২১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  রবিবার ৮ ডিসেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

২১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  রবিবার ৮ ডিসেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:  কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের এবছর রজত জয়ন্তী বর্ষ। ৮ নভেম্বর নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়ামে জমকালো উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের মাধ্যমে সূচনা ঘটেছে ২৫তম কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের। উপস্থিত ছিলেন শাহরুখ খান, রাখী গুলজার, মহেশ ভাট থেকে সন্দীপ রায়, কৌশিক গঙ্গোপাধ্যায়, গৌতম ঘোষের মতো ব্যক্তিত্বরা। কিন্তু সেদিন উপস্থিত থাকতে পারেননি সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়। তবে বুধবার চলচ্চিত্র উৎসবের প্রাণকেন্দ্র নন্দন চত্বরে এসেছিলেন কিংবদন্তী অভিনেতা সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়। আর সেই সঙ্গে একই মঞ্চে দেখা পাওয়া গেল স্বাতীলেখা দাশগুপ্ত, রুদ্রপ্রসাদ সেনগুপ্ত, গৌতম ঘোষ, বিভাস চক্রবর্তীর মতো বিশিষ্ট ব্যক্তিত্বদের।

বহুদিন বাদে চলচ্চিত্র উৎসবের মঞ্চে গৌতম ঘোষ, সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়, রুদ্রপ্রসাদ সেনগুপ্তকে একসঙ্গে দেখতে পেরে যারপরনাই খুশি সিনেপ্রেমীরা। উৎসবের সেই মঞ্চ থেকেই বক্তব্য রাখলেন বিশিষ্ট ব্যক্তিত্বরা। কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র সম্পর্কে বলতে গিয়ে এদিন আবেগমাখা সুর শোনা গেল সকলের গলায়। মঞ্চে ছিলেন রাজ চক্রবর্তী এবং পরমব্রত চট্টোপাধ্যায়ও

[আরও পড়ুন:দাম্পত্যের ১ বছর, প্রথম বিবাহবার্ষিকীতে রণবীর-দীপিকার প্ল্যান জানেন? ]

চলচ্চিত্র উৎসবের চেয়ারম্যান রাজ চক্রবর্তীর আমন্ত্রণ সাদরে গ্রহণ করেছেন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়। মাস কয়েক আগেই গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন তিনি। শুটিং ফ্লোরে যদিও ফিরেছেন, তবে শরীরের দিকে কড়া নজর রাখার পরামর্শ দিয়েছেন চিকিৎসকরা। কিন্তু কাজ, বার্ধক্যজনিত সমস্যা এসব উপেক্ষা করেও সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় বুধবার সন্ধেবেলা এসেছিসেন নন্দনে। সিনেমা এবং থিয়েটার নিয়ে আলোচনা প্রসঙ্গে তিনি জানান যে কোনও দিনই তিনি সিনেমা আর থিয়েটারকে আলাদা করতে পারেননি। নাটক প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে নিজের ছেলেবেলার স্মৃতিও তুলে ধরলেন প্রবীণ এই অভিনেতা। সৌমিত্রর কথায়, তিনি নিজেকে পাখি হিসেবে দেখেন। যার দুটো ডানা। তাঁরও একটি ডানা থিয়েটার আর অন্যটি সিনেমা। এই দুই নিয়েই তিনি তৈরি। 

চলচ্চিত্র উৎসবের চেয়ারম্যান রাজ চক্রবর্তীর আমন্ত্রণ ফেলতে পারেননি প্রবীণ অভিনেত্রী স্বাতীলেখা সেনগুপ্ত। প্রসঙ্গত, তিনি রাজের আগামী ছবি ‘ধর্মযুদ্ধ’-এ অভিনয় করছেন। তাই রাজের ডাকে সাড়া না দিয়ে পারেননি। তবে রাজ্য এবং কেন্দ্র উভয় সরকারের প্রতিই থিয়েটার নিয়ে ক্ষোভ উগরে দিলেন বর্ষীয়ান অভিনেতা রুদ্রপ্রসাদ সেনগুপ্ত। তাঁর অভিযোগ, থিয়েটার আজও অবহেলিত রয়ে গেল। এতদিন পর চলচ্চিত্র উৎসবের মঞ্চে খুশি থাকতে পেরে উচ্ছ্বসিত বিভাস চক্রবর্তী, অরুণ মুখোপাধ্যায়ের মতো নাট্য ব্যক্তিত্বরা। 

[আরও পড়ুন:মু্ম্বইতে কেটি পেরি, জ্যাকলিনের সঙ্গে ঘুরে স্ট্রিট ফুড চেখে দেখবেন পপ গায়িকা]

 
 
 
 
 
View this post on Instagram
 
 
 
 
 
 
 
 
 

#25kiff2019

A post shared by Raj Chakraborty (@rajchoco) on

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং