৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  বুধবার ২০ নভেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  বুধবার ২০ নভেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: PUBG খেলার জন্য বাড়ির লোকের কাছে ভাল স্মার্টফোনের আবদার করেছিলেন ১৮ বছরের তরুণ। কিন্তু তা না মেলাতেই ঘটল নির্মম পরিণতি। আত্মঘাতী হলেন তরুণ।

মৃত তরুণের বাড়ি মুম্বইয়ের কুরলার নেহরুনগর এলাকায়। বন্ধুরা বেশিরভাগ সময়ই PUBG খেলায় ব্যস্ত থাকেন। গল্পে, আলোচনায় বারবারই উঠে আসে জনপ্রিয় এই মোবাইল গেমের কথাই। তাই বন্ধুদের দেখে তরুণেরও PUBG খেলার শখ হয়েছিল। কিন্তু উপায় ছিল না। কারণ তাঁর কাছে ভাল কোনও স্মার্টফোন নেই। তাই পরিবারের কাছে দামী স্মার্টফোন চেয়েছিলেন তিনি। আবদার ছিল, ৩৭ হাজার টাকা দিয়ে ফোন কিনে দিতে হবে। যে মোবাইলে বন্ধুদের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে খেলা যাবে PUBG। কিন্তু বাড়ির লোকেরা ছেলের এমন আবদারে সাড়া দেননি। যদিও ২০ হাজার টাকার মধ্যে স্মার্টফোন কিনে দিতে রাজি হন তাঁরা। কিন্তু তাতে মন ভরেনি তরুণের। রাগে ও হতাশাতেই ঘটে চরম পরিণতি। বাড়ির রান্নাঘরের সিলিং থেকে গলায় ফাঁস দিয়ে ঝুলে আত্মঘাতী হন তিনি। ঘটনার তদন্তে নামে পুলিশ। তবে বিষয়টি আত্মহত্যা নাকি মৃত্যুর পিছনে অন্য কোনও কারণ রয়েছে, তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

যতদিন যাচ্ছে ততই সমাজে বাড়ছে PUBG মোবাইল গেমের প্রকোপ। যুব প্রজন্মের মধ্যে এই খেলার আসক্তি বেড়েই চলেছে। অনলাইনে একসঙ্গে খেলা যায় রহস্য, রোমাঞ্চ-অ্যাকশনে ভরা এই গেম। একের পর এক টার্গেট পূরণ হলেই মুখে হাসি ফোটে ‘যোদ্ধা’র। কিন্তু এই গেম নিয়ে ক্ষোভও বাড়ছে। ইতিমধ্যেই গেমটি নিষিদ্ধ করার দাবিও উঠেছে। এতে ছাত্রছাত্রীদের পরীক্ষার ফল খারাপ হচ্ছে বলে অভিযোগ ওঠে। সম্প্রতি ১১ বছরের এক কিশোরও তার মায়ের মাধ্যমে মুম্বই হাই কোর্টে মামলা দায়ের করে। তার অভিযোগ, এই অনলাইন গেম অল্প বয়সি ছেলে-মেয়েদের মধ্যে হিংসা প্রবৃত্তি ছড়িয়ে দিচ্ছে। এবার তরুণের আত্মহত্যার ঘটনায় PUBG নিয়ে ক্ষোভ আরও বাড়ল।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং