BREAKING NEWS

২৫ বৈশাখ  ১৪২৮  রবিবার ৯ মে ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

পাটনার ২ হাসপাতালে করোনা আক্রান্ত পাঁচশোর বেশি স্বাস্থ্যকর্মী, বেহাল পরিষেবা

Published by: Arupkanti Bera |    Posted: April 22, 2021 7:34 pm|    Updated: April 22, 2021 7:49 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রতিদিন করোনার (Corona Virus) দ্বিতীয় ঢেউ শক্তি বাড়িয়েই চলেছে। করোনা রোগীর চাপে দেশের স্বাস্থ্য ব্যবস্থার নাভিশ্বাস উঠছে। তার উপর শয়ে শয়ে চিকিৎসক, নার্স, হাসপাতালের অন্য চিকিৎসা কর্মীর করোনা আক্রান্ত হওয়ায় খবর সামনে আসছে। আর তার ফলে চিকিৎসা পরিষেবায় দিন দিন চাপ বাড়ছে। ভয়াবহ পরিস্থিতি পাটনাতেও (Patna)।

পাটনার এইমস এবং পাটনা মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালের প্রায় ৫০০ জনের করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবর সামনে এসেছে। তাঁদের করোনা টেস্ট পজিটিভ এসেছে। এই দু’টিই পাটনার সব থেকে বড় হাসপাতাল। পাটনা এইমসের মেডিক্যাল সুপারিনটেনডেন্ট সিএম সিং-কে উদ্ধৃত করে সংবাদ সংস্থা পিটিআই জানিয়েছে, হাসপাতালের ৩৮৪ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে চিকিৎসক, নার্স, সাফাই কর্মীও রয়েছেন। পাটনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের সুপারিনটেনডেন্ট ইন্দু শেখর ঠাকুর জানিয়েছেন, তাঁদের হাসপাতালে ১২৫ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। তার মধ্যে চিকিৎসক রয়েছেন ৭০ জন। বাকি ৫৫ জন নার্স এবং অন্য কর্মী রয়েছেন। আক্রান্তদের বেশিরভাগই হোম আইসোলেশনে রয়েছেন।

[আরও পড়ুন: আকালের মধ্যেই হরিয়ানার হাসপাতাল থেকে চুরি গেল ১৭৭০ ডোজ ভ্যাকসিন, অব্যবস্থা হরিয়ানায়]

পাটনার এই দুই হাসপাতালে উন্নতমানের করোনা চিকিৎসার সুযোগ সুবিধা রয়েছে। এখানেই সব থেকে বেশি করোনা রোগীর চিকিৎসা চলছে। এই পরিস্থিতিতে হাসপাতাল দু’টির ৫০০-র বেশি চিকিৎসক কর্মী করোনা পজিটিভ হওয়ার পরিষেবা দিতে সমস্যা হবে। একথা বলাইবাহুল্য। 

দেশের অন্য প্রান্তের মতো বিহারেও করোনার থাবা জাঁকিয়ে বসেছে। বুধবার বিহারে মোট ১২ হাজার ২২২ জন আক্রান্ত হয়েছেন বলে জানা গিয়েছে। মৃত্যু হয়েছে ৫৬ জনের। বিহারে এখনও পর্যন্ত মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৩ লাখ ৫৪ হাজার ২৮১ জন। মোট ১ হাজার ৮৯৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। বর্তমানে অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা ৬৩ হাজার ৭৪৫।

[আরও পড়ুন: ‘অক্সিজেন এবং টিকা সরবরাহে চাই জাতীয় পরিকল্পনা’, কেন্দ্রকে নির্দেশ সুপ্রিম কোর্টের]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement