BREAKING NEWS

০৫ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  শুক্রবার ২০ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

দেবীর আদেশে নরবলির আবেদন তান্ত্রিকের, খোঁজ চালাচ্ছে পুলিশ

Published by: Utsab Roy Chowdhury |    Posted: February 2, 2019 4:51 pm|    Updated: February 2, 2019 4:51 pm

Tantrik writes letter for sacrifice of son

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দেবীকে প্রসন্ন করার জন্য নরবলির আবেদন করলেন তান্ত্রিক। একটি ভিডিওতে দেখা যায়, তান্ত্রিক এই আবেদন করছেন। শুধু তাই নয়। সাব ডিভিশনাল অফিসারকে চিঠি লিখেছেন। তারপর একটি ভিডিওতে আবেদন করে ওই তান্ত্রিক জানান, নরবলি কোনও অপরাধ নয়। ভিডিওতে বলতে শোনা যায়, প্রথমে নিজের ছেলেকেই নরবলি দিতে চান। তার ছেলে ইঞ্জিনিয়ার। এরপরই ভাইরাল হয়ে যায় ভিডিওটি। তদন্তে নেমেছে বিহার পুলিশ।

[কর ফাঁকি রুখতে রাজ্যেও এবার ইডি’র মতো সংস্থা]

বিহারের বেগানসরাইয়ের মোহনপুর পাহাড়পুর গ্রামের ঘটনা। তান্ত্রিকের নাম সুরেন্দ্র প্রসাদ সিং। গ্রামে পাগলাবাবা বলে পরিচিত। হাতে মরার খুলি, উলঙ্গ হয়ে ঘুরে বেড়ান। তন্ত্রসাধনার জন্য পড়ে থাকেন শ্মশানে। কী করেন, কেউ জানে না। সাব ডিভিশনাল অফিসারকে লেখা ওই তান্ত্রিকের চিঠি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে। এসডিও সঞ্জীব কুমার চৌধুরি বলেন, তিনি ওই চিঠি হাতে পাননি। কিন্তু এটা খুব মারাত্মক একটি বিষয়। নরবলি সব সময় বেআইনি। আমরা চিঠিটা হাতে পাওয়ার জন্য মরিয়া চেষ্টা করছি।

[সহপাঠীকে মেরে রক্তপান, হাসপাতালে চিকিৎসক সেজে ধৃত ‘ভ্যাম্পায়ার’]

ভিডিওতে সুরেন্দ্র প্রসাদ সিংকে বলতে শোনা যায়, “নরবলি কোনও অপরাধ নয়। দেবী কামাক্ষা আমাকে এই নরবলির নির্দেশ দিয়েছেন। আমি প্রথম নিজের ছেলেকেই বলি দিতে চাই। সে পেশায় ইঞ্জিনিয়ার। আমার মন্দিরের জন্য টাকা দিতে অস্বীকার করেছে ছেলে। তাই ও আমার কাছে রাবণ।” তাই নিজের ছেলেকে মায়ের কাছে বলি দিয়ে রাবণবধ করতে চায় পাগলাবাবা। স্থানীয় বাসিন্দারা বলেন, প্রচার পাওয়ার জন্য কিছু না কিছু করেই থাকে। এটাও হয়তো ওর নতুন কোনও পন্থা। কিন্তু তার এই পাগলামিতে এবার গ্রামে আতঙ্ক শুরু হয়েছে। বাড়ির বাচ্চাদের নিয়ে ভয় পাচ্ছে সবাই।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে