BREAKING NEWS

৩২ আষাঢ়  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ১৬ জুলাই ২০২০ 

Advertisement

আধার না থাকলে খেলা যাবে না গরবা ও ডান্ডিয়া, হুঁশিয়ারি বজরং দলের

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: September 29, 2019 11:39 am|    Updated: September 29, 2019 9:19 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আধার কার্ড না থাকলে ঢুকতে দেবেন না। গরবা ও ডান্ডিয়া উদ্যোক্তাদের এই নির্দেশই দিল বজরং দল। হিন্দু নয় এরকম কেউ যাতে গরবা বা ডান্ডিয়ার অনুষ্ঠানে প্রবেশ করতে না পারে তার জন্য এই পরিকল্পনা নিয়েছে বিশ্ব হিন্দু পরিষদের শাখা সংগঠন। এই জন্য আধার কার্ডকে বাধ্যতামূলক করতে বলেছে তারা।

[আরও পড়ুন: ‘ইমরান খান পাক সেনার পুতুল, ১৫ মিনিটেই বোঝা গিয়েছে চরিত্র’, তোপ গম্ভীরের]

এপ্রসঙ্গে বজরঙ্গ দলের মিডিয়া কনভেনার এস কৈলাশ বলেন, ‘হিন্দু নয় এরকম কাউকে গরবা বা ডান্ডিয়া অনুষ্ঠানে প্রবেশ করতে দেওয়া হবে না। তাই এই ধরনের অনুষ্ঠানের উদ্যোক্তাদের আমরা আধার কার্ড বাধ্যতামূলক করতে বলেছি। অনুষ্ঠান যেখানে হবে তার গেটে যাতে আধার কার্ড খতিয়ে দেখে ঢুকতে দেওয়া তাও লক্ষ্য রাখতে বলেছি আমরা। এমনকী অনুষ্ঠানের নিরাপত্তার জন্য যে বাউন্সারদের নিয়োগ করা হবে তাকেও হিন্দু সম্প্রদায়ের হতে হবে বলেও জানিয়ে দিয়েছি।’

তিনি আরও জানান, আজ পর্যন্ত কোনওদিন এই ধরনের ব্যবস্থা নেওয়ার প্রয়োজন হয়নি। কিন্তু, গত কয়েক বছর ধরে দেখা যাচ্ছে নজরদারির অভাবে এই ধরনের অনুষ্ঠানে কিছু গন্ডগোল হচ্ছে। হিন্দু নয় এবং এই ধরনের অনুষ্ঠানের ঐতিহ্য মানে না এরকম কিছু মানুষ ঢুকে পড়ছে। তারপর অনুষ্ঠানে থাকা মহিলাদের সঙ্গে বাজে ব্যবহার করছে। কেউ প্রতিবাদ করলে তাঁর সঙ্গেও খারাপ ব্যবহার করছে। তাই বাধ্য হয়ে এই সিদ্ধান্ত নিতে হয়েছে।

[আরও পড়ুন:‘৩ বছর আগে এইদিন সারারাত ঘুমাইনি’, সার্জিক্যাল স্ট্রাইকের কথা মনে করালেন মোদি]

এই ধরনের ঘটনার জন্য নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা বাউন্সারদের কেউ কেউ দায়ী বলেও অভিযোগ করেন তিনি। বলেন, ‘গরবা বা ডান্ডিয়ার উদ্যোক্তারা অনেক সময়ই অহিন্দু বাউন্সারদের হাতে অনুষ্ঠানের নিরাপত্তার ভার তুলে দেন। এদের মধ্যে কেউ কেউ অহিন্দুদের অনুষ্ঠানে ঢোকার সুযোগ করে দেয়। সেই সুযোগে দুষ্কৃতীরা ঢুকে বিশৃঙ্খলা তৈরি করে। আরও একটি গলদ হল অনুষ্ঠানস্থলের প্রবেশদ্বারে উপযু্ক্ত নজরদারির অভাব। তবে এবার প্রথম থেকে সতর্ক রয়েছি আমরা। কোথাও কোনও বিশৃঙ্খলা হওয়ার খবর পেলেই সেখান পৌঁছে যাবে বজরঙ্গ দলের সদস্যরা। দুষ্কৃতীদের গন্ডগোল করা থেকে আটকাবে।’

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement