BREAKING NEWS

৪ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

মৃত্যুর ১২ থেকে ১৫ ঘণ্টা পর ময়নাতদন্ত করা হয় সুশান্তের দেহের! ফরেনসিক রিপোর্টে চাঞ্চল্য

Published by: Suparna Majumder |    Posted: August 23, 2020 8:28 pm|    Updated: August 23, 2020 9:05 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সুশান্ত সিং রাজপুতের (Sushant Singh Rajput) মৃত্যুর তদন্তে নতুন খবর এল প্রকাশ্যে। এবার চাঞ্চল্য ছড়াল ফরেনসিক রিপোর্টের খবরকে কেন্দ্র করে। শোনা যাচ্ছে, ময়নাতদন্তের ১২ থেকে ১৫ ঘণ্টা আগে নাকি মৃত্যু হয়েছে সুশান্ত সিং রাজপুতের।

[আরও পড়ুন: সাক্ষাৎ দেবদূত! করোনা রোগীর প্লাজমা থেরাপির জন্য রক্ত জোগাড় করে দিলেন দেব]

১৪ জুন মুম্বইয়ের ফ্ল্যাট থেকে সুশান্ত সিং রাজপুতের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়। মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মুম্বইয়ের কুপার হাসপাতালে পাঠানো হয়েছিল। সূত্রের খবর মানলে, সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর ১২ থেকে ১৫ ঘণ্টা পরই তাঁর দেহের ময়নাতদন্ত করা হয়েছিল বলে ফরেনসিক রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়েছে। এর পাশাপাশি জানানো হয়েছে, যে কাপড় দিয়ে ফাঁস লাগানো হয়েছিল তা অন্তত ২০০ কিলোগ্রাম ওজন সহ্য করতে সক্ষম। এর আগে সুশান্তের বাবার আইনজীবী বিকাশ সিং (Vikas Singh) অভিযোগ জানিয়েছিলেন, মুম্বই পুলিশের করা প্রাথমিক ময়নাতদন্তের রিপোর্টে কোনও সময়ের উল্লেখ নেই। তা কেন নেই? সেই প্রশ্ন তুলেছিলেন বিকাশ। এবার নতুন প্রশ্ন উঠে আসছে সোশ্যাল মিডিয়ায়, সুশান্তের প্রাক্তন ম্যানেজার দিশা সালিয়ানের (Disha Salian) মৃত্যুর তিনদিন পর তাঁর মরদেহের ময়নাতদন্ত করা হয়েছিল। তাহলে সুশান্তের শরীরের ময়নাতদন্ত করতে এত তাড়াহুড়ো করা হল কেন?

এদিকে, সুশান্ত মামলায় আজ আবারও তাঁর ক্রিয়েটিভ ম্যানেজার তথা বন্ধু সিদ্ধার্থ পিঠানিকে (Siddharth Pithani) জিজ্ঞাসাবাদ করেছেন সিবিআই (CBI) আধিকারিকরা। পাশাপাশি সুশান্তের রাঁধুনি নীরজকেও জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে। দু’জনের বয়ানে পার্থক্য রয়েছে বলে খবর।

 

[আরও পড়ুন:‘দম বন্ধ হয়ে আসছে, শ্বাস নিতে চাই’, একটি মাত্র পোস্ট রেখে ইনস্টাগ্রাম ছাড়লেন সূরজ পাঞ্চোলি]

এরই মধ্যে সোশ্যাল মিডিয়ায় সিদ্ধার্থকে গ্রেপ্তারের দাবিতে সরব হয়েছেন অনেকে। গ্রেপ্তারের দাবি জানিয়েছেন সুশান্তের খুড়তুতো দাদা নীরজ কুমার সিং বাবলুও (Neeraj Kumar Singh Bablu)। সূত্রের খবর, ইতিমধ্যেই সুশান্তের ফ্ল্যাটে গিয়ে ভিডিওগ্রাফির সাহায্যে ঘটনার পুনর্নির্মাণ করেছে সিবিআই।   

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement