BREAKING NEWS

৭ আশ্বিন  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

মহার্ঘ ৩২ সেকেন্ডের মধ্যেই রাম মন্দিরের প্রথম ইট গাঁথতে হবে প্রধানমন্ত্রীকে

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: August 5, 2020 12:01 pm|    Updated: August 5, 2020 4:08 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: পাঁচ শতকের বিতর্কের অবসান। অযোধ্যায় তৈরি হচ্ছে রাম মন্দির। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির হাত দিয়েই ঐতিহাসিক রাম মন্দিরের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন হবে। তবে ১২টা ৪৪ মিনিট ৮ সেকেন্ড হওয়া মাত্রই মন্ত্রপূত ইট স্থাপন করে ফেলতে হবে প্রধানমন্ত্রীকে৷ এর জন্য মাত্র ৩২ সেকেন্ড সময় পাবেন তিনি। ১২টা ৪৪ মিনিট ৪০ সেকেন্ড হওয়ার আগেই সেরে ফেলতে হবে রাম মন্দিরের প্রথম ইট স্থাপনা পর্ব৷ কারণ, শাস্ত্রমতে এই ৩২ সেকেন্ডই স্থায়ী হবে সব থেকে বেশি শুভ ‘চক্র সুদর্শন মুহূর্ত’৷

বুধবার, করোনা পরিস্থিতিতে সবরকম সতর্কতা অবলম্বন করে শুরু আয়োজন করা হয়েছে ভূমিপুজোর। গোটা অযোধ্যা শহর মুড়ে ফেলা হয়েছে নিরাপত্তার চাদরে। প্রধানমন্ত্রী ছাড়াও ভূমিপুজোর অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকছেন রাম জন্মভূমি তীর্থক্ষেত্রে ট্রাস্টের চেয়ারম্যান নিত্যগোপাল দাস, আরএসএস প্রধান মোহন ভাগবত, উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ এবং উত্তরপ্রদেশের রাজ্যপাল আনন্দিবেন প্যাটেল। এদিকে, শাস্ত্র মতে মহার্ঘ ৩২ সেকেন্ডের মধ্যেই যাতে প্রধানমন্ত্রীর ইট স্থাপন করে ফেলতে পারেন তা নিশ্চিত করতে সমস্ত ব্যবস্থা সেরে ফেলা হয়েছে৷ ভূমিপুজোর সঙ্গে যুক্ত পুরোহিতরা আগে থেকে সব ব্যবস্থা করে রেখেছেন৷ মন্ত্রপূত ইটটি শুদ্ধ করে চন্দন লাগিয়ে রাখা হয়েছে৷ হনুমানগড়িতে মিনিট দশেক সময় কাটিয়ে ইতিমধ্যে প্রধানমন্ত্রী রাম মন্দিরের ভূমিপুজোর স্থলে চলে এসেছেন৷ প্রথমেই তিনি রামলালার দর্শন ও পুজো করবেন৷ দুপুর সাড়ে বারোটায় শুরু হবে ভূমিপূজন৷ রাম জন্মভূমি তীর্থক্ষেত্র ট্রাস্ট সূত্রে জানা গিয়েছে, পবিত্রতা বজায় রাখার ব্রত পালন করবেন নরেন্দ্র মোদী৷ আজ পুজো শেষ না-হওয়া পর্যন্ত তিনি নির্জলা উপবাস করবেন বলেও দাবি করা হয়েছে ট্রাস্টের সঙ্গে যুক্ত মহন্তদের তরফে৷

উল্লেখ্য, ২৮ বছর পর এই প্রথমবার অযোধ্যার মাটিতে পা পড়ল প্রধানমন্ত্রীর। তাঁকে স্বাগত জানালেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। সব মিলিয়ে তুমুল উৎসাহ দেখা যাচ্ছে অযোধ্যায়। গত দেশেও এই ঐতিহাসিক মুহূর্তটি নিয়ে উত্তেজনা ও আনন্দের জোয়ার বইছে। পুরি-ওড়িশা-খ্যাত বালি শিল্পী সুদর্শন পট্টনায়েক ওড়িশার পুরী সৈকতে রাম মন্দিরের ভূমি পূজা উপলক্ষে একটি বালির ভাস্কর্য তৈরি করেছেন।

[আরও পড়ুন: মোদির অনেক আগেই রাম মন্দিরের শিলান্যাস হয়েছিল রাজীব গান্ধীর আমলে, দাবি কংগ্রেসের]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement