Advertisement
Advertisement
Chandigarh University

চণ্ডীগড় বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিডিও ফাঁস কাণ্ড, অশান্তি এড়াতে ৬ দিন পঠনপাঠন বন্ধ

বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ পড়ুয়াদের দাবি মেনে নেওয়ায় মাঝরাতে আন্দোলন প্রত্যাহার করা হল।

Chandigarh University videos leaked case: Students call off protest at midnight, classes suspended for 6 days | Sangbad Pratidin

ফাইল ছবি।

Published by: Sucheta Sengupta
  • Posted:September 19, 2022 9:17 am
  • Updated:September 19, 2022 10:01 am

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ছাত্রীদের গোপন ভিডিও ফাঁসের ঘটনা নিয়ে উত্তাল চণ্ডীগড় বিশ্ববিদ্যালয় (Chandigarh University)। রবিবার দিনভর পড়ুয়াদের বিক্ষোভে বিশ্ববিদ্যালয় চত্বর উত্তপ্ত ছিল। তবে কর্তৃপক্ষ তাঁদের দাবি মেনে নেওয়ায় মাঝরাতে বিক্ষোভ (Agitation) প্রত্যাহার করে নিলেন পড়ুয়ারা। আগামী ৬ দিনের জন্য পঠনপাঠন বন্ধ থাকবে বিশ্ববিদ্যালয়ে। এছাড়া পড়ুয়াদের সুরক্ষার স্বার্থে হস্টেল (Hostel) নিয়ে একাধিক পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। হস্টেল ওয়ার্ডেনদের বদলি করা হচ্ছে, বদলে যাচ্ছে হস্টেলে ঢোকা-বেরনোর সময়ও।

Advertisement

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রো-চ্যান্সেলর জানিয়েছেন, ”যা ঘটেছে, তা নিয়ে এফআইআর (FIR) দায়ের করা হয়েছে, তদন্ত চলছে। কোনও ছাত্রী আত্মহত্যা করার চেষ্টা করেনি। সব গুজব। আমি অভিভাবক ও পড়ুয়াদের কাছে আবেদন জানাচ্ছি, কোনও গুজবে কান দেবেন না। শান্ত থাকুন। যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।” পাঞ্জাবের ভগবন্ত মান সরকার এনিয়ে উচ্চপর্যায়ের তদন্তের নির্দেশ দেওয়ার পর শিক্ষামন্ত্রী হরজ্যোৎ বেইনস পড়ুয়াদের শান্ত থাকার আবেদন জানিয়েছেন। তাঁর আশ্বাস, প্রকৃত দোষীদের বিরুদ্ধে কড়া শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Advertisement

[আরও পড়ুন: খোলা হতে পারে পুরীর জগন্নাথ মন্দিরের রত্নভাণ্ডার, অপেক্ষা সবুজ সংকেতের]

ভাইরাল হওয়া একটি ভিডিও (Viral Video) কেন্দ্র করে উত্তপ্ত পরিস্থিতি তৈরি হয় চণ্ডীগড় বিশ্ববিদ্যালয়ে। অন্তত ৬০ পড়ুয়ার গোপন ভিডিও ভাইরাল করার অভিযোগ উঠেছে তাঁদেরই এক সহপাঠীর বিরুদ্ধে। ভিডিও ভাইরাল হওয়ায় লজ্জায় এক ছাত্রী আত্মহত্যার চেষ্টা করেন বলেও অভিযোগ। অভিযুক্ত ছাত্রী লুকিয়ে লুকিয়ে মেয়েদের স্নানের দৃশ্য রেকর্ড করতেন। তারপর সেই ভিডিও হিমাচল প্রদেশের শিমলার বাসিন্দা এক বন্ধুর কাছে পাঠিয়ে দেওয়া হত। সেখানে এমএমএস বানিয়ে ওই ভিডিও নেটমাধ্যমে আপলোড করে দেওয়া হত। সোশ্যাল মিডিয়ায় সেই ভিডিও দেখে ক্ষোভে ফেটে পড়েন পড়ুয়ারা। তাঁদের বিক্ষোভের জেরে নড়েচড়ে বসে পাঞ্জাব প্রশাসন উচ্চপর্যায়ের তদন্তের নির্দেশ দেন। ঘটনায় মূল অভিযুক্ত হিসেবে ওই ছাত্রী ও তার বন্ধুকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। মনে করা হচ্ছে, শিমলার ওই যুবকই বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রীর সঙ্গী।

[আরও পড়ুন: ‘মৃতপ্রায় মানুষকে বাঁচানোর জন্য টাকা দিয়ে কী ভুল করেছি?’, অনুব্রতকে সমর্থন ব্যবসায়ী রাজীবের]

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ