BREAKING NEWS

০৫ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  রবিবার ২২ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

শাহিনবাগে গুলি চালিয়েছে আপ সদস্যই, দিল্লি পুলিশের দাবি ঘিরে তুঙ্গে তরজা

Published by: Paramita Paul |    Posted: February 5, 2020 8:57 am|    Updated: February 6, 2020 3:03 pm

Man who opened fire at Delhi's Shaheen Bagh is an AAP Member: Police.

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: শাহিনবাগে হামলা নিয়ে বিজেপির দাবিকেই স্বীকৃতি দিল দিল্লি পুলিশ। শাহিনবাগে গুলি চালানোয় ধৃত দুষ্কৃতী আম আদমি পার্টির সদস্য। প্রাথমিক তদন্তের পর এমনটাই জানিয়েছে কেন্দ্রের নিয়ন্ত্রণাধীন দিল্লি পুলিশ। তাঁদের দাবি, এর স্বপক্ষে একাধিক প্রমাণ রয়েছে। এদিকে দিল্লি নির্বাচনের আগে মাত্র তিনদিন বাকি। তার আগে পুলিশের দাবি ঘিরে তুঙ্গে রাজনৈতিক তরজা। আপের দাবি, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের অঙ্গুলিহেলনেই এমন তথ্য পেশ করছে দিল্লি পুলিশ। তবে তাঁদের এই দাবিকে আমল দিতে রাজি নয় বিজেপি।গেরুয়া শিবিরের পালটা দাবি, আপের স্বরূপ দেশবাসীর কাছে স্পষ্ট। 

প্রসঙ্গত, শনিবার শাহিনবাগে পুলিশের সামনেই গুলি চালিয়েছিল কপির গুজ্জর। সঙ্গে সঙ্গে তাকে হেফাজতে নেয় দিল্লি পুলিশ। এরপর একের পর এক তথ্য উঠে এসেছে। দিল্লি পুলিশের দাবি ছিল, শাহিনবাগ আন্দোলনের জেরে তীব্র যানজট হচ্ছিল। তাতেই বিরক্ত হয়ে গুলি চালিয়েছিল কপিল। কিন্তু মঙ্গলবার দিল্লির পুলিশের অপরাধ দমন শাখার তরফে চাঞ্চল্যকর দাবি করা হয়। জানা যায়, অভিযুক্ত কপিল গুজ্জর স্বীকার করেছে সে আপের সদস্য। এ প্রসঙ্গে অপরাধ দমন শাখার পদস্থ কর্তা রাজেশ দেও বলেন, “আমাদের প্রাথমিক তদন্তে, আমরা কপিলের ফোনের ছবির মাধ্যমে কিছু তথ্য জানতে পেরেছি। এমনকী সে জেরায় স্বীকারও করেছে যে এক বছর আগে কপিল ও তার বাবা আপে যোগ দিয়েছে।” পুলিশের আরও দাবি, ছবিতে, কপিলকে আপ নেতা সঞ্জয় সিং এবং অতিশির সঙ্গে দেখা গিয়েছে।

[আরও পড়ুন: ‘বাংলা পাকিস্তান হয়ে গিয়েছে’, লোকসভায় দাঁড়িয়ে রাজ্য সরকারকে বেনজির আক্রমণ লকেটের]

বলাইবাহুল্য দিন তিনেক বাদেই দিল্লি বিধানসভা নির্বাচন। এবার দিল্লি বিধানসভা নির্বাচনের অন্যতম ইস্যু হয়ে উঠেছে CAA ও NRC বিরোধী শাহিনবাগের প্রতিবাদ, বিক্ষোভ। ঠিক তার আগে দিল্লি পুলিশের দেওয়া এমন তথ্য নিয়ে তুঙ্গে উঠেছে রাজনৈতিক তরজা। দিল্লি পুলিশের অভিযোগ খারিজ করে আপ নেতা সঞ্জয় সিংয়ের অভিযোগ, দিল্লি পুলিশ বিজেপির হাতের পুতুল। অপরাধ দমন শাখার ডিসিপির রাজেশ দেও আদপে বিজেপির মুখপাত্র। তার উচিত বিজেপির প্রতীক নিয়ে ঘুরে বেড়ানো। নির্বাচনের আর মাত্র তিনদিন বাকি। যতটা পারে নোংরা রাজনীতি করে নিক ওঁরা।”

[আরও পড়ুন: ‘মহাত্মা গান্ধীর নাম করিনি’, বিতর্কিত মন্তব্যের জেরে সাফাই হেগড়ের]

পালটা আপের বিরুদ্ধে লাগাতার তোপ দেগেছেন বিজেপির হেভিওয়েট নেতারা। অরবিন্দ কেজরিওয়ালের বিরুদ্ধে “জঙ্গিদের বিরিয়ানি খাওয়ানো”র অভিযোগ তুলেছেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ, দিল্লির মুখ্যমন্ত্রীকে জঙ্গি বলে তোপ দেগেছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকড়। বিজেপি সভাপতি জেপি নাড্ডা বলেন, “ দিল্লি এবং দেশবাসী আপের নোংরামোর প্রমাণ পেয়েছে। রাজনৈতিক আশা পূরণের জন্য দেশের নিরাপত্তা বিকিয়ে দিচ্ছেন কেজরিওয়াল ও তাঁর দলের সদস্যরা। অতীতে, সেনাবাহিনীকে অপমান করতেন কেজরিওয়াল, এবং জঙ্গিদের সমর্থন করতেন। এখন তাঁর সঙ্গে এক জঙ্গির যোগ প্রকাশ পেয়েছে।”

 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে