BREAKING NEWS

১৫ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ৩ ডিসেম্বর ২০২০ 

Advertisement

ফের উত্তরপ্রদেশ, এবার বন্দুক দেখিয়ে দলিত যুবতীকে গণধর্ষণের অভিযোগ

Published by: Biswadip Dey |    Posted: October 19, 2020 10:10 am|    Updated: October 19, 2020 10:10 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: উত্তরপ্রদেশে (Uttar Pradesh) কতটা সুরক্ষিত নারীরা? হাথরাস কাণ্ডকে কেন্দ্র করে গত মাস থেকেই সারা দেশ উদ্বিগ্ন এই বিষয়ে। এরই মধ্যে আরও বহু নারী নির্যাতনের ঘটনা সামনে এসেছে যোগীর রাজ্যে। রবিবার সামনে এল আরও এক দলিত যুবতীর গণধর্ষণের (Gang rape) শিকার হওয়ার ঘটনা। রাজ্যের কানপুর দেহাত জেলার বাসিন্দা ২২ বছরের ওই যুবতীকে বন্দুক দেখিয়ে ধর্ষণ করা হয়। ধর্ষণে অভিযুক্তদের একজন গ্রামের প্রাক্তন মুখিয়া।

জেলার পুলিশ সুপারিটেন্ডেন্ট কেশবকুমার চৌধুরী জানিয়েছেন, ‘‘ঘটনাটি ঘটেছে এক সপ্তাহ আগে। কিন্তু পুলিশ ওই গণধর্ষণের বিষয়ে জানতে পেরেছে রবিবার।’’ নির্যাতিতার বাবা-মা পুলিশকে জানিয়েছেন, ঘটনার সময় বাড়িতে বাড়িতে তিনি একাই ছিলেন। সেই সময় আচমকা সেখানে চড়াও হয় অভিযুক্তরা। তারপর এক এক করে দু’জন ধর্ষণ করে ওই যুবতীকে। যাওয়ার আগে তারা শাসিয়ে যায়, কাউকে কিছু বললে পরিণতি হবে ভয়ানক। পুলিশ সুপারিটেন্ডেন্ট জানিয়েছেন, অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করে মামলা রুজু করা হয়েছে। দুই অভিযুক্তই পলাতক। তাদের গ্রেপ্তার করার জন্য তদন্তকারী দলকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। 

[আরও পড়ুন: সভায় যোগ দিতে গিয়ে চাষির মৃত্যু, উপেক্ষা করেই বক্তৃতা দিলেন জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া]

গত বুধবার উত্তরপ্রদেশের বারাবাঁকিতেও এক দলিত যুবতী ধর্ষণের শিকার হন। চাষের জমিতে ফসল কাটতে গিয়েছিলেন তিনি। সেই সময় তাঁকে ধর্ষণ করে হত্যা করে অভিযুক্তরা। তদন্তকারীরা জানিয়েছেন, শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে নির্যাতিতাকে।

হাথরাস কাণ্ডের পর থেকে দেশজুড়ে প্রতিবাদের ধাক্কায় কোণঠাসা উত্তরপ্রদেশ সরকার। নারী নির্যাতন রুখতে ‘মিশন শক্তি’ কর্মসূচির উদ্বোধন করেছেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। এরই মধ্যে রাজ্যের বিজেপি বিধায়ক লোকেন্দ্র প্রতাপ সিং ও তাঁর ছেলের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে থানায় পুলিশ হেফাজতে থাকা নারী নির্যাতনে অভিযুক্ত এক ব্যক্তিকে জোর করে ছাড়িয়ে নিয়ে যাওয়ার। কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধী এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে কটাক্ষ করে টুইট করেন, ‘‘উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী কি বলবেন এটা কোন মিশনের অন্তর্গত? কন্যা বাঁচাও নাকি অপরাধী বাঁচাও?’’

[আরও পড়ুন: শীতে করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের সম্ভাবনা উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না, বলছে কেন্দ্রের বিশেষজ্ঞ দল]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement