১৯ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  সোমবার ৬ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘দেশের ভার নিরাপদ হাতেই রয়েছে’, প্রত্যাঘাতের পর দেশবাসীকে বার্তা প্রধানমন্ত্রীর

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: February 26, 2019 3:18 pm|    Updated: February 26, 2019 3:18 pm

PM addresses nation after India bombs PoK

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ‘এই সরকারের হাতে দেশ সুরক্ষিত। দেশবাসীকে সুরক্ষা দিতে পেরেছি। আজ সমস্ত শহিদদের মাথা ঝুঁকিয়ে প্রণাম জানানোর দিন।’ পুলওয়ামা হামলার যথাযথ প্রত্যাঘাত করে পাক অধিকৃত কাশ্মীরের জঙ্গিঘাঁটিগুলো গুঁড়িয়ে দেওয়ার পর দেশবাসীকে এমনই ভরসাযোগ্য কথা শোনালেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। মঙ্গলবার, রাজস্থানের চুরুর জনসভায় তাঁর প্রতিক্রিয়া, ‘প্রতিজ্ঞা করেছিলাম, ভারতের মাথা নত হতে দেব না। সেই প্রতিজ্ঞা রেখেছি।’ 

[ফিদায়েঁ হামলার আশঙ্কা থেকেই ‘এয়ার স্ট্রাইক’, ঘোষণা ভারতের]

১৪ ফেব্রুয়ারি পুলওয়ামায় নৃশংস জঙ্গি হামলায় ৪৯ জন সিআরপিএফ জওয়ান শহিদ হওয়ার ঘটনা সামনে আসতেই কারও বুঝতে বাকি ছিল না, এর নেপথ্যে প্রতিবেশী পাকিস্তানের কতটা মদত রয়েছে। তাকে যথাযথ শিক্ষা দেওয়ার দাবি উঠছিল বিভিন্ন মহলে, প্রতিশোধ চাই – স্লোগানে একসঙ্গে সুর মিলিয়েছিলেন গোটা ভারতবাসী। পরিস্থিতি সামলানোর সঙ্গে সঙ্গে প্রত্যাঘাতের নীল নকশাও তৈরি হতে শুরু হয়েছিল দিল্লির অন্দরে। নিজেদের মতো করে প্রস্তুতি নিচ্ছিল সেনাবাহিনীর প্রতিটি শাখা। একেবারে নিখুঁত পরিকল্পনার মাধ্যমে পালটা জবাব দেওয়া শুধু সঠিক সময়ের অপেক্ষা ছিল। মঙ্গলবার ভোররাতে সেই নির্দিষ্ট সময়ে ভারতীয় বায়ুসেনা পাক অধিকৃত কাশ্মীরে নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর বিমান অভিযান চালায়। জইশ, লস্কর, হিজবুল-সহ একাধিক জঙ্গিঘাঁটি ধ্বংস হওয়ায় কমবেশি ৩৫০ জঙ্গির মৃত্যু হয়েছে। পুলওয়ামা হামলার পর পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান বিবৃতি দিতে গিয়ে প্রায় হুমকির সুরেই বলেছিলেন, ‘এটা নয়া পাকিস্তান। হামলা হলে, পালটা জবাবও দেওয়া হবে।’  এদিন রাজস্থানের সভা থেকে ইমরানের সেদিনের বিবৃতির জবাবও দিয়ে দিলেন নরেন্দ্র মোদি। ‘নয়া পাকিস্তান’-এর পালটায় তিনি স্লোগান তুললেন – ‘মজবুত ভারত’।

[পাকিস্তানের ত্রাস কারগিলের ‘হিরো’ মিরাজ, জেনে নিন বিমানটি সম্পর্কে] 

দেশের শহিদ জওয়ানদের শ্রদ্ধা জানিয়ে, দেশবাসীকে আরও উজ্জীবিত করতে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য, ‘দেশ জাগছে, প্রত্যেক ভারতবাসীর জয় হবেই। নতুন করে ফের কাজ শুরু করতে হবে। কোথাও থামলে চলবে না।’ ভারতীয় বায়ুসেনার এত বড় সাফল্য এদিন সেই শহিদদের উদ্দেশে উৎসর্গ করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। আর নিজেকে ‘প্রধান সেবক’-এর পরিচয় দিয়ে দেশের প্রতি নিজের ভূমিকার কথাও স্পষ্টভাবেই ব্যক্ত করেছেন। তাঁর কথায়, ‘আমার কাছে নিজের চেয়ে দল বড়, দলের চেয়েও বড় দেশ। তাই এক নাগাড়ে দেশের সেবা করে যাচ্ছি। জয় জওয়ান, জয় কিষাণ, জয় বিজ্ঞান – এই ভাবনা নিয়ে এগোচ্ছি।’ এদিন চুরুতে প্রধানমন্ত্রীর মঞ্চ সাজানো ছিল পুলওয়ামার শহিদদের ছবিতে। রাজনৈতিক মতবিরোধ নির্বিশেষে পাকিস্তানকে ভারতীয় বায়ুসেনার এই জবাবকে সকলে স্বাগত জানালেও, কেন্দ্রের ক্ষমতাসীন দল এর কৃতিত্ব নিতে চাইবেই। আর তাই প্রধানমন্ত্রী অন্য কোথাও নয়, রাজস্থানের জনসভা থেকেই এনিয়ে বিবৃতি দিয়ে গেলেন।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে