২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২৬ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

রাজনৈতিক প্রতিহিংসা? কেরলে বাম নেতাকে কুপিয়ে খুন, কাঠগড়ায় বিজেপি আশ্রিত দুষ্কৃতীরা

Published by: Paramita Paul |    Posted: October 5, 2020 11:08 am|    Updated: October 5, 2020 11:08 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কেরলে (Kerala) খুন হলেন এক সিপিএম নেতা। বিজেপির মদতেই রবিবার রাতে তাকে কুপিয়ে খুন করা হয় বলে অভিযোগ বাম সংগঠনগুলির। অভিযুক্ত ছ’জনের সন্ধানে তল্লাশি শুরু হয়েছে। প্রসঙ্গত, কেরলে ক্রমশ বাম ও বিজেপির সংগঠনগুলির মধ্যে শত্রুতা বাড়ছে। যার ফলে রাজ্যজুড়ে মাঝেমধ্যে সংঘর্ষ-খুনের মতো ঘটনা ঘটছে।

কেরলের থ্রিসূর জেলার ঘটনা। সিপিএমের (CPM) তরফে অভিযোগ, আচমকাই একদল দুষ্কৃতী তাদের উপর চড়াও হয়। মারধর করে। তারাই বামকর্মীকে কুপিয়ে খুন করে। নিহত বাম কর্মীর নাম পিউ স্নুপ। বয়স ২৬ বছর। তিনি সিপিএমের শাখা সভাপতি ছিলেন বলে খবর। এই অশান্তিতে দলের আরও তিন কর্মী গুরুতর জখম হয়েছেন। বামেদের অভিযোগ, রাজনৈতিক প্রতিহাংসা চরিতার্থ করতেই ডানপন্থী সংগঠনের তরফে হামলা চালানো হয়েছে।

[আরও পড়ুন : বিজেপি শাসিত হরিয়ানায় গণধর্ষণ, মারধরের শিকার যুবতী, গ্রেপ্তার ৪]

তবে পুলিশ সূত্রে দাবি, রবিবার রাতে থ্রিসূর জেলায় অবৈধ বাইক প্রতিযোগিতাকে কেন্দ্র করে অশান্তির সূত্রপাত। দু’দলের মধ্যে প্রথম বচসা ও পরে হাতাহাতি বেঁধে যায়। এই সংঘর্ষ চলাকালীন বামকর্মীকে খুন করা হয়। তবে এর সঙ্গে রাজনৈতিক কোনও যোগ নেই। অভিযুক্ত ছ’জনের খোঁজে তল্লাশি শুরু করেছে পুলিশ।

ডেমোক্রেটিক ইয়ুথ ফেডারেশন অফ ইন্ডিয়ার রাজ্য সভাপতি এএ রহিম অভিযোগ করেন, বামকর্মীর মৃত্যুর পিছনে বিজেপির মদত রয়েছে। এ নিয়ে অবশ্য বিজেপির তরফে কোনও প্রতিক্রিয়া মেলেনি। উল্লেখ্য, সম্প্রতি কেরলে রাজনৈতিক হিংসার ঘটনা তুঙ্গে উঠেছে। 

[আরও পড়ুন : হাথরাসে ধর্ষণই হয়নি! পুলিশের দাবিতেই সিলমোহর দিল চূড়ান্ত ফরেনসিক রিপোর্ট]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement