BREAKING NEWS

২  ভাদ্র  ১৪২৯  বৃহস্পতিবার ১৮ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

বাবার শেষ ইচ্ছা পূরণ, ইদগাহর জন্য দেড় কোটি টাকার জমি দান করলেন দুই হিন্দু বোন

Published by: Kishore Ghosh |    Posted: May 5, 2022 12:42 pm|    Updated: May 5, 2022 2:22 pm

Hindu sisters donate 4 bigha land for a Idgah in Uttarakhand kashipur | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কিছুদিন আগেই হনুমান জয়ন্তীর শোভাযাত্রাকে কেন্দ্র করে অশান্তি ছড়িয়েছিল দিল্লির জাহাঙ্গিরপুরী-সহ বিভিন্ন রাজ্যে। সম্প্রতি ইদের দিনেও উত্তপ্ত হয়েছে দেশের বেশ কিছু প্রান্ত। মুম্বই-সহ মহারাষ্ট্রে চলছে আজান ও হনুমান চালিশা বিতর্ক। এসবের সম্পূর্ণ উলটো চিত্র ধরা পড়ল উত্তরাখণ্ডে (Uttarakhand)। বাবা তাঁর শেষ ইচ্ছায় ইদগাহর (Idgah) জন্য জমি দান করতে চেয়েছিলেন, সেই ইচ্ছাপূরণ করলেন সন্তানেরা। এলাকায় ইদগাহর জন্য দেড় কোটি টাকা মূল্যের ৪ বিঘা জমি দান করলেন হিন্দু পরিবারের দুই বোন। উত্তরাখণ্ডের সম্প্রীতির এই উদাহরণ এখন মানুষের মুখেমুখে। ঘটনার প্রশংসায় পঞ্চমুখ ধর্ম নির্বিশেষে মানুষ।

ঘটনাটি উত্তরাখণ্ডের উধম সিং নগর জেলার কাশিপুরের। দুই তরুণীর নাম সরোজ রস্তোগি (Saroj Rastogi)ও অনিতা রস্তোগি (Anita Rastogi)। সরোজ ও অনিতার বাবা ব্রজনন্দন প্রসাদ রস্তোগির মৃত্যু হয় ২০০৩ সালে। মৃত্যুর আগে তিনি নিকটাত্মীয়দের জানান, নিজের চার বিঘা জমি এলাকার ইদগাহর জন্য দান করতে চান। যদিও এই কথা জানা ছিল না সরোজ ও অনিতার। পরে তাঁরা আত্মীয়দের কাছে সবটা শোনেন। এবং ভাই রাকেশের সঙ্গে কথা বলে বাবার শেষ ইচ্ছাপূরণে উদ্যোগ হন। রবিবার আইন মেনে ইদগাহ লাগোয়া নিজেদের চার বিঘা জমি দান করেন ইদগাহ কমিটিকে।

[আরও পড়ুন: ফাঁস বড়সড় নাশকতার ছক! কাশ্মীর পাক আউটপোস্টের কাছে গোপন সুড়ঙ্গের হদিশ ভারতীয় সেনার]

এই বিষয়ে সরোজ বলেন, “আমরা কিছুই করিনি। বাবার ইচ্ছে মতো কেবল জমি দান করেছি। তিনি ছিলেন একজন উদার মানুষ। সব ধর্মকে সম্মান করতেন।” সরোজ আরও জানান, তাঁদের বাবা প্রতি বছরই ইদগাহ কমিটিকে সমবেত নমাজের ব্যবস্থার জন্য কিছু অর্থ দান করতেন।

[আরও পড়ুন: বেড়েই চলেছে দেশের দৈনিক করোনা আক্রান্ত, উদ্বেগ মৃতের সংখ্যাতেও]

ইদগাহ কমিটির অন্যতম প্রধান সদস্য হাসিন খান বলেন, ‘‘দুই বোন সাম্প্রদায়িক ঐক্যের জীবন্ত উদাহরণ। ইদগাহ কমিটি তাঁদের কাছে চির কৃতজ্ঞ থাকবে। দুই বোনকে সম্মানিত করা হবে।’’ তিনি আরও বলেন, “আমাদের দেশ যখন সাম্প্রদায়িক উন্মাদনায় খানিক দিশাহারা, সেই পরিবেশে এই বোনদের মহৎ কাজ বিশেষ ভাবে গুরুত্বপূর্ণ।”

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে