BREAKING NEWS

১ আশ্বিন  ১৪২৭  শুক্রবার ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

উত্তরপ্রদেশে দলিত যুবকদের মারধর, গলায় জুতোর মালা পরিয়ে ঘোরানো হল গ্রাম

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: June 12, 2020 1:09 pm|    Updated: June 12, 2020 1:30 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: উচ্চবর্ণের এক ব্যক্তির বাড়ি থেকে ফ্যান চুরি করার অভিযোগ ছিল। এর জেরে তিন দলিত যুবককে বেধড়ক মারধরের পরে জুতোর মালা পরিয়ে গোটা গ্রাম ঘোরানো হল। ন্যাক্কারজনক এই ঘটনা ঘটেছে উত্তরপ্রদেশের লখনউ (Lucknow) জেলার বারাউলি খালিলাবাদ গ্রামে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, ঘটনাটির সূত্রপাত হয় গত ৪ জুন। একজন ওবিসি ও দুজন তফশিলি সম্প্রদায়ের যুবকের নামে একজন উচ্চবর্ণের ব্যক্তির বাড়ি থেকে একটি ফ্যান চুরির অভিযোগ ওঠে। এরপরই উচ্চবর্ণের লোকদের একাংশ জোট বেঁধে ওই তিনজনকে পাকড়াও করে। তারপর তাঁদের বেধড়়ক মারধর করার পর মাথা নেড়া করে গলায় জুতোর মালা পরিয়ে গোটা গ্রাম ঘোরায়।

[আরও পড়ুন: ভারতে ‘লোন উলফ’ হামলার ছক, বাংলাদেশি ধর্মগুরুদের সাহায্য নিচ্ছে আল কায়দা ]

এপ্রসঙ্গে পিজিআই পুলিশ স্টেশনের ওসি কেকে মিশ্র জানান, যার বাড়িতে চুরি হয়েছে বলে অভিযোগ সেই পরিবারের সদস্যরা ওই তিন যুবককে আটক করেছিল। তারপর অন্য প্রতিবেশীরা জড়ো হয়ে তিন জনকে মারধর করে। মাথা নেড়া করিয়ে আর গলায় জুতোর মালা পরিয়ে গোটা গ্রামে ঘোরায়। খবর পাওয়ার পরেই ঘটনাস্থলে পৌঁছয় পুলিশ। তারপর দুটি আলাদা মামলা দায়ের করে, চুরি অভিযোগে তিন যুবককে আর মারধরের অভিযোগে দুজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। ভিডিও দেখে বাকিদের শনাক্ত করার চেষ্টা চলছে।

পরে এই ঘটনার ভিডিও টুইট করে বিষয়টি তীব্র নিন্দা করেন ভীম আর্মির প্রধান চন্দ্রশেখর আজাদ। লেখেন, ‘এই ঘটনার উনার কথা মনে করিয়ে দিল। ‘ ২০১৬ সালে গুজরাটের উনার প্রসঙ্গ উল্লেখ করেন তিনি। গরু রক্ষার নামে যে ঘটনায় একটি পরিবারের সাত সদস্যকে প্রকাশ্যে হেনস্তা করা হয়েছিল। বিষয়টি প্রকাশ্যে আসার পর দেশজুড়ে বিতর্ক তৈরি হয়।

[আরও পড়ুন: ভারতের করোনা প্যাকেজ পাকিস্তানের জিডিপির সমান, ইমরানকে কটাক্ষ বিদেশমন্ত্রকের]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement