২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২০ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

পাঁচ বছরে মোদির বিদেশ সফরে খরচ ৫১৭ কোটি, সংসদে জানাল কেন্দ্র

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: September 22, 2020 6:08 pm|    Updated: September 22, 2020 6:08 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ঘনঘন বিদেশ সফরের কারণে বিভিন্ন সময়ে বিরোধীদের কটাক্ষ শুনতে হয়েছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে। মঙ্গলবার রাজ্যসভায় এই সংক্রান্ত একটি প্রশ্নের উত্তর দিতে গিয়ে বিদেশ মন্ত্রকের রাষ্ট্রমন্ত্রী ভি মুরলীধরণ জানালেন, ২০১৫ সাল থেকে গত পাঁচ বছরে ৫৮টি দেশে সফর করার জন্য প্রধানমন্ত্রীর পিছনে ৫১৭ কোটি ৮২ লক্ষ টাকা খরচ হয়েছে কেন্দ্রের। এরপরই এই বিষয় নিয়ে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। এই তথ্য বিরোধীদের হাতে নরেন্দ্র মোদিকে আক্রমণের নতুন অস্ত্র তুলে দিল বলে মত রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের।

মঙ্গলবার রাজ্যসভায় একটি লিখিত প্রশ্নের উত্তর দিতে গিয়ে বিদেশ মন্ত্রকের রাষ্ট্রমন্ত্রী ভি মুরলীধরণ (V Muraleedharan) বলেন, ‘২০১৫ সাল মার্চ থেকে ২০১৯ নভেম্বর পর্যন্ত মোট ৫৮টি দেশে ভ্রমণ করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi)। এর ফলে মোট খরচ হয়েছে ৫১৭ কোটি ৮২ লক্ষ টাকা।’

[আরও পড়ুন: কৃষি বিলের প্রতিবাদে গণ আন্দোলনের পথে কংগ্রেস, লোকসভা অধিবেশনও বয়কট বিরোধীদের ]

পাশাপাশি এই সময়ের মধ্যে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের সঙ্গে ভারতের নানা বিষয়ে চুক্তি হয়েছে বলে উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর বিদেশ সফরের ফলে বিভিন্ন দেশের সঙ্গে ব্যবসায়িক সম্পর্ক বৃদ্ধি পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ভারতে বিদেশি বিনিয়োগের পরিমাণ বেড়েছে। বিভিন্ন দেশের সঙ্গে তথ্যপ্রযুক্তি, মেধা, মহাকাশ ও প্রতিরক্ষা সংক্রান্ত বিষয়ে যৌথ উদ্যোগে অনেক কাজও শুরু হয়েছে। দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক দৃঢ় হওয়ার পাশাপাশি আঞ্চলিক ও বিশ্বের বিভিন্ন ইস্যুতে ভারতের মনোভাবের বিষয়ে বার্তা পৌঁছেছে অন্য দেশগুলির কাছে। ফলে ভারতের উন্নয়ন সংক্রান্ত ইস্যুর পাশাপাশি দেশের নাগরিকদের অর্থনৈতিক অবস্থা ও স্বাচ্ছন্দ্যের ক্ষেত্রে কিছুটা হলেও পরিবর্তন এসেছে।’

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, গত মার্চে লোকসভায় দাঁড়িয়ে এই বিষয়ে একটি পরিসংখ্যান দিয়েছিলেন বিদেশ মন্ত্রকের রাষ্ট্রমন্ত্রী ভি মুরলীধরণ। তাতে উল্লেখ করা হয়েছিল যে মোদির বিদেশ সফরের জন্য ২০১৫-১৬ সালে ১২১ কোটি ৮৫ লক্ষ, ২০১৬-১৭ সালে ৭৮ কোটি ৫২ লক্ষ, ২০১৭-১৮ সালে ৯৯ কোটি ৯০ লক্ষ, ২০১৮-১৯ সালে ১০০ কোটি ২ লক্ষ এবং ২০১৯-২০ সালে ৪৬ কোটি ২৩ টাকা খরচ হয়েছে।

[আরও পড়ুন: ভারতে করোনার ভ্যাকসিন আসতে পারে নতুন বছরের গোড়াতেই, দাবি শীর্ষস্থানীয় বিজ্ঞানীর]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement