২২  শ্রাবণ  ১৪২৯  সোমবার ৮ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

জ্বালা ধরাচ্ছে জ্বালানি, এবার পেট্রল-ডিজেল রপ্তানিতে কর চাপাল কেন্দ্র

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: July 1, 2022 5:49 pm|    Updated: July 1, 2022 5:49 pm

Govt slaps export tax on petrol, diesel; windfall tax on domestic crude oil | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দেশের বাজারে কমেছে জোগান। তাই পরিস্থিতির উপর রাশ টানতে এবার পেট্রল, ডিজেল ও বিমানের জ্বালানি বা ‘জেট ফুয়েল’ রপ্তানিতে কর চাপাল কেন্দ্র। শুধু তাই নয়, দেশে উৎপাদিত অপরশোধিত তেলেও ট্যাক্স চাপিয়েছে মোদি সরকার।

শুক্রবারের এই নয়া সিদ্ধান্তে বলা হয়েছে, পেট্রল ও জেট ফুয়েলের রপ্তানিতে লিটার প্রতি ৬ টাকা কর বসছে। বিদেশে ডিজেল রপ্তানি করলে লিটার প্রতি ১৩ টাকা ট্যাক্স ধার্য করা হয়েছে। নতুন নিয়মে, এবার থকে দেশে উৎপাদিত অপরিশোধিত তেলের ক্ষেত্রে প্রতি টন ২৩ হাজার ২৫০ টাকা অতিরিক্ত কর দিতে হবে তৈল সংস্থাগুলিকে। এই সিদ্ধান্তের ফলে দেশীয় বাজারে জ্বালানির জোগান বাড়বে ও মূল্য কিছুটা নিয়ন্ত্রণে আসবে বলেই ধারণা বিশ্লেষকদের। বলে রাখা ভাল, প্রতিবছর ভারতে প্রায় ২৯ মিলিয়ন টন অপরিশোধিত তেলের উৎপাদন হয়। এই বিপুল পরিমাণের জ্বালানির উপর নতুন কর চাপানোর ফলে কেন্দ্র সরকারের কোষাগারে বার্ষিক ৬৭ হাজার ৪২৫ কোটি টাকা আসবে।

[আরও পড়ুন: দিল্লির উপমুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে মানহানির মামলা অসমের মুখ্যমন্ত্রীর, তুঙ্গে হিমন্ত-সিসোদিয়া সংঘাত]

ইউক্রেন যুদ্ধের ফলে রাশিয়া (Russia) থেকে তেল ও গ্যাসের আমদানিতে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে মার্কিন ও ইউরোপের বেশ কয়েকটি দেশ। ফলে বাজারদর থেকে বেশ সস্তায় ভারতকে তেল বিক্রি করতে রাজি হয়েছে রাশিয়া। আর এই সুযোগ লুফে নিয়েছে দেশের সরকারি ও বেসরকারি তৈল সংস্থাগুলি। ইতিমধ্যে ওয়েল, ওএনজিসি’র মতো সরকারি সংস্থাগুলি রুশ অপরিশোধিত তেল কিনতে শুরু করেছে। পাল্লা দিয়ে সস্তায় রুশ তেল আমদানি করছে রিলায়্যান্স ইন্ডাস্ট্রিজের মতো বেসরকারি সংস্থাগুলি। শুধু তাই নয়, শোধন করার পর সেই তেল আমেরিকা ও ইউরোপে বেশি দামে বিক্রি করছে তারা। এহেন সহজ লাভ ছেড়ে তাই দেশীয় বাজারে সস্তায় তেল বিক্রি করতে মোটেও আগ্রহ দেখাচ্ছে না বেসরকারি তৈল শোধনাগারগুলি। ফলে মধ্যপ্রদেশ, রাজস্থান ও গুজরাটের মতো রাজ্যের পেট্রলপাম্পগুলিতে জ্বালানির অভাব দেখা দিয়েছে।

উল্লেখ্য, গতকাল থেকে দেশের তেল উত্তোলক ও উৎপাদনকারী সংস্থাগুলি কোনও শর্ত ছাড়াই দেশের মাটিতে অপরিশোধিত তেল (Crude oil)। বিক্রি করতে পারবে। বুধবার কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভা এ বিষয়ে সবুজ সংকেত দিয়েছে। এদিন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির (Narendra Modi) নেতৃত্বে মন্ত্রিসভার অর্থনৈতিক বিষয়ক কমিটি দেশে উৎপাদিত অপরিশোধিত তেল বিক্রির প্রক্রিয়াকে নিয়ন্ত্রণমুক্ত করার প্রস্তাবে অনুমোদন দিয়েছে।

[আরও পড়ুন: জ্বালানিতে বড় স্বস্তি আমআদমির, একধাক্কায় অনেকটা কমল বাণিজ্যিক গ্যাসের দাম]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে