Advertisement
Advertisement

Breaking News

উদ্ধব সরকারের পুনর্বহাল সম্ভব নয়, রাজ্যপালকে তোপ দেগেও শিণ্ডেদের পক্ষে রায় সুপ্রিম কোর্টের

আপাতত স্বস্তিতে একনাথ শিণ্ডে সরকার।

SC says cannot reinstate Uddhav Thackeray as he did not take trust vote | Sangbad Pratidin
Published by: Subhajit Mandal
  • Posted:May 11, 2023 1:30 pm
  • Updated:May 11, 2023 1:40 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মহারাষ্ট্রের ক্ষমতা পুনর্দখলের লক্ষ্যে বড়সড় ধাক্কা খেলেন উদ্ধব ঠাকরে (Uddhav Thackaray)। সুপ্রিম কোর্ট জানাল, উদ্ধব ঠাকরে যেহেতু আস্থাভোটে অংশ না নিয়েই পদত্যাগ করেছিলেন, তাই তাঁর সরকারকে পুনর্বহাল করা সম্ভব নয়। যার অর্থ শিব সেনা ভেঙে বেরিয়ে যাওয়া একনাথ শিণ্ডের সরকার আপাতত বহাল থাকছে মহারাষ্ট্রে।

উল্লেখ্য, গত বছরের জুনে মহারাষ্ট্রের (Maharashtra) তৎকালীন মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধবের বিরুদ্ধে বিদ্রোহ করেন তাঁরই সহকর্মী একনাথ শিণ্ডে। পরে বিজেপির সঙ্গে হাত মিলিয়ে তিনি মুখ্যমন্ত্রী হন। নিজেদের আসল ‘শিব সেনা’ বলে দাবি করে দলীয় প্রতীক ব্যবহারের অনুমতি চান শিণ্ডে (Eknath Shinde)। নির্বাচন কমিশন সেই অনুমতি আগেই দিয়েছে। এদিকে উদ্ধবরা পালটা শিণ্ডেদের বিরুদ্ধে মামলা করেন শীর্ষ আদালতে। উদ্ধব শিবিরের বক্তব্য ছিল, শিণ্ডে যেভাবে শিব সেনা ভেঙে বেরিয়ে গিয়েছেন, সেটা বেআইনি। শিণ্ডে-সহ ১৬ জন বিধায়কের বিধায়ক পদ বাতিল হওয়া উচিত বলেও দাবি করেন উদ্ধব ঠাকরে।

Advertisement

[আরও পড়ুন: ‘গণতন্ত্রে প্রশাসনিক ক্ষমতা নির্বাচিত সরকারের হাতেই’, সুপ্রিম রায়ে হাসি ফুটল কেজরির মুখে]

বৃহস্পতিবার এই মামলার রায়ে শীর্ষ আদালত রাজ্যপালের ভূমিকার তীব্র সমালোচনা করেছে। সুপ্রিম কোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ বলছে, উপযুক্ত তথ্যপ্রমাণ না থাকা সত্ত্বেও রাজ্যপাল ধরেই নিয়েছিলেন যে উদ্ধব ঠাকরে বেশিরভাগ বিধায়কের সমর্থন হারিয়ে ফেলেছেন। রাজ্যপালের সেই ‘বিরাট’ ভুল আসলে ঘুরিয়ে সুবিধা দিয়েছিল শিণ্ডেদের, সেটা মেনে নিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। কিন্তু একই সঙ্গে শীর্ষ আদালত জানিয়ে দিয়েছে, উদ্ধব ঠাকরে যেহেতু কোনও আস্থাভোট ছাড়াই পদত্যাগ করেছিলেন, তাই তাঁর সরকার আর পুনর্বহাল করা সম্ভব নয়। যদি উদ্ধব ঠাকরে আস্থাভোটের আগে পদত্যাগ না করতেন, তাহলে তাঁর সরকার পুনর্বহাল করা হত বলেও এদিন জানিয়েছেন প্রধান বিচারপতি ডিওয়াই চন্দ্রচূড়। তবে একই সঙ্গে নতুন সরকার গঠন নিয়ে কোনও মন্তব্য করতে চায়নি শীর্ষ আদালত। আদালতের বক্তব্য, যতদিন না বৃহৎ কোনও বেঞ্চ এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিচ্ছে, ততদিন বিধায়কপদ বাতিল করার অধিকার শুধু স্পিকারের হাতেই থাকবে।

Advertisement

[আরও পড়ুন: হাই কোর্টের প্রধান বিচারপতির শপথে মুখোমুখি মমতা-শুভেন্দু, তবে হল না কথা]

শীর্ষ আদালতের এই রায়ে নিজেদের নৈতিক জয় দেখছে উদ্ধব শিবির। উদ্ধবের বিশ্বস্ত সেনাপতি সঞ্জয় রাউত বলছেন, সুপ্রিম রায়ে স্পষ্ট হয়ে গেল, মহারাষ্ট্রের এই সরকার অনৈতিক। শিণ্ডে সরকারের কোনও অধিকার নেই ক্ষমতায় থাকার। উদ্ধব শিবিরের দাবি, শীর্ষ আদালত মেনেই নিয়েছে একনাথ শিণ্ডে অনৈতিকভাবে ক্ষমতায় এসেছে। 

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ