১২  আষাঢ়  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৮ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

নির্ভয়ার ধর্ষকদের ফাঁসি নিয়ে অনিশ্চয়তার মধ্যেই তিহারে এলেন ফাঁসুড়ে

Published by: Paramita Paul |    Posted: January 30, 2020 9:39 pm|    Updated: January 30, 2020 9:58 pm

Hangman Paban came to Tihar for Nirbhaya convict's hanging.

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নির্ভয়ার ধর্ষকদের ফাঁসি নিয়ে এখনও অনিশ্চয়তা এখনও কাটেনি। কিন্তু প্রস্তুতিতে কোনও খামতি রাখতে রাজি নয় তিহার জেল কর্তৃপক্ষ। তাই একদিকে যখন ফাঁসির দড়ি নরম করার প্রক্রিয়া চলছে, ঠিক তখনই ফাঁসির দুদিন আগে জেলে পৌঁছে গেলেন ফাঁসুড়ে পবন জল্লাদ।

জেল প্রশাসন ফাঁসির সমস্ত আয়োজন শুরু করে দিয়েছে। পয়লা ফেব্রুয়ারি ভোর ৬টায় ফাঁসি দেওয়ার কথা চার ধর্ষক ও খুনিকে। তিহার জেলেই থাকবেন ফাঁসুড়ে পবন। জেল সূত্রে খবর, সেখানে ফাঁসির দড়ি তৈরি, অপরাধীদের ওজনের একই ওজনে তৈরি পুতুলকে ফাঁসি পড়িয়ে দড়ি পরীক্ষা করবেন তিনি।পবনকে কেন বাছাই করা হল, তা নিয়ে  তিহার জেল কর্তৃপক্ষের তরফে এক বিশেষ সূত্র মারফত আরও বলা হয়েছে, “প্রথমত, ও একজন ফাঁসুড়ে পরিবার থেকেই আসছে। দ্বিতীয়ত, শারীরিক ভাবেও ফিট। এছাড়া ওর দৃষ্টিশক্তি এখনও বেশ প্রখর, যেটা জরুরী।’ সূত্রের তরফে আরও বলা হয়েছে যে, পবনের নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে।” 

[আরও পড়ুন : দিল্লিতে শিশু ধর্ষণের ঘটনায় দুই দোষী সাব্যস্তের ২০ বছরের কারাদণ্ড]

জানা গিয়েছে, মেরঠের এক মহল্লায় ছোট্ট ফ্ল্যাট তাঁর। তিন প্রজন্ম ধরে ফাঁসির আসামিদের গলায় ফাঁস পরানোর কাজ করছে পবনের পরিবার। পবনের গুরু তাঁর দাদা। তিনিই ফাঁসি দিয়েছিলেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধীর হত্যাকারীকে। বহুদিন পর নিজের কাজ করার সুযোগ পেয়ে পবন জল্লাদ বলেন, “এই সুযোগের জন্য আমি দীর্ঘদিন ধরে অপেক্ষা করছিলাম। শেষমেশ কথা শুনল ভগবান।”

[আরও পড়ুন : ‘নীরব দর্শক’, জামিয়ায় গুলিকাণ্ডে দিল্লি পুলিশকে তুলোধনা বিরোধীদের]

এদিকে ফাঁসির দু’দিন আগে ফের আদালতের দ্বারস্থ হল নির্ভয়ার ধর্ষক অক্ষয় সিং। ১ ফেব্রুয়ারি  নির্ভয়াকাণ্ডে দোষী চারজনের ফাঁসি হওয়ার কথা। এই মর্মে ফাঁসির পরোয়ানা জারিও হয়ে গিয়েছে। জারি হওয়া সেই মৃত্যু পরোয়ানার উপর স্থগিতাদেশ চেয়ে দিল্লির পাতিয়ালা হাউস কোর্টে আবেদন জানাল অক্ষয়। নির্ভয়া কাণ্ডে অন্যতম দোষী অক্ষয়ের দাবি, ওই চারজন নিজেদের বাঁচাতে এখনও বেশকিছু আইনি সহায়তা পেতে পারে। তাই মৃত্যুদণ্ডের দিন পিছিয়ে দেওয়ার আরজি জানিয়েছে সে।

 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে