Advertisement
Advertisement

Breaking News

Nirmala Sitaraman

আসবেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী, বন্ধ মদের দোকান, তোপের মুখে গোয়ার বিজেপি সরকার

সম্প্রতি উত্তরপ্রদেশে দু'টি মন্দির সংলগ্ন অঞ্চলে বন্ধ করা হয়েছে মদের দোকান।

Goa government instructs to close wine shops ahead of Nirmala Sitaraman | Sangbad Pratidin
Published by: Anwesha Adhikary
  • Posted:June 11, 2022 7:52 pm
  • Updated:June 11, 2022 7:52 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দেশের অর্থমন্ত্রী আসবেন। আর সে জন্য বন্ধ রাখতে হবে স্থানীয় মদের দোকানগুলি। এমনই নির্দেশ দিয়েছে গোয়ার আবগারি দপ্তর (Excise Department)। সেই নির্দেশিকার প্রতিবাদে সরব হয়েছেন বিরোধী দলের এক বিধায়ক বিজয় সরদেশাই। তিনি প্রশ্ন তুলেছেন, গোয়ায় (Goa) কি তবে গণতন্ত্র শেষ হয়ে এবার রাজতন্ত্র শুরু হতে চলেছে? প্রসঙ্গত, কিছুদিন আগেই উত্তরপ্রদেশের দু’টি জায়গায় মন্দির সংলগ্ন অঞ্চলে মদের দোকান বন্ধ করতে নির্দেশ দিয়েছিল সে রাজ্যের বিজেপি সরকার।

স্বাধীনতার ৭৫ বছর পূর্তি উপলক্ষে দেশজুড়ে ‘আজাদি কা অমৃত মহোৎসব’ পালন করা হচ্ছে। সেই প্রেক্ষিতেই একটি অনুষ্ঠানে যোগ দিতে শনিবার গোয়ায় যাওয়ার কথা কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণের (Nirmala Sitaraman)। তিনি গোয়ায় পা রাখার আগেই আবগারি দপ্তর একটি নোটিস জারি করে। সেখানে লেখা ছিল, ” ১১ জুন, শনিবার কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী গোয়াতে আসবেন। সেই কথা মাথায় রেখে নির্দেশ দেওয়া হচ্ছে, ওইদিন রাত আটটা পর্যন্ত প্রত্যেকটি মদের দোকান বন্ধ রাখতে হবে।” অর্থমন্ত্রীর আগমন ছাড়া আর কোনও কারণ উল্লেখ করা হয়নি এই নির্দেশিকাতে।

Advertisement

[আরও পড়ুন:নাগাল্যান্ড গুলিকাণ্ডের চার্জশিটে ৩০ সেনা জওয়ানের নাম, জেরা করতে কেন্দ্রের অনুমতি চাইল রাজ্য]

এই নির্দেশের কথা উল্লেখ করে টুইটারে সরব হয়েছেন সরদেশাই। তিনি লিখেছেন,” কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী আসবেন বলে মদের দোকান বন্ধ রাখা হবে! গোয়া সরকারের এই সিদ্ধান্ত হাস্যকর। এটা স্বেচ্ছাচারিতা এবং একনায়কত্বের নিদর্শন। তাছাড়াও গোয়ার সংস্কৃতির অবমাননা করা হয়েছে এই সিদ্ধান্তে। গোয়ার মানুষের মানসিকতাকেও ছোট করা হয়েছে।”

Advertisement

প্রসঙ্গত, বিজেপি শাসিত উত্তরপ্রদেশে (Uttar Pradesh) মথুরা এবং অযোধ্যার মন্দির সংলগ্ন অঞ্চলে সমস্ত মদের দোকানের লাইসেন্স বাতিল করে দেওয়া হয়েছে। তার পরিবর্তে মথুরায় দুধের ব্যবসা শুরু করতে নির্দেশ দিয়েছেন যোগী আদিত্যনাথ। মূলত সাধুদের অনুরোধেই এই নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

[আরও পড়ুন: শিক্ষিত হলেই কোনও মহিলাকে কাজ করতে বাধ্য করা যায় না, মন্তব্য বম্বে হাই কোর্টের

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ