BREAKING NEWS

২ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

১৭ মে’র পরে কী? লকডাউনের ভবিষ্যৎ নিয়ে প্রশ্ন সোনিয়া-মনমোহনের

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: May 6, 2020 5:01 pm|    Updated: May 6, 2020 5:01 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নয় নয় করে তিন দফায় মোট ৫৪ দিন লকডাউনের আওতায় থাকতে হচ্ছে ভারতকে। কিন্তু এখনও করোনা সংক্রমণের গতি নিয়ন্ত্রণে আসেনি। উলটে গত দুদিনে সংক্রমণ এবং মৃত্যু দুই সংখ্যাই উল্লেখযোগ্যভাবে বেড়েছে। আবার লকডাউনের জেরে আর্থিক ক্ষতিও চরম আকার নিচ্ছে। দেশে বেকারত্বের হার পৌঁছেছে ২৭ শতাংশে। এই পরিস্থিতিতে লকডাউন এভাবে চালানো হবে, নাকি সরকার কোনও বিকল্প ব্যাবস্থার কথা ভেবেছে? প্রশ্ন তুললেন কংগ্রেস সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী (Sonia Gandhi) এবং প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী ডঃ মনমোহন সিং (Manmohan Singh)।

বুধবার ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে কংগ্রেসশাসিত রাজ্যগুলির মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে করোনা পরিস্থিতি নিয়ে বৈঠক করেন সোনিয়া। বৈঠকে প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং, প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী পি চিদম্বরম, প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী (Rahul Gandhi)এবং কংগ্রেসের সাংগঠনিক সাধারণ সম্পাদক কে সি বেণুগোপাল উপস্থিত ছিলেন। সেখানেই দলের সভানেত্রী প্রশ্ন তোলেন সরকারের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা নিয়ে। সোনিয়াকে উদ্ধৃত করে কংগ্রেসের প্রধান মুখপাত্র রণদীপ সিং সুরজেওয়ালা এ কথা জানিয়েছেন। কংগ্রেস সভানেত্রী বৈঠকে বলেন,”১৭ মে’র পর কী? ১৭ মে’র পর কীভাবে? কীসের ভিত্তিতে সরকার ঠিক করছে, কতদিন লকডাউন রাখা হবে?” একই প্রশ্ন করেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংও। তিনি বলেন, সোনিয়াজির মতো আমরাও জানতে চাই সরকারের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা কী? ওই বৈঠকে উপস্থিত কংগ্রেসি মুখ্যমন্ত্রীরা ক্রমাগত লকডাউন বেড়ে চলায় রাজ্যের আর্থিক পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগপ্রকাশ করেন। এবং দ্রুত আর্থিক প্যাকেজেরও দাবি জানান তাঁরা।

[আরও পড়ুন: অর্থনীতি বাঁচাতে রাজ্যে থাকার আবেদন, পরিযায়ী শ্রমিকদের ট্রেন বাতিল করল কর্ণাটক]

উল্লেখ্য, গত ২৪ মার্চ দেশজুড়ে ২১ দিনের জন্য লকডাউন জারি করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। প্রথম দফার লকডাউন শেষ হওয়ার আগেই দ্বিতীয় দফার লকডাউন ঘোষণা করেন প্রধানমন্ত্রী। ৪০ দিন পর আরও ১৪ দিনের জন্য বাড়িয়ে দেওয়া হয় লকডাউনের মেয়াদ। ফলে সেই ২৫ মার্চ থেকেই দেশজুড়ে টানা লকডাউন চলছে। প্রধানমন্ত্রী দ্বিতীয় দফায় লকডাউনের মেয়াদ বাড়ানোর সিদ্ধান্ত জানাতেই তা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন তৃণমূলের রাজনৈতিক পরামর্শদাতা প্রশান্ত কিশোর।১৪ এপ্রিল এক টুইটে তিনি প্রধানমন্ত্রীর কাছে জানতে চান, ৩ মে’র পরও যদি সংক্রমণ না কমে, তাহলে সরকার আদৌ বিকল্প কোনও পরিকল্পনার কথা ভেবেছে কিনা? এতদিন বাদে সেই একই প্রশ্ন শোনা গেল সোনিয়া গান্ধী, মনমোহন সিংদের গলায়। যা কাকতালীয় হলেও তাৎপর্যপূর্ণ।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement