BREAKING NEWS

১১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৯  সোমবার ২৮ নভেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

বাবরি ধ্বংস মামলায় ৯ মাসের মধ্যেই ভাগ্য নির্ধারণ আডবানী-উমার 

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: July 19, 2019 1:55 pm|    Updated: July 19, 2019 1:55 pm

Babri demolition case: Deliver verdict within 9 months, says SC

৯ মাসের মধ্যেই করতে হবে রায়দান, নির্দেশ শীর্ষ আদালতের।

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বাবরি মসজিদ ধ্বংস মামলায় ৯ মাসের মধ্যেই বিচারপ্রক্রিয়া শেষ করার নির্দেশ দিল সুপ্রিম কোর্ট৷ আজ, শুক্রবার থেকেই কার্যকরী হয়েছে এই নির্দেশ৷ ফলে অপরাধমূলক ষড়যন্ত্রের মামলায় বর্ষীয়ান বিজেপি নেতা লালকৃষ্ণ আডবানী, মুরলী মনোহর জোশী, উমা ভারতী, কল্যাণ সিং-সহ বাকি অভিযুক্তদের ভাগ্য নির্ধারণ হবে আগামী কয়েক মাসের মধ্যেই৷

[আরও পড়ুন: হাফিজের গ্রেপ্তারি নাটকের নবম অধ্যায়, পাকিস্তানকে তোপ ভারতের]

বাবরি ধ্বংস মামলার শুনানি চলছে লখনউয়ের সিবিআই আদালতে৷ ২০১৭ সাল থেকে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে এই মামলাটি চলছে বিচারক সুরেন্দ্র কুমার যাদবের এজলাসে৷ কয়েকদিন আগেই মামলাটির অগ্রগতি সম্পর্কে শীর্ষ আদালতকে জানিয়েছিলেন বিচারক যাদব৷ তিনি জানিয়েছিলেন, বিচারপ্রক্রিয়া অনেকটাই এগিয়ে গিয়েছে৷ আর মাস ছয়েক সময় পেলেই তিনি রায়দান করতে পারবেন৷ তবে আগামী সেপ্টেম্বর মাসের ৩০ তারিখ যেহেতু তাঁর অবসরের সময়সীমা, তাই রায়দান তাঁর পক্ষে সম্ভব হবে কি না, তা নিয়ে সংশয় প্রকাশ করেছিলেন তিনি৷ তারপরই এদিন উত্তরপ্রদেশ সরকার ও এলাহাবাদ হাই কোর্টকে, সিবিআই আদালতের বিচারকের মেয়াদ বাড়ানোর নির্দেশ দিয়েছে বিচারপতি আর এফ নরিমান ও বিচারপতি সূর্যকান্তের বেঞ্চ৷ শীর্ষ আদালত সাফ নির্দেশ দেয়, এই মামলায় প্রমাণ রেকর্ড ছয় মাসের মধ্যে এবং রায়দান নয় মাসের মধ্যে করতে হবে। 

প্রসঙ্গত, ২০১৭ সালের ১৯ এপ্রিল সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি পিসি ঘোষ ও আরএফ নরিমানের বেঞ্চ আডবানী, জোশী, উমা ভারতীদের বিরুদ্ধে অপরাধমূলক ষড়যন্ত্রের মামলা নতুন করে চালু করা নিয়ে সিবিআইয়ের আবেদন মেনে নেয় ও সেইমতো নির্দেশ দেয়। এর আগে এলাহাবাদ হাই কোর্ট অভিযুক্তদের বেকসুর খালাস করার নির্দেশ দিয়েছিল।

[আরও পড়ুন: ‘বাবরি ভেঙেছে শিব সৈনিকরা’, রাম মন্দির নির্মাণের ডাক দিয়ে বিস্ফোরক উদ্ধব]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে