১৮ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  রবিবার ৫ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

দেশের চাকরির বাজারে বড়সড় সংকট আসতে চলেছে, কেন্দ্রকে সতর্ক করলেন রাহুল গান্ধী

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: August 20, 2020 5:49 pm|    Updated: August 20, 2020 5:49 pm

Rahul Gandhi again attacks govt over Unemployment

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দেশের চাকরির বাজারে বড়সড় সংকট আসতে চলেছে। ভারত সরকার যুবসমাজের জন্য চাকরির ব্যবস্থা করতে পারবে না। করোনা আবহে বেকার সমস্যা নিয়ে ফের সতর্ক করলেন প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী (Rahul Gandhi)। রাহুলের দাবি, করোনা নিয়ে তাঁর করা ভবিষ্যদ্বাণী আজ বাস্তবে পরিণত হয়েছে। বেকার সমস্যা নিয়ে তিনি আজ যা বলছেন, সেটাও আজ থেকে ৬-৭ মাস পর বাস্তব হতে চলেছে।

বস্তুত, সেন্টার ফর মনিটরিং ইন্ডিয়ান ইকোনমির (CMIE) তথ্য অনুযায়ী, লকডাউনের চার মাসে শুধু সংগঠিত ক্ষেত্রেই প্রায় দেশের ১ কোটি ৮০ মানুষ কাজ হারিয়েছেন। এর মধ্যে শুধু জুলাই মাসেই কাজ হারিয়েছেন প্রায় ৫০ লক্ষ মানুষ। অসংগঠিত ক্ষেত্রে কর্মহীন হয়েছেন আরও লক্ষ লক্ষ মানুষ। দেশের বেকারত্বের এই ছবি নিয়ে শুরু থেকেই সরব প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি। বৃহস্পতিবার তিনি সরকারকে একপ্রকার হুঁশিয়ারি দিয়ে দাবি করলেন,আগামী দিনে কর্মসংস্থানের পরিস্থিতি আরও খারাপ হতে চলেছে। রাহুলের কথায়,”আগামী দিনে ভারত সরকার যুব সমাজকে চাকরি দিতে পারবে না। আমি যখন বলেছিলাম করোনায় ভারত বিপুলভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হতে চলেছে। তখন সংবাদমাধ্যম আমাকে নিয়ে রসিকতা করেছিল। এখন আমি বলছি, ভারত সরকার নিজেদের যুবসমাজকে চাকরি দিতে পারবে না। বিশ্বাস না হলে ৬-৭ মাস অপেক্ষা করুন।”

[আরও পড়ুন: ‘শাস্তি পেতে রাজি’, আদালত অবমাননার মামলায় ক্ষমা চাইতে নারাজ আইনজীবী প্রশান্ত ভূষণ]

বস্তুত করোনা পরিস্থিতিতে শুরু থেকেই সোশ্যাল মিডিয়ায় সক্রিয় রাহুল। সেই ফেব্রুয়ারি মাসে এই ভাইরাসের ক্ষতিকর প্রভাব নিয়ে সতর্ক করেছিলেন তিনি। যদিও সরকার তাতে কান দেয়নি। ফল এখন ভুগতে হচ্ছে হাতেনাতে। রাহুলের দাবি ছিল, করোনা ভারতের স্বাস্থ্যব্যবস্থা এবং অর্থনীতির জন্য বড় বিপদ বয়ে আনছে। প্রাক্তন কংগ্রেস (Congress) সভাপতির সেই দাবি যে নেহাত অমূলক ছিল না, সেটা আজকের পরিস্থিতি দেখলেই বোঝা যায়।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে