৯ অগ্রহায়ণ  ১৪২৯  শনিবার ২৬ নভেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের আগে বিরোধী শিবিরে ভাঙন ধরাচ্ছে বিজেপি! উঠছে অনৈতিকতার অভিযোগ

Published by: Biswadip Dey |    Posted: July 16, 2022 11:54 am|    Updated: July 16, 2022 11:54 am

Presidential Polls: BJP plotting to divide opposition। Sangbad Pratidin

বুদ্ধদেব সেনগুপ্ত, নয়াদিল্লি: দু’দিন পরেই দেশের সাংবিধানিক প্রধান নির্বাচন। দিন যতই এগোচ্ছে ততই বিরোধী শিবিরে ভাঙন ধরাতে সক্রিয়তা বাড়াচ্ছে গেরুয়া (BJP) শিবির। প্রতিদিনই কোনও না কোনও দল বিরোধী শিবির ছেড়ে বিজেপি প্রার্থী দ্রৌপদী মুর্মুকে সমর্থনের সিদ্ধান্ত ঘোষণা করছে। যদিও রাষ্ট্রপতি নির্বাচনেও পদ্ম শিবিরের বিরুদ্ধে ‘ঘোড়া কেনাবেচা’র অভিযোগ করেছেন বিরোধী শিবিরের প্রার্থী যশবন্ত সিনহা (Yashwant Sinha)। আদিবাসী প্রার্থীকে সামনে রেখে কেন্দ্রের শাসকদল অনৈতিক পথ নিচ্ছে বলে অভিযোগ যশবন্তর। রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের পদপ্রার্থী নিয়ে আলোচনায় বিরোধী দলগুলির বৈঠকে থাকা দলের সিদ্ধান্ত বদলে হতবাক রাজনৈতিক মহল।

প্রার্থী চূড়ান্ত করতে এক সপ্তাহে দু’টি বৈঠক করে বিরোধীরা। প্রথমে ১৫ জুন, তারপর ২১ জুন। দ্বিতীয় বৈঠকেই রাষ্ট্রপতি পদপ্রার্থী হিসাবে যশবন্ত সিনহার নাম ঘোষণা করে বিরোধীরা। বিরোধীদের দু’টি বৈঠকেই হাজির থাকে উদ্ধব ঠাকরের শিবসেনার প্রতিনিধি। তারপরে মহারাষ্ট্রের রাজনীতিতে পট পরিবর্তন হয়। ক্ষমতাচ্যুত হন উদ্ধব। একনাথ শিণ্ডের নেতৃত্বে একের পর এক শিবসেনা (Shiv Sena) বিধায়ক বিদ্রোহ করে। বিজেপির সমর্থনে মুখ্যমন্ত্রীর কুরসি দখল করেন শিণ্ডে। বিধায়কদের বিদ্রোহে শঙ্কিত হয়ে পড়েন উদ্ধব। দলের সাংসদদের ধরে রাখতে বিরোধী শিবির ছেড়ে দ্রৌপদী মুর্মুকে (Draupadi Murmu) সমর্থনের সিদ্ধান্ত নেন।

[আরও পড়ুন: কেন অশোকস্তম্ভকেই বেছে নেওয়া হয়েছিল জাতীয় প্রতীক হিসেবে? জানুন ইতিহাস]

রাজনৈতিক পট পরিবর্তন না হলেও ভবিষ্যৎ রাজনীতির স্বার্থে বিজেপি প্রার্থীকে সমর্থন করবে বলে জানিয়েছে ঝাড়খণ্ড মুক্তি মোর্চা। আগেই দ্রৌপদীকে সমর্থনের কথা জানান অখিলেশ যাদবের কাকা শিবপাল যাদব। ফের অখিলেশ শিবিরে ভাঙন। সমাজবাদী পার্টির সঙ্গে জোটে থাকা ভারতীয় সমাজ পার্টি। দলের শীর্ষনেতা ওমপ্রকাশ রাজবর গেরুয়া শিবিরের প্রার্থীকে সমর্থন করবেন বলে জানান। অখিলেশকে সিদ্ধান্তের কথাও জানিয়ে দেন।

রাষ্ট্রপতি নির্বাচন নিয়ে উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের সঙ্গে তাঁর কথা হয়েছে। যোগী তাঁকে বলেন, আপনার দল সমাজে পিছিয়ে পড়া জনজাতির কল্যাণে কাজ করে। আপনারা বিজেপি প্রার্থীকে সমর্থন করুন। এরপর স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহর সঙ্গেও তাঁর কথা হয় বলে জানান ওমপ্রকাশ রাজবর। যদিও একের পর দলের শিবির ছেড়ে চলে যাওয়ার বিষয়টিকে ভালভাবে নিচ্ছে না বিরোধী জোটের শীর্ষনেতৃত্ব। আজ শনিবার এনসিপি নেতা শরদ পাওয়ারের ডাকে রাজধানীতে বৈঠকে বসছে বিরোধীরা। সেখানে বিষয়টি আলোচনা হবে বলে সূত্রের খবর।

[আরও পড়ুন: জ্ঞানবাপীর শিবলিঙ্গে প্রার্থনার আবেদন জানিয়ে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ কৃষ্ণভক্ত সংগঠন]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে