১১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘বলিদান বৃথা যাবে না’, কাশ্মীরে ৩ বিজেপি কর্মীর মৃত্যুর পর হুঁশিয়ারি জেপি নাড্ডার

Published by: Biswadip Dey |    Posted: October 30, 2020 12:11 pm|    Updated: October 30, 2020 12:11 pm

'Sacrifice won't go in vain': BJP president JP Nadda vows to avenge BJP workers' killing in Kulgam | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্কবৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় দক্ষিণ কাশ্মীরের (Kashmir) কুলগামে (Kulgam) তিন বিজেপি (BJP) কর্মীকে গুলি করে খুন করেছে অজ্ঞাতপরিচয় জঙ্গিরা। শুক্রবার ওই ঘটনার তীব্র নিন্দা করে বিজেপি সভাপতি জেপি নাড্ডা (JP Nadda) গর্জে উঠেছেন। তার হুংকার, বিজেপি কর্মীদের বলিদান বৃথা যাবে না।

এদিন টুইট করে নাড্ডা লেখেন, ‘‘জম্মু ও কাশ্মীরের কুলগামে কাপুরুষোচিত হামলা চালিয়ে তিন নেতাকে খুন করেছে জঙ্গিরা। তাঁদের মধ্যে রয়েছেন জেলার বিজেপি যুব মোর্চার সাধারণ সম্পাদক ফিদা হুসেনও। এমন দেশভক্তদের মৃত্যু দেশের জন্য বিরাট ক্ষতি। সবাই নিহতদের পরিবারের পাশে রয়েছে। ওঁদের বলিদান বৃথা যাবে না। পরিবারগুলির প্রতি রইল সমবেদনা।’’ প্রসঙ্গত, ফিদা হুসেন ছাড়া বাকি দুই নিহত বিজেপি কর্মী হলেন উমর হাজাম ও হারুন রশিদ বেগ। 

[আরও পড়ুন: দেশে অ্যাকটিভ করোনা রোগী ৬ লক্ষেরও কম, স্পষ্ট সংক্রমণের গ্রাফ নিম্নমুখী হওয়ার ইঙ্গিত]

জেপি নাড্ডার পাশাপাশি জম্মু ও কাশ্মীরের বিজেপি সভাপতি রবিন্দর রায়নাও হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছেন, পাকিস্তানকে এর জন্য বড় মূল্য চোকাতে হবে। সংবাদ সংস্থা এএনআইকে ক্ষোভ উগরে দিয়ে তিনি জানান, ‘‘ওঁরা ছিলেন বিজেপির সাহসী কর্মী। তাঁরা ভারতমাতার জন্য শহিদ হয়েছেন। এই বলিদান বৃথা যাবে না। কাপুরুষ পাকিস্তানিদের এই পাপের জন্য বড় মূল্য চোকাতে হবে।’’ 

এর আগে বৃহস্পতিবার রাতেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিও  টুইট করে এই ঘটনার তীব্র নিন্দা করেন। তিনি লেখেন, ‘‘আমি এই তিনজন তরুণ কার্যকর্তার খুনের তীব্র নিন্দা করছি। ওঁরা ছিলেন উজ্জ্বল তারকা। জম্মু ও কাশ্মীরে অসাধারণ কাজ করছিলেন। এই শোকের সময়ে ওঁদের পরিবারের জন্য আমার সমবেদনা রইল। নিহতদের আত্মার শান্তি কামনা করি।’’

[আরও পড়ুন: চলতি বছরই তৈরি হয়ে যেতে পারে ‘কোভিশিল্ড’ ভ্যাকসিন, আশার কথা শোনাল সেরাম ইনস্টিটিউট]

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যাবেলায় ওয়াই কে পোরা এলাকায় অতর্কিতে হামলা চালায় কয়েকজন জঙ্গিরা। ওই তিন নেতাকে লক্ষ্য করে এলোপাথাড়ি গুলি ছুঁড়তে থাকে তারা। ঘটনাস্থলেই লুটিয়ে পড়েন তিন জন। এরপর স্থানীয় বাসিন্দারা তাড়াতাড়ি তাঁদের উদ্ধার করে কাজিগুন্দ হাসপাতালে নিয়ে যান। কিন্তু সেখানকার চিকিৎসকরা ওই তিন জনকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে