BREAKING NEWS

১০ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ২৬ নভেম্বর ২০২০ 

Advertisement

‘কুয়োর ব্যাঙ হবেন না’, রাহুলকে নিয়ে মন্তব্য করায় ওবামাকে তোপ অধীরের

Published by: Biswadip Dey |    Posted: November 15, 2020 2:50 pm|    Updated: November 15, 2020 3:00 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার (Barack Obama) লেখা বইয়ে কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী (Rahul Gandhi) সম্পর্কে যে মন্তব্য করা হয়েছে তাকে কেন্দ্র করে বিতর্ক ক্রমেই বাড়ছে। কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক রণদীপ সুরজেওয়ালা থেকে শিব সেনা নেতা সঞ্জয় রাউত, অনেকেই মুখ খুলছেন এই বিষয়ে। এবার লোকসভায় কংগ্রেসের নেতা অধীর চৌধুরীও (Adhir Chowdhury) আক্রমণ করলেন ওবামাকে।

প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্টের উদ্দেশে টুইট করে বর্ষীয়ান নেতা লেখেন, ‘‘মিস্টার বারাক ওবামা, আপনাকে বলব এই ধরনের রুক্ষ মন্তব্য করার আগে আমাদের প্রিয় নেতা রাহুল গান্ধীর সঙ্গে একবার কথা বলে নিতে পারতেন। সামনাসামনি কিংবা ভারচুয়াল মাধ্যমে। তাহলেই তাঁর ব্যক্তিত্বের বৈশিষ্ট্য সম্পর্কে সঠিক অনুধাবন করতে পারতেন।’’ সেই সঙ্গে ওবামাকে ‘কুয়োর ব্যাঙ’ মানসিকতা থেকে বেরিয়ে আসতে বলে হুঁশিয়ারি দিয়ে তিনি জানান, ‘‘আমাদের নেতার মূল্যায়ন করার আগে এরপর দু’বার ভাববেন। নাহলে অজ্ঞতার মহাবিশ্বেই থাকতে হবে।’’

[আরও পড়ুন : ভোটের পরই দুষ্কৃতীরাজ বিহারে! দিওয়ালির রাতে সমস্তিপুরে গুলিতে প্রাণ গেল বৃদ্ধা ও শিশুর]

কেন এত বিতর্ক? ঠিক কী লিখেছিলেন ওবামা? তাঁর ‘আ প্রমিসড ল‌্যান্ড’ বইয়ে মনমোহন সিং সম্পর্কে প্রশংসা করলেও রাহুল গান্ধীকে নিয়ে খুব একটা ভাল কথা লেখেননি তিনি। তাঁর মতে, ‘প্রাক্তন কংগ্রেস প্রেসিডেন্ট এখনও ঠিক আকার নিয়ে উঠতে পারেননি। এবং এখন শিক্ষককে তুষ্ট করার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। কিন্তু কোনও বিষয়ে সিদ্ধহস্ত হতে যে মানসিকতা বা যোগ্যতার প্রয়োজন হয়, সেটা হয়তো তাঁর নেই।’

ইতিমধ্যেই তাঁর এমন বক্তব্যের বিরোধিতা করেছেন শিব সেনা (Shiv Sena) নেতা সঞ্জয় রাউত। তাঁর কথায়, ‘‘এমন মন্তব্য বিরক্তিকর। আমরা মোটেই বলব না ‘ট্রাম্প পাগল’। ওবামা এই দেশ সম্পর্কে কতটুকু জানেন?’’ এদিকে কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক রণদীপ সুরজেওয়ালাও টুইট করে ক্ষোভ উগরে দিয়ে জানান, কোন বইয়ে কে কী ব্যক্তিগত মত প্রকাশ করল তা নিয়ে তাঁরা মন্তব্য করতে চান না।

[আরও পড়ুন : নজরে আগামী লোকসভা ভোট! দেশজুড়ে ১০০ দিনের যাত্রা নাড্ডার, শুরু বাংলা দিয়ে]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement