BREAKING NEWS

৭ আশ্বিন  ১৪২৭  বুধবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

মুসলিম সবজি বিক্রেতাদের বয়কটের নিদান, সমালোচনার মুখে বিজেপি বিধায়ক

Published by: Sucheta Chakrabarty |    Posted: April 28, 2020 3:41 pm|    Updated: April 28, 2020 6:39 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: লকডাউনের আবহে রাস্তায় বেরিয়ে মুসলিমদের বিরুদ্ধে বিদ্বেষমূলক মন্তব্য প্রচারের অভিযোগ উত্তরপ্রদেশের বিজেপি বিধায়কের বিরুদ্ধে। ভাইরাল হওয়া একটি ভিডিওতে দেখা যায়, মুসলিম সবজি বিক্রেতাদের থেকে সবজি কিনতে নিষেধ করছেন এই বিধায়ক। ভিডিওটি প্রকাশ্যে আসতেই সমালোচনার ঝড় বয়ে যায় বিজেপি বিধায়কের বিরুদ্ধে। চাপের মুখে পড়ে বিজেপি বিধায়ককে শোকজ নোটিশ গেরুয়া শিবিরের।

করোনার ত্রাসে ত্রস্ত বিশ্ব। এমতাবস্থায় জাতি-ধর্ম-বর্ণ বিদ্বেষ ভুলে একত্রে কাজ করার কথা আগেই ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সেখানে উত্তরপ্রদেশের দেওয়রিয়া জেলার বিজেপি বিধায়ক সুরেশ তিওয়ারি মুসলিম বিদ্বেষী মনোভাব পোষণ করায় বিতর্ক দানা বাঁধে। মাত্র ১৪ সেকেন্ডের একটি ভিডিও ফুটেজে দেখা যায়, সত্তোরোর্ধ্ব বিজেপি বিধায়ক রাস্তায় বেরিয়ে জনগনের সামনে মুসলিম বিরোধী মন্তব্য করছেন। তিনি বলেন, “একটা কথা সকলে মাথায় রাখুন, সর্বসমক্ষে আমি এই কথা জানিয়ে রাখি ‘মিয়াস’ (মুসলিম সবজি বিক্রেতা)-দের থেকে সবজি কেনার কোনও প্রয়োজনীয়তা নেই।” তাঁর এই মন্তব্যের পর সমালোচনার ঝড় বয়ে গেলে নিজের বক্তব্যের সপক্ষে যুক্তিতে জানান, “আমি আমার নির্বাচন ক্ষেত্রে রাস্তায় বেরিয়ে জনগনের সঙ্গে কথা বলছিলাম। লকডাউন পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনার সময় তাঁরাই আমায় অভিযোগ করেন, মুসলিম বিক্রেতারা সবজি বিক্রির সময় তাঁদের গায়ে থুতু ছিটিয়ে দিচ্ছে। তখন আমি জানাই আমার এক্ষেত্রে কিছু করার নেই। সংক্রমণ থেকে বাঁচতে তাঁরা যেন মুসলিম বিক্রেতাদের এড়িয়ে চলেন। জনগন যদি একজন বিধায়কের কাছে এই সমস্যার এই সমস্যার কথা জানায় তাহলে একজন বিধায়কেরই বা কি করার থাকে? আমি কি কোনও ভুল কথা বলেছি? এই বিষয়টিকে নিয়ে কেন এত বড় করে দেখা হচ্ছে?”

[আরও পড়ুন:লকডাউনে বন্ধ উপার্জন, মানসিক অবসাদে আত্মঘাতী কাটোয়ার বধূ]

বিজেপি বিধায়কের সমালোচনা করে এআইএমআইএম (AIMIM) নেতা আসাদুদ্দিন (Asaduddin) ওয়েইসি জানান, “এই বিধায়কের কথায় কেউ আমল দেবেন না। নিজের আখের গোছাতেই তিনি নিজের নির্বাচন ক্ষেত্রে এই মন্তব্য করেছেন তাই এই ঘটনা বড় করে দেখা হচ্ছে।” তবে এই ভিডিও প্রকাশ্যে আসায় নেটিজেনদের সমালোচনার মুখে পড়েন উক্ত বিধায়ক। অভিনেত্রী তথা কংগ্রেস নেত্রী নাগমাও বিজেপি নেতার সমালোচনা করেন। সর্বোপরি দেশর তথা বিশ্বের প্রতিটি মানুষ যেখানে এই মারণ ভাইরাসের ভয় কাবু সেখানে শুধুমাত্র একটি জাতিকে আক্রমণ করা মনুষত্যহীনতার পরিচয় বলে জানান সমাজবিদরা। জনগনের উদ্দেশ্যে তাঁদের বার্তা, “এই রোগের কবলে যে কেউ পরতে পারেন। এটা ঘৃণ্য রাজনীতি করার বা বিদ্বেষ ছড়ানোর সময় নয়। সকলকে এক হয়ে কাজ করতে হবে। তবেই মিলবে মুক্তি।”

[আরও পড়ুন:মৃদু উপসর্গ দেখা দিলে বাড়িতেই আইসোলেশনে থেকে চিকিৎসা, নয়া নির্দেশিকা কেন্দ্রের]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement