৪ আশ্বিন  ১৪২৮  মঙ্গলবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

পাঞ্জাবে সিধুর অভিষেক সভায় কোভিড বিধি না মানার অভিযোগ, দায়ের হল FIR

Published by: Biswadip Dey |    Posted: July 24, 2021 6:36 pm|    Updated: July 24, 2021 6:36 pm

Police case filed for violation of Covid guidelines at Navjot Sidhu event | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: পাঞ্জাব (Punjab) কংগ্রেসের অন্দরের বিবাদ মিটতে না মিটতেই এবার অভিযোগ উঠল কংগ্রেস সভাপতি হিসেবে নভজ্যোৎ সিং সিধুর (Navjot Sidhu) অভিষেকের সভায় করোনা বিধি (COVID guidlines) না মানার। চণ্ডীগড় পুলিশ ইতিমধ্যেই একটি এফআইআর দায়ের করেছে। শনিবার পুলিশের তরফে জানিয়ে দেওয়া হল, ভারতীয় দণ্ডবিধির ১৮৮ ধারা ও বিপর্যয় মোকাবিলা আইন অনুযায়ী অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তিদের বিরুদ্ধেঅভিযোগ আনা হয়েছে।

অভিযোগ, সভায় পাঞ্জাবের বিভিন্ন জেলা থেকে বহু মানুষ এসেছিলেন। তাঁরা পাঞ্জাব কংগ্রেস ভবনে জমায়েত হওয়ার সময় কোনও রকম করোনা বিধি মানেননি। সামাজিক দূরত্ব না মেনে গা ঘেঁষাঘেঁষি করে বসা ছাড়াও তাঁদের অধিকাংশের মুখেই মাস্কও ছিল না বলে পুলিশ জানিয়েছে।

[আরও পড়ুন: জল্পনার অবসান, প্রসার ভারতীর প্রাক্তন CEO জহর সরকারকে রাজ্যসভায় পাঠাচ্ছে TMC]

প্রসঙ্গত, শুক্রবার পাঞ্জাব প্রদেশ কংগ্রেসের সভাপতি হিসাবে দায়িত্ব নেন সিধু। বিবাদ ভুলে ওই দিন সিধুর অভিষেকের মঞ্চে হাজির ছিলেন মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিংও (Amarinder Singh)।

দলে সিধুর এই বিরাট উত্তরণ নিয়ে গত কয়েক মাস ধরেই টানাপোড়েন চলছিল পাঞ্জাব কংগ্রেসের (Punjab Congress) অন্দরে। মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং সিধুর এই উত্তরণ মানতে পারছিলেন না। হাই কম্যান্ডের কাছে সিধুর আচরণ নিয়ে নালিশও জানিয়েছিলেন। এমনকী সোনিয়া গান্ধী সিধুকে প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি ঘোষণা করার পরও ক্যাপ্টেন জানিয়েছিলেন, যতক্ষণ না সিধু তাঁর কাছে জনসমক্ষে ক্ষমা চাইছেন, ততক্ষণ তাঁর সঙ্গে দেখা পর্যন্ত করবেন না।

কিন্তু বৃহস্পতিবার সম্পর্কের বরফ গলে। সিধুই নিজে থেকে তাঁর দায়িত্ব নেওয়ার অনুষ্ঠানে হাজির থাকতে অনুরোধ করেন মুখ্যমন্ত্রীকে। চিঠি দিয়ে জানান, কারও সঙ্গে তাঁর ব্যক্তিগত শত্রুতা নেই। তিনি মানুষের সমস্যার কথা তুলে ধরতে চান। এবং মানুষের জন্য কাজ করতে চান। পাঞ্জাব কংগ্রেসের সবচেয়ে বয়োজ্যেষ্ঠ সদস্য হিসাবে ক্যাপ্টেন যেন তাঁকে আশীর্বাদ করে যান। সিধুর চিঠি পাওয়ার পরই মুখ্যমন্ত্রী দলের সব বিধায়ক, সাংসদ এবং পদাধিকারীদের চা চক্রে আমন্ত্রণ জানান।

[আরও পড়ুন: আমেরিকা-চিনের মতো ধনী হতে পারবে ভারতও, শিখর ছোঁয়ার হদিশ দিলেন Mukesh Ambani]

বহুলচর্চিত এই অনুষ্ঠানে যোগ দিতে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে হাজার হাজার মানুষ উপস্থিত হন। দেখা যায়, ভিড়ের মধ্যে সামাজিক দূরত্ব মানা কিংবা মাস্ক না পরার মতো কোভিড বিধি কেউই মেনে চলছেন না। অবশেষে দায়ের হল এফআইআরও।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

×