২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২৫ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

সেরিব্রাল স্ট্রোকেই মৃত্যু শর্বরী দত্তর, আর কী বলছে ময়নাতদন্তের প্রাথমিক রিপোর্ট?

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: September 18, 2020 6:59 pm|    Updated: September 18, 2020 9:29 pm

An Images

অর্ণব আইচ: ময়নাতদন্তের পর প্রাথমিকভাবে পুলিশকে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন যে সেরিব্রাল স্ট্রোকেই মৃত্যু হয়েছে শর্বরী দত্তর। রিপোর্ট অনুযায়ী পুলিশের অনুমান, ময়নাতদন্তের সময় থেকে প্রায় ৩৬ ঘণ্টা আগেই মৃত্যু হয়েছিল তাঁর। শৌচাগারে যাওয়ার পরই সেরিব্রাল অ্যাটাক হয়। তখনই সাপোর্ট হিসেবে কমোডে বসে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন শর্বরীদেবী (Sharbari Dutta)।

অন্যদিকে মাথায় এবং গোড়ালিতে আঘাতের চিহ্ন নিয়ে একটা জল্পনার সৃষ্টি হয়েছিল, তবে সেসব উড়িয়ে পুলিশ সাফ জানিয়ে দিয়েছে যে, এই আঘাত মোটেই মৃত্যুর কারণ নয়। সম্ভবত অ্যাটাকের সময়ই পড়ে গিয়ে আঘাত পান খ্যাতনামা ফ্যাশন ডিজাইনার।

[আরও পড়ুন: ‘কলকাতার বদনাম চাই না’, ট্যাক্সি চালকের হাতে হেনস্তা মামলায় আদালতে সোচ্চার মিমি চক্রবর্তী]

বৃহস্পতিবার রাত এগারোটা নাগাদ ব্রড স্ট্রিটের বাড়ির শৌচাগার থেকে উদ্ধার হয় শর্বরী দত্তের মৃতদেহ (Sharbari Dutta’s Dead Body )। ওদিকে সকাল থেকে শাশুড়িকে ফোনে না পেয়ে রাত সাড়ে ১১টা নাগাদ তাঁর পুত্রবধূ ব্রড স্ট্রিটের বাড়িতে খোঁজ নিতে যান। তখনই বাড়ির শৌচাগারে শর্বরীদেবীর মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখেন। শৌচাগারের দরজা আংশিক বন্ধ ছিল। তারপরই তড়িঘড়ি কড়েয়া থানার পুলিশকে (Kolkata Police) খবর দেওয়া হয়। পুলিশের অনুমতিতেই বাথরুম এনে থেকে ঘরের কার্পেটে তাঁর মৃতদেহ রাখা হয়।

প্রসঙ্গত লকডাউনে বেশ কিছু কাজ শর্বরীদেবীর হাত থেকে বেরিয়ে যাওয়ায় তিনি মানসিক অবসাদে ভুগছিলেন বলেও জানা গিয়েছে। উপরন্তু সম্প্রতি ভার্টিগো ধরা পড়ার জন্য মাথাও ঘুরত তাঁর। বেশ কয়েকবার মাথা ঘুরে নাকি পড়েও গিয়েছিলেন। বেশ কিছু ওষুধ খেতেন বলেও শোনা গিয়েছে। তবে যাবতীয় জল্পনা উড়িয়ে শুক্রবার পুলিশ সাফ জানিয়ে দিয়েছে যে সেরিব্রাল স্ট্রোকেই মৃত্যু হয়েছে শর্বরী দত্তর।

[আরও পড়ুন: ‘তুই একাই মণিকর্ণিকা, দেশ বাঁচাতে চাইলে চিনকে আক্রমণ কর যা’, কঙ্গনাকে বিদ্রূপ অনুরাগের]

অন্যদিকে শর্বরী দত্তর মৃত্যুতে শোকপ্রকাশ করেছেন প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়, রাজ চক্রবর্তী, ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত-সহ আরও অনেকে। যে মানুষটির হাত ধরেই পুরুষরা নানা রঙে সাজতে শিখল, যাঁর ডিজাইন করা পাঞ্জাবী পরে একসময়ে ব়্যাম্প মাতিয়েছেন অমিতাভ বচ্চন থেকে শুরু করে ডাকসাইটে বলিউড তারকারা, এমনকী বাদ যাননি ক্রীড়া ব্যক্তিত্বরাও, তাঁর মৃত্যুতে গভীরভাবে শোকাহত দেশের বিনোদন জগৎ। অভিষেক-ঐশ্বর্যর বিয়ের পোশাকও নাকি শর্বরী দত্তর সৃজনশৈলী ভাবনাতেই তৈরি হয়েছিল। ৬৩ বছর বয়সেই সেই খ্যাতনামা ফ্যাশন ডিজাইনার চিরতরে বিদায় নিলেন ফ্যাশন ইন্ডাস্ট্রি থেকে। 

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement