৭ আষাঢ়  ১৪২৮  মঙ্গলবার ২২ জুন ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

রাহুল গান্ধীর মনোনয়নপত্রে অসঙ্গতি! কংগ্রেস সভাপতির নাগরিকত্ব নিয়েই উঠছে প্রশ্ন

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: April 20, 2019 5:27 pm|    Updated: April 28, 2019 12:02 pm

EC officer orders postponement of Rahul's nomination paper scrutiny.

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নির্দল প্রার্থীর আবেদনের ভিত্তিতে পিছিয়ে গেল কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধীর মনোনয়নপত্রের স্ক্রুটিনির কাজ। শনিবার দুপুরে আগামী ২২ এপ্রিল পর্যন্ত এই কাজ স্থগিত রাখার কথা ঘোষণা করেন আমেঠির রির্টানিং অফিসার রাম মনোহর মিশ্র। রাহুল গান্ধীর মনোনয়নপত্রে দাখিল করা তথ্যে অসঙ্গতি আছে। এই অভিযোগ জানিয়ে কমিশনের দ্বারস্থ হন আমেঠির নির্দল প্রার্থী ধ্রুব লাল। তাঁর অভিযোগের ভিত্তিতেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হল বলে জানা গিয়েছে।

[আরও পড়ুন-শ্বাসরোধ করে খুন রোহিত তিওয়ারিকে! মৃত্যুরহস্যে নয়া মোড়]

এপ্রসঙ্গে ধ্রুব লালের আইনজীবী রবি প্রকাশ বলেন, “আবেদনে মূলত তিনটি বিষয়ের কথা তুলে ধরেছি। প্রথমটি হল, ইংল্যান্ডে রাহুলের নামে থাকা একটি কোম্পানির ঘোষণাপত্রে, নিজেকে ইংল্যান্ডের নাগরিক হিসেবে উল্লেখ করেছেন তিনি। ভারতীয় জনপ্রতিনিধিত্ব আইন অনুযায়ী, একজন বিদেশি নাগরিক দেশের নির্বাচনে প্রার্থী হিসেবে অংশগ্রহণ করতে পারেন না। আমরা জানতে চাই কিসের ভিত্তিতে ইংল্যান্ডের নাগরিকত্ব পেলেন তিনি? আর ইংল্যান্ডের নাগরিক হওয়ার পরেও এখন কীভাবে তিনি ভারতীয় নাগরিকত্ব পেলেন? রির্টানিং অফিসারের কাছে আমরা অনুরোধ করেছি এই বিষয়ে উপযুক্ত উত্তর না পাওয়া পর্যন্ত যেন রাহুল গান্ধীর মনোনয়নপত্র গৃহীত না হয়।

দ্বিতীয়টি হল, ২০০৩ থেকে ২০০৯ সাল পর্যন্ত ইংল্যান্ডের ওই কোম্পানিতে রাহুল গান্ধীর কতটা সম্পত্তি ছিল সেসম্পর্কে বিস্তারিত তথ্যও দেওয়া হয়নি মনোনয়নপত্রের সঙ্গে। আর তৃতীয় যে বিষয়টির কথা আমরা জানতে চেয়েছি তা হল রাহুল গান্ধীর শিক্ষাগত যোগ্যতা সম্পর্কে। এই বিষয়ে তিনি যা তথ্যপ্রমাণ দিয়েছেন তার সঙ্গে বাস্তবের কোনও মিল নেই। ইংল্যান্ডের কলেজে তিনি রাহুল ভিঞ্চি নামটি ব্যবহার করলেও রাহুল গান্ধীর নামে কোনও শংসাপত্র নেই। আমরা জানতে চাই রাহুল গান্ধী আর রাহুল ভিঞ্চি কি একই ব্যক্তি? যদি তা না হয় তাহলে আমরা দাবি করছি, তিনি যেন তাঁর শিক্ষাগত যোগ্যতার আসল শংসাপত্র স্ক্রুটিনির জন্য জমা দেন।”

[আরও পড়ুন-শহিদ হেমন্ত কারকারেকে নিয়ে মন্তব্য, চাপে পড়ে ক্ষমা চাইলেন সাধ্বী প্রজ্ঞা]

নির্দল প্রার্থীর আবেদনের পরেই শনিবার আসরে নামে বিজেপি। কংগ্রেস সভাপতির নাগরিকত্ব ও শিক্ষাগত যোগ্যতা সম্পর্কে যে প্রশ্ন উঠেছে তা স্পষ্ট করার দাবিও রাখেন রাহুল গান্ধীর কাছে। এই বিষয়ে উত্তর দিতে রাহুল গান্ধীর আইনজীবী কেন সময় চাইলেন তা নিয়েও বিস্ময় প্রকাশ করেন বিজেপির মুখপাত্র জি ভি এল নরসিমা রাও। বলেন, “এগুলি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ অভিযোগ। রাহুল গান্ধী কি আদৌও ভারতীয় নাগরিক? তিনি কি কোনওদিন ইংল্যান্ডের নাগরিক ছিলেন? তাঁর উচিত এই বিষয়ে আসল সত্যটা প্রকাশ করা। তবে আমার মনে হয় কংগ্রেসের ইস্তেহারের মতো প্রতি পাঁচ বছর অন্তর বদলে যায় রাহুল গান্ধীর শিক্ষাগত যোগ্যতাও।”

 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement