২১  আষাঢ়  ১৪২৯  বুধবার ৬ জুলাই ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

‘আমরা ক্ষমতায় থাকলে ১২৬টি জেটই ভারতে আসত’, রাফালেকে স্বাগত জানিয়ে খোঁচা কংগ্রেসের

Published by: Subhamay Mandal |    Posted: July 29, 2020 6:44 pm|    Updated: July 29, 2020 6:44 pm

The Congress Rafale purchase would have ensured India receives 126 jets instead of BJP's 36

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বুধবারই ভারতের মাটি ছুঁল ফরাসি যুদ্ধবিমান রাফালে (Rafale)। আম্বালা এয়ারবেসে ল্যান্ড করতেই ইতিহাস সৃষ্টি হল। প্রত্যেক ভারতবাসীর কাছে এক গর্বের দিন আজ। সেইসঙ্গে ভারতীয় বায়ুসেনার গোল্ডেন অ্যারোজ স্কোয়াড্রনে (Golden Arrows Squadron) অন্তর্ভুক্ত হল এই ফাইটার জেটের প্রথম ব্যাচ। এদিনের অন্তর্ভুক্তিকে স্বাগত জানিয়েছে প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেস (Congress)। তবে স্বাগত জানানোর সঙ্গে টুইট করে কেন্দ্রের মোদি সরকারকে খোঁচাও দিতে ছাড়েনি শতাব্দী প্রাচীন দল। তারা দাবি করেছে, কংগ্রেস ক্ষমতায় থাকলে ফ্রান্সের থেকে আরও কম দামে এই যুদ্ধবিমান কেনা হত। আর এই টাকায় আরও বেশি সংখ্যায় রাফালে ভারতে আসত।

এদিন রাফালের চাকা আম্বালা বায়ুসেনা ঘাঁটির মাটি ছোঁয়ার কিছুক্ষণ পরই টুইট করে কংগ্রেস। টুইটে খোঁচা দিয়ে তারা লেখে, ‘কংগ্রেস ক্ষমতায় থাকলে, ৩৬টির বদলে ভারতে ১২৬টি জেট আসত। ১০৮টি ফাইটার জেট ভারতেই তৈরি হত। ২০১৬ সালেই ভারতে চলে আসত এই যুদ্ধবিমানগুলি। এক-একটি বিমানের দাম পড়ত প্রায় ৫২৬ কোটি টাকার মতো।’ উল্লেখ্য, ২০১৬ সালেই নরেন্দ্র মোদির সরকারের সঙ্গে ফ্রান্সের আন্তর্দেশীয় সামরিক চুক্তি হয়। সেই চুক্তি অনুযায়ী, প্রায় ৫৯ হাজার কোটি টাকার বিনিময়ে ফ্রান্সের দাসো এভিয়েশন (Dassault Aviation) সংস্থার থেকে ৩৬টি রাফালে ফাইটার জেট কেনে ভারত।আগামী ২ বছরে এই বিমানগুলি ভারতে আসবে।

[আরও পড়ুন: প্রতীক্ষার অবসান, ভারতের মাটি ছুঁল রাফালে যুদ্ধবিমান]

চিনের সঙ্গে লাদাখ সীমান্তে টানাপোড়েন চলছেই। আবার চিনের সঙ্গে গলা মিলিয়ে রণহুঙ্কার দিচ্ছে পাকিস্তানও। এমন পরিস্থিতিতে চিনের সেনার হাতে রয়েছে জে-২০, জে-১৬, জে-১১-এর মতো একাধিক ফিফথ জেনারেশন যুদ্ধবিমান। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, তাদের সঙ্গে চোখে চোখ রেখে টক্কর দিতে পারবে রাফালে ফাইটার জেট। বরং চিনের যুদ্ধবিমানগুলির থেকে কয়েক ধাপ এগিয়ে ফরাসি ‘বিউটি অ্যান্ড দ্য বিস্ট’। কারণ, চিনের অধিকাংশ যুদ্ধবিমান যুদ্ধক্ষেত্রে পরীক্ষা দেয়নি। সেখান থেকে রাফালের ক্ষমতা সারা বিশ্বে স্বীকৃত। ফলে বর্তমান পরিস্থিতিতে পাকিস্তান ও চিনকে জবাব দিতে কোমর বেঁধে তৈরি রাফালে বাহিনী। রাফালের বিধ্বংসী ক্ষমতা বাড়াতে যুক্ত হয়েছে দুটি ক্ষেপণাস্ত্র। খুব শীঘ্রই ফ্রান্স থেকে আসছে হ্যামারও। সবমিলিয়ে আগামী সাতদিনের মধ্যে রণসজ্জায় সেজে উঠছে রাফালে।

[আরও পড়ুন: রাফালের জন্য কেন বেছে নেওয়া হল আম্বালা এয়ারবেসকেই , জানেন?]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে