BREAKING NEWS

২৬ শ্রাবণ  ১৪২৭  বুধবার ১২ আগস্ট ২০২০ 

Advertisement

স্থানীয় সহযোগীর গ্রেপ্তারির বদলা নিতেই খুন কাশ্মীরি বিজেপি নেতা, দায় স্বীকার জইশের

Published by: Paramita Paul |    Posted: July 9, 2020 10:52 am|    Updated: July 9, 2020 11:31 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সন্ত্রাসবাদীদের বুলেট ঝাঁজরা করে দিয়েছে কাশ্মীরের  বিজেপি (BJP) নেতার শরীর। বাড়ির সামনে মৃত্যু হয়েছে তাঁর বাবা ও ভাইয়েরও। ইতিমধ্যে হামলার দায় স্বীকার করেছে জইশ-ই-মহম্মদ, লস্কর-ই-তইবা এবং হিজবুল মহম্মদ জঙ্গি সংগঠনের সম্মিলিত স্থানীয় সগঠন ‘দি রেজিটেন্স ফ্রন্ট’ (The Resistance Front )। যদিও পুলিশের দাবি হামলার মূলচক্রী পাকিস্তানি জঙ্গি সংগঠন জইশ-ই-মহম্মদ।স্থানীয় এক সহযোগীর গ্রেপ্তারির বদলা নিতেই এই হামলা। অন্যদিকে, বিজেপি নেতার পরিবারের নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা ১০ পুলিশ কর্মীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। জঙ্গি হামলার ঘটনায় শোকস্তব্ধ বিজেপি কর্মকর্তারা। টুইটারে শোকপ্রকাশ করেছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী। এদিকে, অভিযুক্তদের শান্তির দাবিতে ভূস্বর্গে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন বিজেপি কর্মী-সমর্থকরা।

বান্দিপোরা পুলিশ স্টেশনের কাছেই থাকতেন ওই এলাকার প্রাক্তন বিজেপি সভাপতি শেখ ওয়াসিম বারি। বুধবার রাত নটা নাগাদ বাড়ির সামনের দোকানে বসেছিলেন তিনি, তাঁর বাবা ও ভাই। সেইসময় সন্ত্রাসবাদীরা হামলা চালায়। এলোপাথারি গুলিতে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন তিনজন। এদিকে ওই পরিবারের নিরাপত্তার দায়িত্বে ছিলেন ১০ পুলিশকর্মী। কাকতালীয়ভাবে হামলার সময় একজনও উপস্থিত ছিলেন না। অভিযুক্ত ১০ জন পুলিশ কর্মীকেই গ্রেপ্তার করা হয়েছে। অভিযোগ, জঙ্গিদের সঙ্গে যোগসাজশে যুক্ত ছিল তারা। এ প্রসঙ্গে কাশ্মীর পুলিশের ডিজি দিলবাগ সিং জানিয়েছেন, “সন্ত্রাসবাদীদের শনাক্ত করা হয়েছে”।

[আরও পড়ুন : বড়সড় সাফল্য উত্তরপ্রদেশ পুলিশের, মধ্যপ্রদেশ থেকে গ্রেপ্তার কানপুরের ডন বিকাশ দুবে]

পুলিশ সূত্রে খবর, হামলার পিছনে রয়েছে পাকিস্তানি জঙ্গি সংগঠন জইশ-ই-মহম্মদ। যদিও জইশ, লস্কর-ই-তইবা ও হিজবুল মুজাহিদিন-এই তিন পাকিস্তানি সংগঠনের স্থানীয় শাখা The Resistance Front হামলার দায় স্বীকার করেছে। দিন কয়েক আগে পুলওয়ামা হামলায় স্থানীয় তথ্য পাচার ও জইশ জঙ্গিদের সাহায্য করার অভিযোগে এক স্থানীয় যুবককে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। তারই বদলা নিতে এই হামলা বলে দাবি। হামলার আগে দায়িত্বে থাকা নিরাপত্তাকর্মীদেরও হাত করেছিল ওই জঙ্গি সংগঠন। 

এদিকে দলীয় নেতার মৃত্যুতে শোকপ্রকাশ করেছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী জিতেন্দ্র সিং। টুইটারে তিনি লেখেন, নৃশংস হামলার জন্য সফট টার্গেট বেছে নিচ্ছে সন্ত্রাসবাদীরা। তিনি আরও জানান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি নিহত বিজেপি নেতার পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন। শোক প্রকাশ করেছেন বিজেপি সভাপতি জে পি নাড্ডা, বিজেপি নেতা রাম মাধবও। হত্যাকারীর কড়া শাস্তি দাবি করেছে কংগ্রেসও। 

[আরও পড়ুন : কাশ্মীরে ফের সন্ত্রাসবাদী হামলা, জঙ্গিদের গুলিতে ঝাঁজরা বিজেপি নেতা ও তাঁর পরিবার]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement