২২  শ্রাবণ  ১৪২৯  সোমবার ৮ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

মহারাষ্ট্রে আস্থাভোট বৃহস্পতিবারই, সুপ্রিম কোর্টে ধাক্কা উদ্ধব ঠাকরের

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: June 29, 2022 9:20 pm|    Updated: June 29, 2022 9:48 pm

Supreme Court gives go ahead to the floor test in the Maharashtra Assembly tomorrow | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আরও চাপে মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরে (Uddhav Thackeray)। বৃহস্পতিবারই বিধানসভায় আস্থাভোটের মাধ্যমে সংখ্যাগরিষ্ঠতার প্রমাণ দিতে হবে তাঁকে। এমনটাই জানিয়ে দিল সুপ্রিম কোর্ট। বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার সময় বিধানসভায় আস্থাভোট প্রক্রিয়া শুরু হবে। আস্থাভোট শেষ করতে হবে বিকেল ৫টার মধ্যে।

মহারাষ্ট্রের রাজ্যপাল ভগত সিং কোশিয়ারি বৃহস্পতিবারই আস্থাভোটের নির্দেশ দিয়েছেন। সেই নির্দেশের বিরোধিতা করে এদিন সুপ্রিম কোর্টের (Supreme Court) দ্বারস্থ হন উদ্ধব। তাঁর যুক্তি ছিল, ১৬ জন বিধায়কের বিধায়ক পদ বাতিলের মামলা এখনও শীর্ষ আদালতে বিচারাধীন। সুপ্রিম কোর্টই ১১ জুলাই পর্যন্ত এ বিষয়ে কোনওরকম পদক্ষেপ করতে নিষেধ করেছে। সেই মামলার ফয়সলা না হওয়া পর্যন্ত আস্থাভোট হতে পারে না। একনাথ শিণ্ডে (Eknath Shinde) শিবিরের পালটা বক্তব্য ছিল, বিধায়কদের বিধায়ক পদ বাতিলের মামলার সঙ্গে আস্থাভোটের কোনও সম্পর্ক নেই। এই সরকার সংখ্যাগরিষ্ঠতা হারিয়েছে বুঝতে পেরেই আস্থাভোটের বিরোধিতা করছে। বিদ্রোহীদের যুক্তি মেনে আস্থা ভোটের নির্দেশ দিয়েছে শীর্ষ আদালত।

[আরও পড়ুন: ইস্তফার আগে শেষ সিদ্ধান্ত? ঔরঙ্গাবাদের নাম বদলে শিবাজির ছেলের নামে করলেন উদ্ধব]

সুপ্রিম কোর্ট আস্থাভোটের নির্দেশ দেওয়ায় উদ্ধব ঠাকরের কাছে ইস্তফা দেওয়া ছাড়া আর কোনও রাস্তা খোলা নেই। কারণ সংখ্যাতত্ত্ব এই মুহূর্তে মহা বিকাশ আগাড়ির পক্ষে নেই। বিদ্রোহী বিধায়কদের সঙ্গ পেলে অনায়াসেই মহারাষ্ট্রের পরবর্তী সরকার গঠন করে ফেলতে পারবে বিজেপি। সেই প্রক্রিয়াও শুরু হয়ে গিয়েছে। রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী দেবেন্দ্র ফড়ণবিসের বাড়িতে বৈঠকে বসেছেন  বিজেপি বিধায়করা। যদিও শিব সেনার বিদ্রোহী শিবিরের বিধায়করা এখনও মুম্বই পৌঁছাননি। তাঁরা বৃহস্পতিবার আস্থা ভোটের আগেই বিধানসভায় যেতে পারেন বলে সূত্রের দাবি। এদিকে চাপের মুখে কিছুটা স্বস্তি পেয়েছে মহা বিকাশ আগাড়ি। এনসিপির দুই জেলবন্দি বিধায়ক নবাব মালিক এবং অনিল দেশমুখকে ভোটে অংশ নেওয়ার অনুমতি দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট।

[আরও পড়ুন: রাষ্ট্রপতি নির্বাচন নিয়ে তোড়জোড়ের মধ্যেই উপরাষ্ট্রপতি নির্বাচনের দিন ঘোষণা নির্বাচন কমিশনের]

তবে শিব সেনা সূত্রের খবর, উদ্ধব ঠাকরে আস্থা ভোটে যাবেন না। হয় বৃহস্পতিবার বিধানসভায় ভাষণ দেওয়ার পর বা অধিবেশন বসার আগেই রাজ্যপালের কাছে নিজের ইস্তফাপত্র পাঠিয়ে দিতে পারেন তিনি। সূত্রের দাবি, বুধবার মন্ত্রিসভার বৈঠকের শেষ তিন মিনিটে আবেগপ্রবণ উদ্ধব ঠাকরে নিজের ইস্তফার ইঙ্গিত দিয়েছেন। আড়াই বছর ধরে পাশে থাকার জন্য এনসিপি (NCP) এবং কংগ্রেসকে (Congress) ধন্যবাদ জানান তিনি। আগামী দিনেও তিনি একইরকম সাহায্য প্রার্থনা করেন বলেও জানিয়েছেন উদ্ধব। তাঁর ছেলে তথা মহারাষ্ট্রের মন্ত্রী আদিত্য ঠাকরেও ইঙ্গিত দিয়েছেন, সুপ্রিম কোর্টের রায় অনুকূলে না গেলে ইস্তফা দিতে পারেন উদ্ধব।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে