১ মাঘ  ১৪২৫  বুধবার ১৬ জানুয়ারি ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফিরে দেখা ২০১৮ ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: শান্তিপূর্ণভাবে মুক্তি পেল না ‘দ্য অ্যাক্সিডেন্টাল প্রাইম মিনিস্টার’। প্রথম দিনই খাস কলকাতা শহরে বিক্ষোভের মুখে পড়ল ছবিটি। শুক্রবার হিন্দ সিনেমার সামনে ছবিটি দেখানো বন্ধ করা হোক, এই দাবি তুলে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করে যুব কংগ্রেস। পরিস্থিতি বেগতিক দেখে ঘটনাস্থলে পৌঁছয় পুলিশ। সিনেমাহলের সামনে ব্যরিকেড করে দেয় তারা। এরপরই বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে পুলিশের ধস্তাধস্তিও হয়। নিরাপত্তার খাতিরে ছবি প্রদর্শনী বন্ধ করে দেয় হল কর্তৃপক্ষ।

শুক্রবার মুক্তি পেয়েছে বহু বিতর্কিত ছবি ‘দ্য অ্যাক্সিডেন্টাল প্রাইম মিনিস্টার’। প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংয়ের মিডিয়া উপদেষ্টা সঞ্জয় বারুর বই অবলম্বনে তৈরি হয়েছে ছবিটি। মুক্তির আগে থেকেই ছবি নিয়ে বিভিন্ন মহলে বিতর্কের সৃষ্টি হয়। কংগ্রেসের একাধিক নেতা অভিযোগ তোলেন, ছবিতে সত্যকে বিকৃত করা হয়েছে। প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রীর চরিত্রে কালি মাখানোর চেষ্টা করা হয়েছে বলেও অভিযোগ ওঠে। এও অভিযোগ ওঠে, লোকসভা ভোটের আগে এই ছবি মুক্তি পাওয়ার পিছনে রাজনৈতিক অভিসন্ধি রয়েছে গেরুয়া শিবিরের। এর মাধ্যমে আরএসএস ও বিজেপি নিজের আখের গোছাতে চাইছে। গান্ধী পরিবার ও কংগ্রেসের দুর্নাম করে ভোটব্যাংক সুরক্ষিত করতে চাইছে তারা। এই ইস্যু তুলে ভারতের নানা জায়গায় বিক্ষোভ দেখায় কংগ্রেসীরা। এমনকী, একটি জনস্বার্থ মামলাও দায়ের হয়। কিন্তু দিল্লি হাই কোর্ট সেই মামলা খারিজ করে দেয়। এরপর ছবি মুক্তি নিয়ে আর কোনও বাধা ছিল না। ফলে নির্ধারিত দিনেই মুক্তি পায় ‘দ্য অ্যাক্সিডেন্টাল প্রাইম মিনিস্টার’।

OMG! চুমু খেতে খেতে এ কী হল অভিনেতার?  ]

ছবিটি মুক্তি পাওয়ার পর বিক্ষোভ যে হবে, তা আগেই বোঝা গিয়েছিল। কিন্তু কলকাতা শহরে যে যুব কংগ্রেস বিক্ষোভ দেখাবে, তা বোধহয় কেউ আঁচ করতে পারেনি। কিন্তু হল সেটাই। যুব কংগ্রেস নেতা সুমন পালের নেতৃত্বে হিন্দ সিনেমার সামনে বিক্ষোভে শামিল হন দলীয় কর্মীরা। বেলা সাড়ে এগারোটায় এই সিনেমাহলে ছিল ছবির প্রথম শো। তার আগে থেকেই শুরু হয় বিক্ষোভ। বন্ধ করে দেওয়া হয় সিনেমা হলের দরজা। যাঁরা সিনেমা দেখতে আসছেন, তাঁদের যাতে কোনও অসুবিধা না হয়, তাই রাস্তায় মোতায়েন করা হয়েছে পুলিশ। কিন্তু তারপরই লালবাজার থেকে আসে ফোন। নিরাপত্তার খাতিরে ১০ মিনিট দেখানোর পর বন্ধ করে দেওয়া হয় সিনেমার প্রদর্শনী। হিন্দ সিনেমা হলের কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, দর্শকদের টিকিটের টাকা ফেরত দিয়ে দেওয়া হচ্ছে। তবে ফের প্রদর্শনী হবে কিনা, তা নিয়ে এখনও কিছু জানানো হয়নি।

‘এবিসিডি ৩’-এ বরুণের বিপরীতে নোরা ফতেহি ]

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং