২২ আষাঢ়  ১৪২৭  মঙ্গলবার ৭ জুলাই ২০২০ 

Advertisement

মদ ভেবে ভুলবশত স্যানিটাইজার খেয়ে প্রাণ গেল জেলবন্দির

Published by: Sulaya Singha |    Posted: March 27, 2020 11:56 am|    Updated: March 27, 2020 11:56 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভাগ্যের কী করুন পরিণতি। যে হ্যান্ড স্যানিটাইজার এখন করোনা মোকাবিলায় বিশ্ববাসীর কাছে সঞ্জীবনী বুটি হয়ে উঠেছে, সেই স্যানিটাইজারই প্রাণ নিল এক জেলবন্দির। মদ ভেবে ভুল করে স্যানিটাইজার খেয়ে ফেলাতেই ঘটে বিপত্তি।

ঘটনা কেরলের পালাক্করের। জেল কর্তৃপক্ষের তরফে জানানো হয়েছে, গত ১৮ ফেব্রুয়ারি থেকে রিমান্ডে কারাবন্দি ছিল রমনকুট্টি নামের ওই ব্যক্তি। গত বুধবার জেলের মধ্যেই হঠাৎ জ্ঞান হারান তিনি। সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে স্থানীয় হাসপাতালে ভরতি করা হয়। বৃহস্পতিবার সেখানেই চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। এক উচ্চপদস্থ জেল আধিকারিকের মতে, “রাজ্য সরকারের নির্দেশে এখন জেলের মধ্যে কয়েদিদের দিয়ে স্যানিটাইজার তৈরি করানো হচ্ছে। করোনা মোকাবিলার জন্যই এই উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। এটি তৈরিতে রাবিং অ্যালকোহলও ব্যবহার করা হচ্ছে। আমাদের মনে হয়, মদ ভেবে সেই স্যানিটাইজারই পান করে ফেলে বন্দি রমনকুট্টি। তার তাতেই এই ঘটনা ঘটে।” মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে।

[আরও পড়ুন: ভারতীয় আয়ুর্বেদেই করোনামুক্তি চিনে, একই পথে হাঁটছে ভারত সরকার]

ঘটনার আগে পর্যন্ত অর্থাৎ মঙ্গলবার রাতেও জেলবন্দি শারীরিকভাবে একেবারে সুস্থই ছিল বলে জানাচ্ছে জেল কর্তৃপক্ষ। কিন্তু পরের দিন সকালেই চেতনা হারায় সে। এমন ঘটনার পর আরও কড়া হয়েছে জেল প্রশাসন। ঘটনায় ইতিমধ্যেই লিখিত অভিযোগ দায়ের হয়েছে। গোটা বিষয়টি খতিয়ে দেখতে তদন্তে নেমেছে পুলিশ। তবে ময়নাতদন্তের রিপোর্ট আসার পরই মৃত্যুর কারণ স্পষ্ট হবে বলে জানিয়েছে তারা।

উল্লেখ্য, গোটা বিশ্বে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা এখনও বাড়ছে। পাঁচ লক্ষেরও বেশি মানুষ এই ভাইরাসের শিকার। ভারতেও আক্রান্তের সংখ্যা সাতশো ছাড়িয়েছে। করোনা রুখতে জনসাধারণকে মাস্ক ও স্যানিটাইজার ব্যবহারের কথা বলেছেন প্রতিটি রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী। আর তাতেই দেশজুড়ে এই দুটি জিনিসের আকাল দেখা দিয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে স্যানিটাইজারের যোগান বাড়াতে মরিয়া প্রশাসন। সেই কারণেই কয়েদিদেরও এ কাজে নিযুক্ত করা হয়েছে কেরলে।

[আরও পড়ুন: লকডাউনে সবজির গাড়িতে ব্যাপক ভাঙচুর, ভাইরাল পুলিশকর্মীর ‘দাদাগিরি’]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement