাট্যকার পদ্মনাভ দাশগুপ্ত। উল্লেখ্য, সেপ্টেম্বর মাসের প্রথম সপ্তাহেই মুক্তি পাবে রাজ চক্রবর্তীর ‘পরিণীতা’।

‘হে গর্ভধারিণী’র বিষয়বস্তু কী? সীমান্ত অঞ্চলের এক ঘটনার কথা তুলে ধরবেন রাজ চক্রবর্তী এই ছবিতে। যেখানে জাত, ধর্ম নিয়ে অশান্তি নিত্যনৈমিত্তিক ব্যাপার। ধর্ম নিয়ে হানাহানির জন্য খুন, জখম প্রায়ই ঘটে থাকে। এরকমই এক অস্থির এলাকায় এক বয়স্ক মহিলার বাড়িতে আশ্রয় নেয় তিনটি মানুষ। অন্যদিকে, সেই বয়স্ক মহিলারই বাড়িতে তাঁকে দেখাশোনার জন্য থাকে একটি মেয়ে। এই পাঁচটি চরিত্রকে ঘিরেই এগিয়েছে ‘হে গর্ভধারিণী’র গল্প। জটিল পরিস্থিতিতে এই পাঁচটি মানুষই নিজেদের অস্তিত্ব রক্ষার লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন। প্রত্যেকেরই একটা অতীত রয়েছে। যার সঙ্গে জুড়ে গিয়েছে বর্তমান। যেহেতু পলিটিক্যাল ড্রামা, তাই গল্পের প্লটে ‘টেনশন’ থাকবে, এমনটাই আশা করা যায়। দাঙ্গা, হিংসার সঙ্গে এই ছবি উত্তরণেরও গল্প বলবে। এমনটাই জানিয়েছিলেন রাজ।

[আরও পড়ুন: ঝুলিতে ২ টি জাতীয় পুরস্কার, ‘উরি’ প্রসঙ্গে কথা বললেন সাউন্ড ডিজাইনার বিশ্বদীপ চট্টোপাধ্যায়]

‘হে গর্ভধারিণী’র প্রযোজক পরিচালক রাজ নিজেই। যৌথভাবে প্রযোজনা করছেন শ্যাম আগরওয়াল। চিত্রনাট্য লিখেছেন পদ্মনাভ দাশগুপ্ত। ক্যামেরার নেপথ্যে সৌমিক হালদার। সবশেষে বলে দিই, এই নতুন ছবিতে কিন্তু কাহিনির শেষে এক মোক্ষম টুইস্ট রেখেছেন রাজ। শুটিং শুরু হবে সেপ্টেম্বরের মাঝামাঝি। মুক্তি পাচ্ছে চলতি বছরের ডিসেম্বর মাসে।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে