BREAKING NEWS

৪ আশ্বিন  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

কানপুরের ছায়া! চোর ধরতে গিয়ে গণপিটুনির শিকার উত্তরপ্রদেশের ২ পুলিশকর্মী

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: August 13, 2020 5:09 pm|    Updated: August 13, 2020 5:09 pm

An Images

বাকি দুষ্কৃতীদের খোঁজে এখনও চলছে তল্লাশি

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ফের কানপুরের ঘটনারই যেন পুনরাবৃত্তি হতে চলেছিল উত্তরপ্রদেশের কুশাম্বি (Kaushambi) -তে! সেই স্মৃতি উসকে দিয়ে বুধবার গভীর রাতে ওই জেলার একটি গ্রামে চোর ধরতে গিয়ে দুষ্কৃতীদের হাতে আক্রান্ত হতে হল দুই পুলিশকর্মীকে। বিষয়টি প্রকাশ্যে আসার পরেই প্রবল উত্তেজনা দেখা দিয়েছে যোগী প্রশাসনের অন্দরমহলে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, কিছুদিন ধরে কুশাম্বি জেলার কাচ্চুয়া (Kachhua) গ্রামের দুই কুখ্যাত চোর পিন্টু ও তার ভাই টিঙ্কুর নামে নানা অভিযোগ আসছিল পুলিশের কাছে। এর জেরে বুধবার গভীর রাতে স্থানীয় থানার সাব ইনস্পেক্টর আর কে সিংয়ের নেতৃত্বে চার জনের একটি দল ওই গ্রামে অভিযান চালায়। গ্রামের মধ্যে প্রবেশ করার কিছুক্ষণের মধ্যে কিছু দুষ্কৃতী তাদের ঘিরে ফেলে আর কে সিংয়ের সার্ভিস রিভলভার ও মোবাইল ফোন কেড়ে নেয়। অন্য পুলিশকর্মীরা বাধা দিতে গেলে তাঁদের ইট ও লোহার রড দিয়ে বেধড়ক মারধর করে। এর ফলে গুরুতর জখম হন আর কে সিং ও এক কনস্টেবল দিলীপ সিং। পরে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে আসে বিশাল পুলিশ বাহিনী। আক্রান্ত পুলিশকর্মীদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পাশাপাশি এই ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ১১ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়।

[আরও পড়ুন: বানচাল স্বাধীনতা দিবসে নাশকতার ছক, পুলওয়ামা থেকে উদ্ধার বিপুল পরিমাণ অস্ত্র]

এপ্রসঙ্গে কুশাম্বির পুলিশ সুপার অভিনন্দন বলেন, ‘পুলিশকর্মীরা ওই গ্রামে ঢোকার কিছুক্ষণের মধ্যে ১২ জনের বেশি দুষ্কৃতী তাঁদের ঘিরে ফেলে হেনস্তা করতে শুরু করেন। এমনকী সাব ইনস্পেক্টর আর কে সিংয়ের সার্ভিস রিভলভার ও মোবাইল ফোন কেড়ে নিয়ে তাঁকে বেধড়ক মারধর করে। তাঁকে বাঁচাতে গিয়ে গুরুতর জখম হন দিলীপ সিং নামে এক কনস্টেবলও। কিছুক্ষণ বাদে গুজব ছড়ায় আর কে সিংকে পিটিয়ে মেরে ফেলেছে দুষ্কৃতীরা। এই খবর পাওয়ার পরে ঘটনাস্থলে পৌঁছয় বিশাল পুলিশ বাহিনী। তারপর আক্রান্তদের উদ্ধার করার পাশাপাশি এই ঘটনায় জড়িত ১১ জন দুষ্কৃতীকে গ্রেপ্তার করা হয়। উদ্ধার হয় আর কে সিংয়ের রিভলভার ও মোবাইল। ধৃতদের মধ্যে ওই দুই চোর ছাড়া তাদের মা ও অন্য আত্মীয়রা রয়েছে।’

[আরও পড়ুন: প্রতিরক্ষায় ‘আত্মনির্ভর’ ভারত, এবার লাদাখের আকাশে টহল স্বদেশি হেলিকপ্টারের]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement