২ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

বাবার চক্রান্ত ব্যর্থ করে অবাক প্রাণরক্ষা বালিকার

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: July 2, 2016 9:39 am|    Updated: July 2, 2016 9:39 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: একপাটি নতুন জুতো কিনে দেবে বলেছিল বাবা৷ সেই প্রলোভন এড়াতে পারেনি ছ’বছরের ছোট্ট একতা৷ সাত-পাঁচ না ভেবেই পাড়ি দিয়েছিল বাবার সঙ্গে৷ সঙ্গে ছিল বাবার এক বন্ধুও৷ গল্প-কথার মাঝে সুযোগ বুঝে একসময় সেই বাবাই বন্ধুর সাহায্যে সেতু থেকে নিচে নদীতে ধাক্কা মেরে ফেলে দিল মেয়েকে৷
কিন্তু মরল না সেই মেয়ে৷ বাবার চক্রান্ত ব্যর্থ করে, অক্ষত অবস্থায় বেঁচে ফিরল সে৷
একরত্তি সেই মেয়ের প্রাণ বাঁচাল নদীতে ভেসে থাকা কচুরিপানার সারি৷ ওই গাছ আঁকড়ে ধরেই টানা এগারো ঘণ্টা নদীতে ভেসে ছিল একতা৷
রূপকথাকেও হার মানানো এই ঘটনা ঘটেছে থানের বদলাপুরে৷ এখানেই ওয়ালিভলি সেতুর নিচে উলহাস নদীতে পড়ার পর কচুরিপানার ঝোপ জাপটে ধরে ভেসেছিল ছয় বছরের একতা৷ শত কষ্ট সত্ত্বেও মুঠি আলগা করেনি কিছুতেই৷ টানা এগারো ঘণ্টা ওইভাবেই ছিল সে৷ তার পর নদীর ধারে রাউন্ডে আসা একটি নির্মীয়মাণ সংস্থার কর্মচারীর কানে আসে বালিকার চাপা কান্নার শব্দ৷ কাছে গিয়ে সব কিছু দেখে সেই কর্মচারী দ্রুত খবর দেন পুলিশ এবং দমকল বিভাগকে৷ তাদেরই চেষ্টায় পরে উদ্ধার হয় একতা৷ পুলিশ একতার বাবা ও তার বন্ধুর খোঁজে তল্লাশি অভিযান শুরু করেছে৷
বুধবার রাত আটটায় ঘটেছে এই ঘটনা৷ রমেশ ভোইর (৩৫) নামে মোহন গ্রূপ সংস্থার যে কর্মচারীর সাহায্যে উদ্ধার হয় ছ’বছরের একতা তুলসীরাম সিয়ানি, তাঁর দাবি, “আমাদের কাজের জায়গাটি নদীর ধারেই৷ বৃহস্পতিবার ভোর ছ’টার সময় রাউন্ডে বেরোই আমি৷ তখনই একটা কান্নার শব্দ শুনি৷ উৎস খুঁজতে গিয়ে দেখি, ব্রিজের নিচে কচুরিপানা গাছ ধরে ঝুলে রয়েছে একটা বাচ্চা মেয়ে৷ সঙ্গে সঙ্গে খবর দিই পুলিশ আর দমকলকে৷ দমকল আসে সঙ্গে সঙ্গে সঙ্গে৷ পুলিশ আসে পরে৷”
দমকল বিভাগ জানিয়েছে, কুড়ি মিনিটের মধ্যে তাকে উদ্ধার করা হয়৷ ভর্তক নগর থানার সিনিয়র পুলিশ ইনস্পেক্টর কে জি গাভিটের বক্তব্য, “মেয়েটির মায়ের অভিযোগের প্রেক্ষিতে আমরা মিসিং ডায়েরি করি৷ অপহরণের ঘটনা ভেবেই প্রথমে এগোচ্ছিলাম৷ কিন্তু পরে জানতে পারি, মেয়েটির খোঁজ মিলেছে নদীতে৷ সে জানিয়েছে, বন্ধুর সঙ্গে মিলে বাবাই তাকে ব্রিজ থেকে ছুড়ে ফেলে দিয়েছিল৷”

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement