২২ আষাঢ়  ১৪২৭  মঙ্গলবার ৭ জুলাই ২০২০ 

Advertisement

লাগাতার লকডাউনের জের, মে মাসেও উদ্বেগজনক দেশের বেকারত্বের হার

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: June 1, 2020 4:56 pm|    Updated: June 1, 2020 4:56 pm

An Images

ফাইল ফটো

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: লকডাউন শেষ। দেশজুড়ে শুরু হয়েছে ‘আনলক ওয়ান’। আর আনলক শুরু হতেই স্বস্তি পাওয়া গেল কাজের বাজারে। দেশে বেকারত্বের হার খানিকটা হলেও কমার ইঙ্গিত মিলল। তবে আগের তুলনায় খানিকটা কমলেও, বেকারত্বের হার এখনও উদ্বেগজনক।

করোনা ভারতে প্রকোপ দেখানোর আগেও অর্থনীতি খুব একটা ভাল জায়গায় ছিল না। সেসময় বেকারত্বের হার ছিল ৭ শতাংশের আশেপাশে। কিন্তু করোনার প্রভাবে একপ্রকার কোমরই ভেঙে গিয়েছে অর্থনীতির। লকডাউনের ফলে মাত্র ২ মাসের মধ্যে বেকারত্বের হার ৭ শতাংশ থেকে বেড়ে ২৭ শতাংশে পৌঁছে গিয়েছিল। ধীরে ধীরে বিধি-নিষেধ কমছে। শুরু হচ্ছে অর্থনৈতিক কার্যকলাপ। সেই সঙ্গে বেকারত্বের ছবিটা খানিকটা হলেও পালটাচ্ছে। বিশেষ করে গ্রামাঞ্চলে ছবিটা বেশ আশাপ্রদ।

[আরও পড়ুন: সুপ্রিম নির্দেশে সিলমোহর, উড়ানের মাঝের আসন বুকিং নিয়ে নয়া নির্দেশিকা DGCA’র]

দেশের অর্থনীতির থিংক ট্যাঙ্ক সেন্টার ফর মনিটরিং ইন্ডিয়ান ইকোনমির (CMIE) রিপোর্ট বলছে, মে মাসে দেশে বেকারত্বের হার ছিল ২৩.৪৮ শতাংশ। অর্থাৎ গত মাসে দেশের প্রত্যেক ৫ জন ব্যক্তির একজন বেকার ছিলেন। এই পরিসংখ্যানে আগের মাসের তুলনায় খানিকটা হলেও স্বস্তি পেয়েছে ভারত। এপ্রিলে দেশে বেকারত্বের হার ছিল ২৩.৫২ শতাংশ। CMIE-র দাবি ছিল, এপ্রিল মাসে দেশের প্রায় সাড়ে ১২ কোটি কর্মক্ষম মানুষ বেকার বসে ছিলেন। মে মাসেও ছবিটা সেরকমই। তবে স্বস্তির খবর সংখ্যাটা এই এক মাসে বাড়েনি। বরং কমার দিকেই ইঙ্গিত দিয়েছে।

[আরও পড়ুন: কাশ্মীরের নৌসেরা সেক্টরে ফের বানচাল অনুপ্রবেশের ছক, খতম তিন পাকিস্তানি জঙ্গি]

কেন্দ্র সরকার সরকারিভাবে ‘আনলক’ শুরু করার আগেই দেশজুড়ে টুকটাক অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ড শুরু হয়ে গিয়েছিল। অনেক কলকারখানা কাজ শুরু করেছিল। যার ফলে বেকারত্ব খানিকটা কমার ইঙ্গিত দিচ্ছে।  বিশেষ করে ১০০ দিনের কাজ চালু হওয়ায় গ্রামের দিকে বেকারত্ব অনেকটাই কমার ইঙ্গিত মিলেছে।গত মাসের তুলনায় গ্রামাঞ্চলে বেকারত্বের হার কমেছে প্রায় ৮ শতাংশ।  ত

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement