BREAKING NEWS

১০ আষাঢ়  ১৪২৮  শুক্রবার ২৫ জুন ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

পুজোয় নিশ্চিন্তে ঘুরতে চান? এই অ্যাপগুলো ফোনে ইনস্টল করুন

Published by: Bishakha Pal |    Posted: October 4, 2018 5:16 pm|    Updated: October 4, 2018 5:16 pm

Some app will help you on Puja

ঘোরা থেকে খাওয়া। পুজোয় চাই সবকিছু। তাই পুজোয় যে অ্যাপ ছাড়া চলবে না, জেনে নিন সেই অ্যাপগুলির কথা। খোঁজ দিচ্ছেন শুভঙ্কর চক্রবর্তী

পথদিশা

পরিবহণ ব্যবস্থাকে আরও স্মার্ট করতে গত বছর রাজ্য সরকার চালু করেছিল মোবাইল অ্যাপ ‘পথদিশা’। আলট্রা-লো ফ্লোর এবং জিপিএস সুবিধা-যুক্ত নতুন ঝকঝকে বাস। স্টপেজে দাঁড়িয়েই এক ক্লিকে জেনে নিতে পারবেন দরকারি তথ্য। বাস এখন কোথায়, কতগুলো স্টপেজ, কিংবা বাস স্টপ থেকে বাসের দূরত্ব কত? রুটম্যাপ, জ্যাম-জট ছাড়াও জেনে নিতে পারেন বাসে খালি সিট কি আদৌ আছে? এসি বাস বা স্পেশাল বাস ছাড়াও শহর-শহরতলিতে চলা সব সরকারি বাসের তথ্য পাবেন ‘পথদিশা’ অ্যাপে।

উবার

বাস, তার পর মেট্রো, সেখান থেকে রিকশা, না হলে পায়ে হেঁটে মিনিট পনেরো। এত কিছুর পর ত্রিধারা সম্মেলনীর পুজো প্যান্ডেল। কম করে দু’ঘণ্টা। অষ্টমীর দিন এত ঝক্কি ভাল লাগে? তার চেয়ে প্যান্ডেল হপিং করুন আয়েসে। উবার অ্যাপে বুক করে ফেলুন ক্যাব। সপরিবার বা শুধু প্রিয়জনের কাঁধে মাথা এলিয়ে পৌঁছে যান প্যান্ডেলে। তবে হ্যাঁ, পুজোয় উবার সারচার্জের খাঁড়া মাথায় ঝুলতে পারে।

আবিরের পুজো মানে শোভাবাজার রাজবাড়ি, যিশুর পুজো কাটে অন্যভাবে ]

কলকাতা মেট্রো

পুজোর ‘মাস্ট ডু’ লিস্টে এক নম্বরে থাকুক স্মার্টকার্ড রিচার্জ। কারণ এবার প্রথমাতেই মেট্রো টিকিটের লাইনে দাঁড়িয়ে মনে হতে পারে টিকিটের লাইন নয়, ওটা সুরুচি সংঘ পুজোর লাইন। ডাউনলোড করে নিন কলকাতা মেট্রো অ্যাপ। ২৪ মেট্রো স্টেশনের যাবতীয় খবরাখবর পাবেন এক ক্লিকে। মেট্রোয় কোনও অসুবিধায় পড়লেও কল করতে পারেন অ্যাপে দেওয়া হেল্পলাইন নম্বরে।

স্মার্ট পার্কিং এজেন্ট

চারদিকে ‘নো পার্কিং’ হোর্ডিং। সপ্তমীর রাতে নজর এড়িয়ে গাড়ি পার্ক করে ট্র্যাফিক পুলিসের কাছে ধরা পড়লে, সারা পুজো মাটি। নির্ঝঞ্ঝাট পার্কিংয়ের খোঁজ পেতে ডাউনলোড করুন ‘স্মার্ট পার্কিং’ অ্যাপ। জেনে নিন কোথায় পাওয়া যাবে গাড়ি পার্কিংয়ের জায়গা। ঘণ্টা-পিছু পার্কিং রেট কত। ন্যাভিগেট করতে পারবেন পার্কিং স্পট। গাড়ির লোকেশনের এক কিলোমিটারের মধ্যে কোথায় সেই মুহূর্তে পার্কিং লট খালি আছে, এক মুহূর্তে জানতে পারবেন। মোবাইল নম্বর দিয়ে অ্যাপে রেজিস্টার করলে জেনে নিতে পারবেন কাছাকাছি সব পার্কিং লোকেশন।

বন্ধু

মণ্ডপে ঢোকার শর্টকাট নিতে গিয়ে ফাঁকা রাস্তায় এক দল মদ্যপের সেক্সুয়াল হ্যারাসমেন্টের শিকার। এক নিমেষে পুজোর আনন্দ পালটে গেল দুঃস্বপ্নে। তাই আগেভাগেই নিয়ে নিন বাড়তি সতর্কতা। ডাউনলোড করুন কলকাতা পুলিশের ‘বন্ধু’ অ্যাপ। রাস্তায় যে কোনও সমস্যায় পড়লে এই অ্যাপের মাধ্যমে সহায়তা করবে কলকাতা পুলিশ ৷ নিজের ফোন নাম্বার দিয়ে অ্যাপে রেজিস্টার করা মাত্রই চোখে পড়বে ‘প্যানিক হিটস’ অপশন। ক্লিক করতেই খবর চলে যাবে কাছাকাছি থাকা কর্মরত পুলিশকর্মীর কাছে। ‘বন্ধু’ আপনার নিজস্ব সিকিউরিটি গার্ড।

দুর্গাপূজা পরিক্রমা কলকাতা

৫০০ তালিকাভুক্ত পুজো। স্মার্ট ডিজাইন। জিপিএস অ্যাকসেস। পুজো মণ্ডপের আলাদা জোন। সার্চ- ডিরেকশন অপশন। বাঙালির বিরাট সেলিব্রেশনের হেল্পগাইড অ্যাপটি গত বছর থেকে চালু হয়েছে। গোটা শহরের পুজোর ট্যুরিস্ট গাইড এবার পকেটে।

সুপারহিট ছবির নায়িকাদের কেন সাদা শাড়ি পরাতেন রাজ কাপুর? ]

গুগল আর্থ

মাঝেরহাট ব্রিজ বিপর্যয়ের পর থেকে বেহালা, নিউ আলিপুর এলাকা যেতে-আসতে হিমশিম। পুজোর চার দিনে সে ভোগান্তি আরও বাড়বে। ট্র্যাফিক ঝঞ্ঝাট পেরিয়ে বেহালার সব ক’টা ঠাকুর দেখতে পাবেন তো? আপনার সাহায্যে এগিয়ে এসেছে গুগল আর্থ। গুগল ম্যাপের মাধ্যমে বুঝে যাবেন কোন রাস্তা দিয়ে ঠাকুর দেখে তাড়াতাড়ি বেরিয়ে আসতে পারবেন। রয়েছে গ্রুপ প্ল্যানিংয়ের সুবিধা। যদি ষষ্ঠীর প্ল্যান থাকে দক্ষিণ কলকাতার ঠাকুর দেখবেন, তা হলে বন্ধুদের সঙ্গে তা শেয়ার করুন প্যান্ডেলের লিস্ট। রাস্তাঘাট চেনার প্রয়োজন নেই। গুগল আর্থ সব জানে। কোন বন্ধুর সঙ্গে কোথায় দেখা করবেন, তার প্ল্যানিংও করে ফেলতে পারবেন ম্যাপের মাধ্যমে।

জোম্যাটো

শুধু টইটই করে পুজো বেড়ালেই তো হল না, পেটপুজোও মাস্ট। পুজোর চার দিন খাবারের জন্য বড় বড় রেস্তরাঁর সামনে লাইনে দাঁড়াতে হলে ডিনার হয়তো ব্রেকফাস্টের টাইমে পৌঁছে যাবে। তার চেয়ে পুজো হপিং সেরে বাড়ি ফিরে এক ক্লিকে বাড়িতে হাজির জিভে জল আনা নামজাদা রেস্তোরাঁর খাবার-দাবার।

সুইগি

“উফ রোজকার এই রান্নবান্নার ভোগান্তি। মা দুগ্গা, এই চারদিন অন্তত মুক্তি দাও।” ষষ্ঠীর সকালে ঘুম ভাঙতে না ভাঙতেই মায়ের এই আর্জি শুনতে হল ছেলে বাপনকে। শুধু বাপন নয়। এ কথা শুনতে হতে পারে আরও অনেক বাপনকে। তাই চাই সরল নিষ্পত্তি। ডাউনলোড করুন সুইগি অ্যাপ। অর্ডার করুন পছন্দের খাবার। নিশ্চিন্তে শুরু করে দিন প্যান্ডেল হপিং। বাড়িতে হাজির হয়ে যাবে বিরিয়ানি, চাউমিন, মোমো কিংবা লেবানিজ। সুইগিতে প্রচুর রেস্তোরাঁ আছে যারা শুধু ডেলিভারি করে, তাই এই অ্যাপে খাবারের অপশন অনেক বেশি।

পুজোয় সবচেয়ে বেশি কোন বিষয়টা মিস করেন ইন্দ্রাণী-ইমন-অপরাজিতা? ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement