২২  শ্রাবণ  ১৪২৯  সোমবার ৮ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

সার্ভিস চার্জ নিতে পারবে না হোটেল-রেস্তরাঁগুলি, কড়া নির্দেশ কেন্দ্রের

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: July 4, 2022 7:00 pm|    Updated: July 4, 2022 7:00 pm

Hotels, restaurants barred from levying service charge: CCPA order

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: হোটেল ও রেস্তরাঁগুলির বাড়তি সার্ভিস চার্জের ফলে বেড়ে যায় বিলের বহর। খাবারের দাম ও জিএসটি হিসেব কষেও প্রকৃত খরচের নাগাল পাওয়া যায় না। প্রায়শই এমন অভিযোগ করতে শোনা গিয়েছে রেস্তরাঁ-হোটেলে পানাহার করতে যাওয়া মানুষের মুখে। এমত অবস্থায় সোমবার কেন্দ্রীয় ক্রেতা সুরক্ষা কর্তৃপক্ষ স্পষ্ট জানিয়ে দিল যে গ্রাহকদের থেকে সার্ভিস চার্জ নিতে পারবে না হোটেল-রেস্তরাঁ। এর অন্যথায় মামলা করতে পারবেন গ্রাহকরা।

দেশের ঝাঁ চকচকে হোটেল ও রেস্তরাঁগুলিতে সার্ভিস চার্জ নিয়ে গ্রাহকদের ক্ষোভ দীর্ঘদিনের। ‘পরিষেবা মূল্য’ তকমায় যে অতিরিক্ত টাকা বিলে সেঁটে দেওয়া হয় তার কোনও গহণযোগ্য যুক্তি নেই বলেই অভিযোগ। গত জুলাই মাসে জাতীয় রেস্তরাঁ অ্যাসোসিয়েশনের সঙ্গে এক বৈঠকে কেন্দ্রের তরফে জানিয়ে দেওয়া হয়েছিল যে সার্ভিস চার্জ (Service Charge) নেওয়ার কোনও আইনি বৈধতা নেই, এই কাজ অন্যায্য। কিন্তু তারপরও কোনও সুরাহা হয়নি। এহেন পরিস্থিতিতে, এদিন ‘সেন্ট্রাল কনজিউমার প্রোটেকশন অথরিটি’ তথা কেন্দ্রীয় ক্রেতা সুরক্ষা কর্তৃপক্ষ গাইড লাইনে স্পষ্ট জানিয়েছে, রেস্তরাঁ-হোটেলে সার্ভিস চার্জ নেওয়া যাবে না। গ্রাহকদের উপর এমন কোনও অতিরিক্ত মূল্য চাপিয়ে দেওয়া যাবে না। উপভোক্তাদের জানিয়ে দিতে হবে যে সার্ভিস চার্জ দেওয়া বাধ্যতামূলক নয়।

[আরও পড়ুন: ‘বিচারপ্রক্রিয়ায় বাধা হচ্ছে সোশ্যাল মিডিয়ার ট্রায়াল’, নূপুর শর্মা বিতর্কে তোপ সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতির]

এদিন কেন্দ্রীয় ক্রেতা সুরক্ষা কর্তৃপক্ষ নির্দেশিকায় স্পষ্ট জানিয়েছে, যদি কোনও হোটেল বা রেস্তোরাঁ নির্দেশিকা অগ্রাহ্য করে পরিষেবা মূল্য বা সার্ভিস চার্জ আদায় করে, সেক্ষেত্রে ন্যাশনাল কনজিউমার হেল্পলাইনে (National Consumer Help Line) ফোন করে অভিযোগ জানাতে পারবেন ক্রেতা বা ভুক্তভোগীরা।

উল্লেখ্য, ২০১৭ সালের এপ্রিল মাসে উপভোক্তা বিষয়ক মন্ত্রক সার্ভিস চার্জের পরিপ্রেক্ষিতে একটি নির্দেশিকা জারি করেছিল। যেখানে বলা হয়েছিল যে সার্ভিস চার্জ বাধ্যতামূলক নয়। এটি গ্রাহকের ইচ্ছার উপর নির্ভরশীল। পাশাপাশি, খাদ্য বিলে লেভি বা সার্ভিস চার্জ বৈধ নয় বলেও জানানো হয়। এই চার্জ ক্রেতা দিতে চাইলে দিতে পারেন আর দিতে না চাইলেও জোর করা যাবে না। এর অন্যথায় সংশ্লিষ্ট হোটেল বা রেস্তরাঁ বিরুদ্ধে উপভোক্তা ফোরামে যেতে পারেন গ্রাহক।

[আরও পড়ুন: বিজেপি কর্মী থেকে লস্কর জঙ্গি, কাশ্মীরে জেহাদিকে ধরল গ্রামবাসীরাই]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে