২৯ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  সোমবার ১৬ ডিসেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বিজেপিতে যোগ দেওয়ার পর থেকেই একাধিক বিতর্কে জড়িয়ে পড়েছেন সাধ্বী প্রজ্ঞা। মালেগাঁও বিস্ফোরণে অভিযুক্ত সাধ্বীকে কেন বিজেপিতে যোগ দেওয়ানো হল, সে নিয়ে বিস্তর সমালোচনা চলছে বিরোধী মহলে। এমন পরিস্থিতিতে সাধ্বীর পাশে দাঁড়িয়ে ফের ‘সাম্প্রদায়িকতার তাস’ খেললেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ। ভোপালের জনসভায় দাঁড়িয়ে কংগ্রেসকে হুঙ্কার দিলেন, একজন হিন্দু কখনও জঙ্গি হতে পারে না।

[আরও পড়ুন: কেরলে ‘রাহুল ঝড়’! রেকর্ড সংখ্যক ভোট পড়ল ঈশ্বরের আপন দেশে]

মঙ্গলবার মধ্যপ্রদেশের ছাতারপুরের জনসভা থেকে অমিত শাহ বলেন, “কোনও হিন্দু সন্ত্রাসবাদী হতে পারে না। হিন্দু সংস্কৃতি কারও ক্ষতি করে না। কিন্তু কংগ্রেস এর সঙ্গে জঙ্গি তকমা জুড়ে দিয়েছে। ভোপাল থেকে সাধ্বী প্রজ্ঞা ঠাকুর মনোনয়ন জমা দিয়েছে। কংগ্রেসের বিরুদ্ধে সেটাই আমাদের সত্যাগ্রহ আন্দোলন।” লোকসভা ভোটে সাধ্বীর বিরুদ্ধে লড়বেন কংগ্রেস প্রার্থী দিগ্বিজয় সিং। কংগ্রেসের তরফে বারবার সন্ত্রাস ছড়ানোর অভিযোগ তুলে কাঠগড়ায় দাঁড় করানো হচ্ছে সাধ্বীকে। এদিন তারই পালটা দিলেন শাহ। কংগ্রেস প্রার্থীকে কটাক্ষ করে তিনি বলেন, “মধ্যপ্রদেশের মানুষ দিগ্গি রাজার জন্য অপেক্ষা করছে কখন হিন্দু সন্ত্রাসবাদ ইস্যুতে তাঁকে একহাত নেওয়া যাবে।” হিন্দুত্বের বিরুদ্ধে প্রশ্ন তুলে যে ভোটব্যাংকে আধিপত্য বিস্তার করা যাবে না, তা স্পষ্ট বুঝিয়ে দেন বিজেপি সভাপতি।

[আরও পড়ুন: দাঙ্গায় গণধর্ষণের শিকার, বিলকিস বানোকে ক্ষতিপূরণে সুপ্রিম নির্দেশ গুজরাট সরকারকে]

উল্লেখ্য, এর আগেও হিন্দু সন্ত্রাসবাদ নিয়ে কংগ্রেসকে আক্রমণ করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। চলতি মাসেই মহারাষ্ট্রের ওয়ার্ধায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে তিনি বলেন, “হিন্দু সন্ত্রাসবাদ বলে কিছু হয় না। কখনও শুনেছেন কোনও হিন্দু সন্ত্রাসবাদের মতো কাজের সঙ্গে যুক্ত? হিন্দুরা শান্তিপ্রিয় হয়, কংগ্রেস এই দেশের কোটি কোটি মানুষের উপর সন্ত্রাসবাদী তকমা লাগিয়ে দিয়েছিল, হিন্দু সন্ত্রাসবাদ তত্ত্ব তুলে। সেই কংগ্রেসকে এবার দেশের হিন্দুরা শাস্তি দেবে। সংখ্যাগরিষ্ঠরা কংগ্রেসকে ভোট দেবে না।” এবার একই পথে হেঁটে সাধ্বীর পক্ষে সুর চড়িয়ে সরাসরি হিন্দুত্বকে হাতিয়ার করলেন অমিত শাহ।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং