BREAKING NEWS

১৩  আষাঢ়  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৮ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

‘কাশ্মীর নিয়ে রাজনীতি করছেন রাহুল, বিজেপি দেশপ্রেম’, কটাক্ষ অমিত শাহর

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: September 22, 2019 4:41 pm|    Updated: September 22, 2019 4:41 pm

Amit Shah says Rahul Gandhi sees politics in J&K but BJP saw patriotism

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মহারাষ্ট্রে গিয়ে ৩৭০ ধারা নিয়ে কংগ্রেসকে ফের আক্রমণ করলেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ। গত কয়েক দশক ধরে কংগ্রেস কাশ্মীর নিয়ে নোংরা রাজনীতি করেছে বলেও অভিযোগ করেন। পাশাপাশি দ্বিতীয়বার ক্ষমতায় ফিরেই সংসদের প্রথম অধিবেশনে ৩৭০ ধারা বাতিল করার জন্য প্রধানমন্ত্রী মোদির ভূয়সী প্রশংসা করেন তিনি।

[আরও পড়ুন: লিভ ইন পার্টনারের বাড়ির সামনে গায়ে আগুন দিয়ে আত্মঘাতী যুবক]

রবিবার মুম্বইয়ে ৩৭০ ধারা প্রত্যাহার সংক্রান্ত একটি সেমিনারে বক্তব্য রাখছিলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। সেখানে রাহুল গান্ধীকে আক্রমণ করে তিনি বলেন, ‘আমি নরেন্দ্র মোদির সাহস ও বীরত্বকে কুর্নিশ জানাই। ৩০৫টি আসন নিয়ে আমরা দ্বিতীয়বার সরকারের গঠনের পরেই সংসদের প্রথম অধিবেশনে ৩৭০ ধারা বাতিল করেছেন তিনি। কিন্তু, রাহুল গান্ধী বলছেন ৩৭০ ধারা হল একটি রাজনৈতিক ইস্যু। রাহুল বাবা, আপনি এখন রাজনীতিতে এসেছেন। কিন্তু, বিজেপির তিন প্রজন্ম কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা বাতিলের জন্য নিজেদের জীবন বলিদান দিয়েছে। তাই এটা আমাদের কাছে রাজনীতির বিষয় নয়। ভারত মা-কে অখণ্ড রাখার লক্ষ্যে এটা আমাদের একটা পদক্ষেপ।’

কাশ্মীরের অবস্থার জন্য কংগ্রেসের পাশাপাশি ফারুক আবদুল্লা ও মেহবুবা মুফতির পরিবারকে দায়ী করেন অমিত শাহ। ভূস্বর্গে অচলাবস্থা বজায় রেখে ওই পরিবারগুলি প্রচুর দুর্নীতি করেছেন বলেও অভিযোগ করেন। বলেন, ‘তিনটি পরিবারের লোকেরা যখন রাজ্য চালাতেন তখন দুর্নীতিদমন শাখা খুলতে দেননি। কিন্তু, এখন দেখুন কীভাবে এখানে দুর্নীতিদমন শাখার আধিকারিকরা কাজ করছেন। আসলে আমরা প্রথম থেকেই ৩৭০ ও ৩৫-এ ধারার বিরুদ্ধে ধারাবাহিক ভাবে যুদ্ধ করে এসেছি। জনসংঘ ও বিজেপি সবসময়ই এই দুটি ধারার বিরোধিতা করে এসেছে। কিন্তু, কংগ্রেস সবসময় ৩৭০ ধারাকে ভোট ব্যাংকের রাজনীতির জন্য ব্যবহার করেছে। তাই এখন কাশ্মীরের যখন নির্বাচন হতে চলেছে তখনও এতে রাজনীতির গন্ধ খুঁজে পাচ্ছে কংগ্রেস। কিন্তু, এটা বিজেপির কাছে দেশপ্রেমের বিষয়। এটাই দুটি দলের মধ্যে তফাত তৈরি করেছে।’

[আরও পড়ুন:হাতিয়ার ৩৭০ ধারা, দুই রাজ্যে মোদি ঝড়ের আশায় বিজেপি]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে