BREAKING NEWS

২ আশ্বিন  ১৪২৭  শনিবার ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

হিলারি ক্লিন্টনকে নিয়ে অশ্লীল টুইট, বিপাকে ঋষি কাপুর

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: July 29, 2016 4:02 pm|    Updated: July 29, 2016 4:02 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: টুইটারটা বোধহয় তাঁর জন্য খুব একটা পয়া সোশ্যাল মিডিয়া নয়! যা দেখা যাচ্ছে, যখনই টুইটারে কিছু না কিছু পোস্ট করেন ঋষি কাপুর, তার জন্য তাঁকে পড়তে হয় বেজায় সমালোচনার মুখে।
যেমন, মাসকয়েক আগেই ঋষি টুইটারে প্রশ্ন ছুড়ে দিয়েছিলেন, ভারতের বেশির ভাগ রাস্তার নাম গান্ধী পরিবারের সদস্যদের নামে কেন? তার পরেই কামাল রশিদ খান এই মন্তব্যের জন্য অশ্রাব্য ভাষায় গালাগালি করেন তাঁকে।
তবে, টুইটারে বসে লোকজনকে খারাপ কথা বলাটাই কেআরকে’র কাজ! সেটা ধর্তব্যের মধ্যে না ধরলেও চলে! এবার কিন্তু সমালোচনার জন্য দায়ী ঋষি নিজেই! হিলারি ক্লিনটনের মুখমেহনের ছবি পোস্ট করলে সমালোচনার মুখে পড়তে হবে না?


মুখমেহন? ঠিকই পড়েছেন। সম্প্রতি টুইটারে একটি হিলারি ক্লিনটন মেমে পোস্ট করেছেন ঋষি। সেই ছবিতে দেখা যাচ্ছে, হিলারি ক্লিনটনের হাত এবং মুখের মুদ্রা মুখমেহনের ভঙ্গীতে বিন্যস্ত। এবং মোনিকা লিউনস্কির কাছে জানতে চাইছেন হিলারি, ”ব্যাপারটা ঠিক আছে তো? ইজ ইট রাইট?”
ঋষি এই ছবিটি পাঠানোর জন্য ধন্যবাদ জানিয়েছেন জনৈক এবি জুনিয়রকে। অনুমান করা হচ্ছে, তিনি আর কেউই নন, খোদ অভিষেক বচ্চন। তাঁকে ধন্যবাদ জানিয়ে পোস্টটির সঙ্গে লিখেছেন ঋষি, ”ইতিহাস পরখ করে নেওয়া গেল! ধন্যবাদ, এবি জুনিয়র! এটা যদি ঠিক না হত, তবে একটা বাজে স্বাদ মুখে লেগে থাকত!”
আঁতকে উঠবেন না! ঋষির পোস্টটা ইংরেজিতে। সেখানে তিনি ‘রাইট’ আর ‘লেফট’- এইদুটো ইংরেজি শব্দ নিয়ে মজা করেছেন। মজা করেছেন, রাজনীতির বামপন্থা আর দক্ষিণপন্থা নিয়ে।
কিন্তু, টুইটারে সমালোচনার ঝড় উঠল। সবাই রীতিমতো ঋষির সমালোচনায় মুখর হলেন। পড়ে দেখুন সেই সব টুইট! অনেকে তো সরাসরি এও বলেছেন, এরকম মজা নরেন্দ্র মোদিকে নিয়ে করে একবার দেখুন ঋষি, তার পর বুঝতে পারবেন কত ধানে কত চাল!

ঋষির প্রতিক্রিয়া?


”আমার এই টুইটার অ্যাকাউন্টটা মজা করার জন্য, হালকা চালে জীবনকে নেওয়ার জন্য। আমার রসিকতার ধরন কারও পছন্দ না হলে আমায় ফলো করো না! এত সমালোচনার কী আছে?” প্রশ্ন অভিনেতার!

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement