BREAKING NEWS

২৮ শ্রাবণ  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ১৩ আগস্ট ২০২০ 

Advertisement

‘ইন্দিরা-বাজপেয়ীরাও হেরে ছিলেন’, প্রধানমন্ত্রী ও বিজেপিকে কটাক্ষ শরদ পওয়ারের

Published by: Subhamay Mandal |    Posted: July 11, 2020 5:32 pm|    Updated: July 11, 2020 5:32 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বরাবরের স্পষ্ট বক্তা। ভারতীয় রাজনীতিতে চাণক্যও বলা হয় তাঁকে। প্রবীণ রাজনীতিবিদ এনসিপি প্রধান শরদ পওয়ার (Sharad Pawar) ফের তোপ দাগলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi) ও বিজেপিকে (Bharatiya Janata Party)। শিব সেনা-এনসিপি-কংগ্রেসের জোট সরকার নিয়ে বেশ কিছুদিন ধরেই আওয়াজ তুলেছে মহারাষ্ট্র বিজেপি। করোনা মোকাবিলা-সহ একাধিখ ইস্যুতে প্রতিনিয়ত বিদ্ধ করছে মহারাষ্ট্র বিকাশ আঘাড়িকে। সোজা ব্যাটে খেলে জবাব দিলেন শরদ পওয়ার। শিব সেনার মুখপত্র ‘সামনা’য় প্রকাশিত সাংসদ সঞ্জয় রাউতকে সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছেন, ‘ইতিহাস সাক্ষী আছে, ইন্দিরা গান্ধী-অটল বিহারী বাজপেয়ীরাও হেরেছেন তুমল জনপ্রিয়তা থাকা সত্ত্বেও। প্রধানমন্ত্রী ও বিজেপির এটা মনে রাখা উচিত।’

বারবার মহারাষ্ট্রে জোট সরকার প্রশ্নের মুখে পড়েছে বিরোধী দল বিজেপির। জোটের ভবিষ্যৎ নিয়েও আওয়াজ তুলেছেন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা বিজেপি নেতা দেবেন্দ্র ফড়ণবিস। শিব সেনার সাংসদ সঞ্জয় রাউতকে এ প্রসঙ্গে শরদ পওয়ার বলেছেন, ‘সরকারের তিন দলে মতাদর্শগত পার্থক্য থাকলেও উন্নয়নের প্রশ্নে সবাই একজোট। সে বিষয়ে কোনও মত পার্থক্য নেই।’ বিজেপির ক্ষমতা হারানো নিয়ে খোঁচা দিয়ে বলেছেন, ‘গণতন্ত্রে কেউ অমরত্ব পায়নি। ভোটাররা বুদ্ধিমান, অবহেলাকে সহ্য করে না তাঁরা। এমনকী ইন্দিরা গান্ধী-অটল বিহারী বাজপেয়ীর মতো শক্তিশালী নেতৃত্বকেও হারতে হয়েছিল। কখনও মানুষকে অহংকার দেখানো উচিত নয়। কেউ অতি আত্ববিশ্বাসী হয়ে বলতে পারে না, আমি ফিরছিই। মানুষ এই ঔদ্ধত্যকে পছন্দ করে না। ভোটবাক্সে জবাব দিয়ে দেয়। যেমন বিজেপিকে দিয়েছে বিধানসভায়।’

[আরও পড়ুন: ‘অসত্যাগ্রহী’, প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে ফের মিথ্যাচারের অভিযোগ রাহুলের]

করোনা পরিস্থিতিতে রাজ্যে লকডাউন নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরের সঙ্গে তাঁর মত পার্থক্যের খবর রটেছিল। তার জবাবে শরদ পওয়ার বলেছেন, ‘কোনও মতবিরোধ নেই তো? কেন থাকবে? লকডাউন পর্বে অনেকবার কথা হয়েছে তাঁর সঙ্গে। আমি সংবাদমাধ্যমে বার বার পড়ছি, তিন দলের মধ্যে নাকি বিরোধ তৈরি হয়েছে। এর কোনও ভিত্তিই নেই। বোকা বোকা মনগড়া কথা।’

[আরও পড়ুন: গত ১০০ বছরের সবথেকে বড় অর্থনৈতিক সংকট কোভিড, মন্তব্য রিজার্ভ ব্যাংকের গভর্নরের]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement